• শুক্রবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
ফসলী জমিতে অবৈধ ভাবে ইট ভাটা নির্মাণ

মেসার্স মোল্লা ব্রিক্স (এমএমবি) নামের ওই ব্রিক্স ফিল্ডে

প্রতিনিধির পাঠানো ছবি

জীব ও পরিবেশ

ফসলী জমিতে অবৈধ ভাবে ইট ভাটা নির্মাণ

  • কালিয়াকৈর (গাজীপুর) প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ১৯ নভেম্বর ২০১৯

গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার সীমান্তবর্তী এলাকা মহরাবহ। দুই উপজেলার সীমান্তবর্তী এলাকা হওয়ায় খুব সহজে প্রশাসনের চোখ ফাঁকি দিয়ে ইট ভাটা গড়ে তুলছে জন প্রতিনিধিরা অভিযোগ উঠেছে।

সরেজমিনে গিয়ে জানা যায়, এলাকাটি ছিল সবুজের সমারোহ। বিপুল পরিমানে ফসল ফলাত কৃষকেরা। হঠাৎ একদিন এলাকায় আগমন ঘটে এক ভাটা মালিক কর্তৃপক্ষের। তারা সাভাজপুরে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, বেনুপুরে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও আশরাফ আলী বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয় এবং বেনুপুরে কমিউনিটি ক্লিনিকের মাঝ বরাবর আধা কি.মি এর ভিতরেই অবৈধভাবে গড়ে তুলে ইটের ভাটা।

খবর নিয়ে জানা যায়, মেসার্স মোল্লা ব্রিক্স (এমএমবি) নামের ওই ব্রিক্স ফিল্ডের মালিক গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের একজন নির্বাচিত কাউন্সিলর। তিনি স্থানীয় বর্তমান ও সাবেক মেম্বারদের (জনপ্রতিনিধি) সাথে আতাত করে ওই ইট ভাটা কার্যক্রম শুরু করে। এসব জনপ্রতিনিধিরা প্রভাবশালী হওয়ার স্থানীয় লোকজন প্রতিবাদ করেও কোন ফল পায় নি।

মোল্লা ব্রিক্স নির্মানই শেষ নয়। তিনি এসব জনপ্রতিনিধিদের সাথে আতাত করে পাশা পাশি গড়ে তুলে আরো নাহিদ ব্রিকস, ফাইভ স্টার ব্রিকস, থ্রি স্টার ব্রিকস। এসব ইটভাটার প্রত্যেকটা দুটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও দুটি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের আধা কিলোমিটারের মধ্যে অবস্থিত। মেসার্স মোল্লা ব্রিকস এর মালিক সাইজুদ্দিন মোল্লা প্রভাবশালী হওয়ায় লোকালয়ের ভিতরে বিদ্যালয়ের পাশে এসব ইট ভাটা গড়ে তুলেছে বলে এলাকাবাসীর দাবি। মেসার্স মোল্লা ব্রিকস এর মালিক সাইজুদ্দিন মোল্লাক মোবাইল ফোনে পাওয়া যায় নি

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী হাফিজুল আমিন বলেন, তদন্ত সাপেক্ষে এ মাসের মধ্যে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads