• বৃহস্পতিবার, ২৯ অক্টোবর ২০২০, ১৪ কার্তিক ১৪২৭
আমনে স্বপ্ন দেখছেন ফুলবাড়ীর কৃষকরা

ছবি: বাংলাদেশের খবর

কৃষি অর্থনীতি

আমনে স্বপ্ন দেখছেন ফুলবাড়ীর কৃষকরা

  • ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০

দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলায় আমন ধানের বাম্পার ফলনের সম্ভবনা দেখা দেওয়ায় বুকভরা স্বপ্ন বুনছেন স্থানীয় কৃষকরা। এ বছর ফুলবাড়ী উপজেলায় ১৮ হাজার ২৭৫ হেক্টর জমিতে আমন চাষ করা হয়েছে। আগামী এক মাসের মধ্যেই কাঙ্খিত আমন ধান ঘরে তুলতে পারবেন বলে আশা করছেন কৃষকরা।

আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় এবং বর্ষায় পর্যাপ্ত পানি হওয়ায় যেনো সবুজে ভরে উঠেছে মাঠ। চারিদিক শুধু সবুজ আর সবুজের সমারোহ। ধানের ক্ষেত যেনো দুলছে সবুজের ঢেউয়ে। আর সেই ঢেউ দেখেই সোনালী স্বপ্ন বুনছেন কৃষকরা।

উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, এ বছর উপজেলায় আমন ধানের লক্ষমাত্রা ১৭ হাজার ৩৩০ হেক্টর জমিতে টার্গেট করা হলেও অর্জিত হয়েছে ১৮ হাজার ২৭৫ হেক্টর। এর মধ্যে ২৫০ হেক্টর জমিতে হাইব্রিড ও ১৮ হাজার ২৫ হেক্টর জমিতে উপশী জাতীয় রোপা আমন ধান চাষ করা হয়েছে।

উপজেলার এলুয়ারি গ্রামের ধানচাষি ওয়াজেদ আলী বলেন, তার ১৫ বিঘা জমি রয়েছে। বোরো মৌসুমে ১০ বিঘা জমিতে ধান চাষ করেছিলেন। এবার পুরো জমিতেই আমন চাষ করেছেন। উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের পরামর্শে ফসল ফলিয়েছেন। সেই সফলের সবুজ ঢেউ এখন তাকে স্বপ্ন দেখায় ভালো ফলন ও ভালো দামের।

বানাহার গ্রামের আমন চাষি আলহাজ¦ আনোয়ার বলেন, বোরো মৌসুমে ৪০ বিঘা জমিতে ধান চাষ করেছিলেন। রোপা আমনে ৫০ বিঘা জমিতে তিনি হাইব্রিড ও উপশী জাতীয় ধান চাষ করেছেন। আবহওয়া অনুকূলে থাকাসহ প্রয়োজনীয় বৃষ্টিপাত হওয়ায় এবার ফলনের কোনক্ষতি হয়নি। প্রতিটি কৃষকই প্রতিদিন ক্ষেত এসে স্বপ্ন বুনছেন আশানুরুপ ফলন পাওয়ার মাধ্যমে ভালো দাম পাওয়া।

ফুলবাড়ী উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ রুম্মান আক্তার বলেন, পৌরসভাসহ উপজেলার ৭টি ইউনিয়নের জমিতে এখন আমনের সবুজ ঢেউ খেলছে। এবছর উপজেলায় আমন ধানের লক্ষ্যমাত্রার অর্জিত এই ফসলে ৫০ হাজার ৯৮৯ মেট্রিক টন চাল উৎপাদন হবে। তিনি নিজেসহ কর্মরত ১২ জন উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা সার্বক্ষণিকভাবে কৃষকের জমিতে গেয়ে ফসলের তদারকিসহ পরামর্শ দিচ্ছেন।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads