• মঙ্গলবার, ১৫ অক্টোবর ২০১৯, ৩০ আশ্বিন ১৪২৬
ads
সাতক্ষীরায় সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান ময়না আটক

ছবি : সংগৃহীত

সারা দেশ

সাতক্ষীরায় সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান ময়না আটক

  • সাতক্ষীরা প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯

সাতক্ষীরার কলারোয়া উপজেলা পরিষদের সাবেক মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আ’লীগ নেত্রী সেলিনা আনোয়ার ময়নাকে আটক করেছে পুলিশ। গতকাল সোমবার বিকেলে উপজেলার ১১ নং দেয়াড়া ইউনিয়নের দেয়াড়া গ্রাম থেকে তাকে আটক করা হয়।

সম্প্রতি ওই ইউনিয়নের খোরদো বাওড়কে কেন্দ্র করে এক ব্যক্তিকে মারপিট ও চাঁদাদাবির ঘটনায় কলারোয়া থানায় দায়েরকৃত মামলায় তিনি এজাহার নামীয় আসামি হওয়ায় তাকে আটক করা হয়।

কলারোয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শেখ মুনীর-উল-গিয়াস আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ‘খোরদো বাওড়কে কেন্দ্র করে এক ব্যক্তিকে মারধর করে পা ভেঙ্গে দেয়ার ঘটনার মামলায় সেলিনা আনোয়ার ময়না ও নিত্য নামের এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে।’

তিনি আরো বলেন, সরকারিভাবে ইজারা নেয়া খোরদো বাওড়ে মাছ চাষ করে আসা খোরদো মৎস্যজীবী সমিতির সদস্য পাকুড়িয়া গ্রামের শচীন বিশ্বাস (৪৫) এর কাছে গত ১১ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় দেয়াড়ার পাকুড়িয়ায় ব্রাক অফিসের সামনে একটি চায়ের দোকানে ৫লাখ টাকা চাঁদা দাবিকে কেন্দ্র করে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে মারপিটের শিকার হন শচীন বিশ্বাস। এতে তার পা ভেঙ্গে যায়। তিনি বর্তমানে চিকিৎসাধীন। ওই ঘটনায় গত ১২ সেপ্টেম্বর থানায় অভিযোগ দায়ের হয়। আর এই বিষয়ে ১৫ সেপ্টেম্বর রোববার সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করেন আহত শচীন বিশ্বাসের স্ত্রী কনিকা বিশ্বাস (৪০)। এসকল ঘটনার পর ১৬ সেপ্টেম্বর সোমবার সন্ধ্যায় থানায় দায়ের হওয়া মামলায় আসামি সাবেক মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সেলিনা আনোয়ার ময়নাকে আটক করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, উপজেলার দেয়াড়া ইউনিয়নের দলুইপুর গ্রামের বাসিন্দা মহিলা আ.লীগ নেত্রী সেলিনা আনোয়ার ময়না বিগত উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ছিলেন। গেলো ২০১৯ সালের ২৪ মার্চের ৫ম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনেও তিনি উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে পরাজিত হন। তিনি দেয়াড়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান প্রয়াত সম আনোয়ারুল ইসলামের স্ত্রী।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads