• শনিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২১ কার্তিক ১৪২৪
ads
ভূঞাপুরে বাল্য বিয়ে বন্ধ করলেন ইউএনও

বাল্য বিয়ে

প্রতীকী ছবি

সারা দেশ

ভূঞাপুরে বাল্য বিয়ে বন্ধ করলেন ইউএনও

  • ভূঞাপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ১৭ আগস্ট ২০১৯

বাল্য বিয়ে বন্ধ করলেন ইউএনও। টাঙ্গাইলে ভূঞাপুরে গোবিন্দাসী ইউনিয়নে কুকাদাইর গ্রামে বাল্য বিয়ে হচ্ছিল। খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার ঝোটন চন্দ ও উপজেলা কমিশনার (ভূমি) মোঃ আসলাম হোসাইনের নেতৃত্বে বিয়েটি বন্ধ করেন এবং বর-কনেকে আটক করে ভূঞাপুর থানায় নিয়ে যাওয়া হয়।

গত শুক্রবার (১৬ই আগষ্ট) রাত সাড়ে ৯ টার দিকে কুকাদাইর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

খানুরবাড়ি গ্রামের মৃত গোপালের ছেলে মোঃ রফিকুল ইসলাম (১৭) ও কুকাদাইর গ্রামের মোঃ আব্দুর রাজ্জাকের মেয়ে মোছাঃ ময়না খাতুন (১৩) মধ্যে বিবাহ দেওয়ার প্রস্তুতি চলছিল। পরদিন ১৭ই আগষ্ট শনিবার সকাল ১১ টায় উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ে, ইউএনও ঝোটন চন্দের উপস্থিতে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্যাট মোঃ আসলাম হোসাইন উভয় পক্ষের অভিভাবক ডেকে বরের অভিভাবক বড় ভাই মোঃ শফিকুল ইসলামকে বাল্য বিবাহ দেয়ার অপরাধে ২০ হাজার টাকা জরিমানাসহ মুচলেকা দিয়ে এবং মেয়ের অভিভাবকে প্রাপ্ত বয়সে বিয়ে দেয়া সাপেক্ষে তাদেরকে ছেড়ে দেয়া হয়।

এ বিষয়ে নির্বাহী অফিসার ঝোটন চন্দ বলেন আমরা বাল্য বিয়ে বন্ধ করতে বদ্ধ পরিকর। এ কার্যক্রম পরিচালনা অব্যহত থাকবে।

থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ রাশিদুল ইসলাম বলেন, ভূঞাপুর উপজেলা থেকে বাল্য বিয়ে নির্মূল করে ছাড়ব, সেভাবেই আমরা কাজ করে যাচ্ছি।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads