• বুধবার, ২১ আগস্ট ২০১৯, ৬ ভাদ্র ১৪২৫
ads
সখীপুরে ছাত্রীদের শ্লীলতাহানির অভিযোগে শিক্ষককে সাময়িক বরখাস্ত

প্রতীকী ছবি

সারা দেশ

সখীপুরে ছাত্রীদের শ্লীলতাহানির অভিযোগে শিক্ষককে সাময়িক বরখাস্ত

  • সখীপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ২৫ এপ্রিল ২০১৯

টাঙ্গাইলের সখীপুরে ছাত্রীদের করা শ্লীলতাহানির অভিযোগে লাঙ্গুলিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের এক শিক্ষককে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। গত বুধবার শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের তোপের মুখে ওই বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মিজানুর রহমানকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়। ঘটনা তদন্তে তিন সদস্যের কমিটি গঠন করা হয়েছে।

জানা যায়, গত ১৭ এপ্রিল শিক্ষক মিজানুর রহমান পড়া না শেখার অভিযোগে ৮ম শ্রেণির অধিকাংশ শিক্ষার্থীকে স্পর্শকাতর অংশে বেত্রাঘাত করেন। এসময় তিনি ছাত্রীদের ওড়না নিয়ে বাজে মন্তব্য ও অকথ্য ভাষায় গালিগালাজও করেন। পরে কয়েকজন ছাত্রী এ নিয়ে প্রধান শিক্ষকের কাছে অভিযোগ দেয়।

বৃহস্পতিবার অভিযোগকারী এক ছাত্রী মুঠোফোনে জানায়, স্কুলের কমনরুমে একা বা দুই তিনজনকে পেলে ওই শিক্ষক ছাত্রীদের ব্যক্তিগত বিষয় নিয়ে খারাপ ভাষায় কথা বলেন।

এদিকে অভিযোগের পরও বিষয়টি নিষ্পত্তিতে গড়িমসি শুরু হলে অভিভাবক ও স্থানীয়দের মাঝে তীব্র উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। পরে বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের জরুরি সভায় শিক্ষক মিজানুর রহমানকে সাময়িক বরখাস্তের সিদ্ধান্ত নেয়।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নুরুল ইসলাম বলেন, জরুরি সভায় অভিযুক্ত শিক্ষককে সাময়িক বরখাস্ত করে ঘটনা তদন্তে তিন সদস্যের কমিটি গঠন করা হয়েছে।

মুঠোফোনে অভিযুক্ত শিক্ষক মিজানুর রহমান জানান, পড়া না শিখায় আমি কয়েকজন শিক্ষার্থীকে বেত্রঘাত করেছিলাম। ষড়যন্ত্রমূলকভাবে আমাকে ফাঁসানোর চেষ্টা করা হচ্ছে।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. মফিজুল ইসলাম বলেন, বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক তাদের সিদ্ধান্তের কথা আমাকে ফোনে জানিয়েছেন। লিখিত অভিযোগ পেলে ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads