• সোমবার, ২৬ আগস্ট ২০১৯, ১১ ভাদ্র ১৪২৫
ads
জীবনযাত্রার ব্যয় আগের চেয়ে কম বেড়েছে

জীবনযাত্রার ব্যয় আগের চেয়ে কম বেড়েছে

সংরক্ষিত ছবি

পণ্যবাজার

জীবনযাত্রার ব্যয় আগের চেয়ে কম বেড়েছে

  • নিজস্ব প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত ১৩ জানুয়ারি ২০১৯

বিদায়ী বছরে চাল, মাছ, ডিম, শাকসবজিসহ বাসাভাড়া বেড়েছে। এতে একটি পরিবারের পণ্য ও সেবাখাতে ৫ দশমিক ১৯ শতাংশ বেশি খরচ হচ্ছে। সব মিলিয়ে গত বছর শহরের জীবনযাত্রার ব্যয় বেড়েছে ৬ শতাংশ। তবে সুখের সংবাদ এটাই, এ বৃদ্ধি বিগত কয়েক বছরের তুলনায় কম।

গতকাল শনিবার ভোক্তা অধিকার নিয়ে কাজ করা সংগঠন কনজ্যুমারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (ক্যাব) দ্রব্যমূল্য ও জীবনযাত্রার ব্যয়-বিষয়ক বার্ষিক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। সেখানে এসব তথ্য উঠে আসে। প্রতিবেদন প্রকাশ উপলক্ষে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনটির চেয়ারম্যান গোলাম রহমান। জীবনযাত্রার এ ব্যয়ের প্রতিবছরের হিসাব রাখে ক্যাব। নতুন বছরের শুরুতে সংবাদ সম্মেলন করে সেটা জানানো হয়। গত কয়েক বছরের সেই তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, ২০১৮ সালের জীবনযাত্রার ব্যয় গত কয়েক বছরের তুলনায় কম। গত পাঁচ বছরের মধ্যে ২০১৪ সালে ৬ দশমিক ৮২ শতাংশ হারে বেড়েছিল জীবনযাত্রার ব্যয়। এরপর ২০১৫ সালে ৬ দশমিক ৩৮ শতাংশ, ২০১৬ সালে ৬ দশমিক ৪৭ শতাংশ, ২০১৭ সালে ৮ দশমিক ৪৪ শতাংশ হারে এ ব্যয় বৃদ্ধি পায়।

প্রতিবছর শিক্ষা, চিকিৎসা ও যাতায়াত ব্যয় বাদ দিয়ে জীবনযাপনের অন্যান্য ব্যয় হিসাব করে এই প্রতিবেদন তৈরি করা হয়। প্রতিবেদন তৈরির জন্য রাজধানীর ১৫টি খুচরা বাজার ও বিভিন্ন সেবার মধ্য থেকে ১১৪টি খাদ্যপণ্য, ২২টি নিত্যব্যবহার্য সামগ্রী ও ১৪টি সেবাখাতের তথ্য পর্যালোচনা করা হয়।

ক্যাবের তথ্য অনুযায়ী, ২০১৮ সালে জীবনযাত্রার ৬ শতাংশ বৃদ্ধির মধ্যে পণ্যমূল্য ও সেবা সার্ভিসের মূল্য বেড়েছে ৫ দশমিক ১৯ শতাংশ। পূর্ববর্তী ২০১৭ সালে পণ্যমূল্য ও সেবা সার্ভিসের মূল্য বেড়েছিল ৭ দশমিক ১৭ শতাংশ। অর্থাৎ আগের বছরের চেয়ে গত বছর এসব খাতে ব্যয় কমেছে।

গত বছর আগের বছরের তুলনায় সব ধরনের চালের গড় মূল্য বৃদ্ধি পেয়েছে ৮ দশমিক ৯১ শতাংশ। গত বছর সবচেয়ে বেশি দাম বেড়েছে প্রসাধনী পণ্য সাবা‌নের। পণ্যটির দাম গ‌ড়ে বে‌ড়ে‌ছে ২০ শতাংশ। অন্যান্য পণ্যের মাছের দাম বেড়েছে ১৩ দশমিক ৫০ শতাংশ, শাকসবজির ৯ দশমিক ৩৮ শতাংশ, তরল দুধের ১০ দশমিক ৩৩ শতাংশ, মাংস ৩ দশমিক ৩৭ শতাংশ, ডিম ৭ দশমিক ৭১ শতাংশ, চা-পাতা ৮ দশমিক ৮৯ শতাংশ দাম বেড়েছে। এ ছাড়া দুই কক্ষের বাড়িভাড়া ৫ দশমিক ৫ শতাংশ বে‌ড়ে‌ছে। এ ছাড়া শাড়ি, না‌রি‌কেল তেল, ওয়াসার পা‌নি প্রভৃতি জিনিসের দাম বেড়েছে। ২০১৭ সালের থেকে কমেছে ডাল, লবণ, মসলা ও চিনির দাম।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads