• বৃহস্পতিবার, ১৩ আগস্ট ২০২০, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭
ads
৩৮তম বিসিএসে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাফল্য

প্রতিনিধির পাঠানো ছবি

ক্যাম্পাস

৩৮তম বিসিএসে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাফল্য

  • ঢাবি প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ০৩ জুলাই ২০২০

প্রতিবছরের মত এবছরও বিসিএসের ফলাফলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীরা ক্যাডার প্রাপ্তির দিক থেকে অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়গুলির মধ্যে সংখ্যাগরিষ্ঠ।

সদ্য প্রকাশিত ৩৮ তম বিসিএসের ফলাফল অনুযায়ী এখন পর্যন্ত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫৩ টি বিভাগ/ইনস্টিটিউট থেকে সর্বমোট ৪৩৪ জন ছাত্র-ছাত্রীর ক্যাডার প্রাপ্তির সুপারিশের খবর জানা গেছে।

ঘোষিত ফলাফল অনুযায়ী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের 'ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি' এবং 'তড়িৎ এবং ইলেকট্রনিক কৌশল' বিভাগ থেকে সর্বোচ্চ সংখ্যক ক্যাডার প্রাপ্তির খবর এসেছে। দুটি বিভাগ থেকেই ৩৩ জন করে ক্যাডারের জন্য সুপারিশপ্রাপ্ত হয়েছেন। ক্যাডার প্রাপ্তির দিক থেকে দ্বিতীয় অবস্থানে আছে 'শিক্ষা ও গবেষণা ইনস্টিটিউট'। এখান থেকে মোট ২৫ জনের ক্যাডার প্রাপ্তির ব্যাপারে নিশ্চিত করা হয়েছে। ক্যাডার প্রাপ্তির দিক থেকে তৃতীয় অবস্থানে আছে 'রাষ্ট্রবিজ্ঞান' এবং 'ফিন্যান্স' বিভাগ। এই দুই বিভাগ থেকেই ২১ জন করে ক্যাডার প্রাপ্তির সংবাদ এসেছে। এছাড়া অন্যান্য বিভাগগুলোর মধ্যে 'অর্থনীতি' বিভাগ থেকে ২০ জন, 'দর্শন' ও 'একাউন্টিং ইনফরমেশন সিস্টেম' বিভাগ থেকে ১৯ জন, 'বাংলা' বিভাগ থেকে ১৮ জন, 'ইতিহাস' , 'পদার্থবিজ্ঞান' এবং 'মৃত্তিকবিজ্ঞান' বিভাগের প্রতিটি থেকেই ১৬ জন করে মোট ৪৮ জন সুপারিশপ্রাপ্ত হয়েছে।

আরও যেসব বিভাগ থেকে বিসিএস ক্যাডার প্রাপ্তির খবর পাওয়া গেছে, সেগুলোর মধ্যে আছে- ইংরেজি বিভাগ ১৩ জন, ম্যানেজমেন্ট বিভাগ ১১ জন, সমাজবিজ্ঞান বিভাগ-১১ জন, মার্কেটিং বিভাগ ৮ জন, ম্যানেজমেন্ট ইনফরমেশন সিস্টেম ৬ জন, ব্যাংকিং ইন্সুরেন্স ১ জন, ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস ৪ জন, ট্যুরিজম এন্ড হস্পিটালিটি ২ জন, আইন বিভাগ ৩ জন, আন্তর্জাতিক সম্পর্ক ৬ জন, ডেভলপমেন্ট স্টাডিজ ৬ জন, লোকপ্রশাসন ৭ জন, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ১ জন, নৃবিজ্ঞান বিভাগ ১ জন, শান্তি ও সংঘর্ষ ৩ জন, গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা ৩ জন, সংস্কৃত ২ জন, ইসলামিক স্টাডিজ ৬ জন, লাইব্রেরি ম্যানেজমেন্ট ১ জন, থিয়েটার বিভাগ ১ জন, কম্পিউটার সাইন্স ৪ জন, তথ্য প্রযুক্তি ৪ জন, জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং ১ জন, ফার্মেসি ১ জন, মাইক্রোবায়োলজি ২ জন, বায়োকেমিস্ট্রি ৬ জন, গণিত ৫ জন, রসায়ন ৩ জন, ফলিত রসায়ন ৫ জন, পরিসংখ্যান ৫ জন,
ফলিত পরিসংখ্যান ৪ জন, মৎস্য বিজ্ঞান ৩ জন, প্রাণীবিজ্ঞান ৯ জন, উদ্ভিদবিজ্ঞান ৩ জন, ভূগোল ও পরিবেশ ৭ জন, ভূতত্ত্ব ৩ জন, মনোবিজ্ঞান ৬ জন, লেদার ইঞ্জিনিয়ারিং ৪ জন, পুষ্টিবিজ্ঞান ২ জন, সমাজকল্যাণ ৬ জন এবং  স্বাস্থ্য অর্থনীতি ইনস্টিটিউটে ১ জন।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads