• শনিবার, ৬ জুন ২০২০, ২৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫
ads
চৌদ্দগ্রামে মেয়র নিজেই কর্মহীনদের বাড়িতে খাদ্য সামগ্রী নিয়ে হাজির

বাড়ি গিয়ে অসহায় বৃদ্ধাকে খাদ্য সামগ্রী দিচ্ছেন চৌদ্দগ্রাম পৌরসভার মেয়র মিজান।

প্রতিনিধির পাঠানো ছবি

সারা দেশ

চৌদ্দগ্রামে মেয়র নিজেই কর্মহীনদের বাড়িতে খাদ্য সামগ্রী নিয়ে হাজির

  • চৌদ্দগ্রাম (কুমিল্লা) প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ০৬ এপ্রিল ২০২০

মেইলে ছবি আছে

 




বাড়ি বাড়ি গিয়ে নিজ হাতে এবং কাউন্সিলদের মাধ্যমে কর্মহীন, অসহায় ও দরিদ্রদের মাঝে খাদ্যসামগ্রী পৌঁছে দেন কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম পৌরসভার মেয়র মিজানুর রহমান।

আজ সোমবার চৌদ্দগ্রাম পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ডের ২ হাজার কর্মহীন, অসহায় ও দরিদ্র পরিবারের মাঝে পরিবার প্রতি ১০ কেজি চাল, ২ কেজি আলু ও এক লিটার সয়াবিন তেল পৌঁছে দেন তিনি।

সকালে পৌরভবন থেকে প্রতি পরিবারের জন্য বস্তা ভর্তি খাদ্যসামগ্রী গাড়ীতে করে পৌরসভার কাউন্সিলর এবং আওয়ামীলীগের নেতা কর্মী ও স্বেচ্ছাসেবীর মাধ্যমে গ্রামে গ্র্রামে গিয়ে তালিকাভূক্ত পরিবারগুলোর ঘরের দরজায় পৌছে দেয়া হয় এ খাদ্য সামগ্রী। মেয়র মিজান পৌরসভার চান্দিশকরা, পাাঁচরা, নবগ্রাম ও সোনাকাটিয়া গ্রামে গিয়ে তালিকাভূক্ত পরিবারগুলোর ঘরের দরজায় পৌঁছে গৃহকর্তার হাতে খাদ্যসামগ্রীর বস্তা তুলে দেন। কোন প্রকার ঘোষনা ছাড়াই ঘরের দরজায় খাদ্য সামগ্রী নিয়ে স্বয়ং মেযরকে দেখে অনেকে আনন্দে কেঁদে ফেলেন।

পৌরসভার ১নং ওয়ার্ডের সোনাকাটিয়া গ্রামের হত দরিদ্র সফিকুর রহমান বলেন, করোনা ভাইরাসের কারনে কর্মহীন হয়ে ঘরে পড়ে আছি। ৭ সদস্যের পরিবার। আজ চুলোয় আগুন দেয়ারও ব্যবস্থা ছিল না। মনে হয় স্বয়ং আল্লাহই মেয়রকে দিয়ে আমাদের ব্যবস্থা করিয়েছেন।

মেয়র মিজান সংবাদ মাদ্যমকে বলেন, মাননীয় প্রধান মন্ত্রী জননেত্রী মেখ হাসিনার নির্দেশনায় ও সাবেক রেলপথমন্ত্রী মুজিবুলহক এমপির দিক নির্দেশনা অনুযায়ী সরকারি ও আমার ব্যক্তিগত তহবিল থেকে দুই হাজার পরিবারকে স্থানীয় কাউন্সিলর ও গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গের সম্বন্বয়ে বিতরণ কমিটির মাধ্যমে পৌরসভার ২৬টি গ্রামে এ খাদ্য সামগ্রী বিতরনের ব্যবস্থা করেছি। এছাড়া গত ২৬ মার্চ থেকে পৌর এলাকার সকল রাস্তায় জীবানু নাশক ঔষধ ছিটানো এবং জনসচেতনতা মূলক লিফলেট বিতরণের ব্যবস্থা করা হয়েছে, যা এখনও চলমান রয়েছে। তিনি পৌরবাসীকে ঘরে থাকার আহবান জানিয়ে বলেন, সরকারের নির্দেশনা মেনে আপনারা ঝরে থাকুন, নিজ পরিবার ও দেশকে নিরাপদ রাখুন। মহান আল্লাহর কাছে বেশি বেশি প্রার্থনা করুন, তিনি আমাদের এ ভয়াবহ বিপদ থেকে রক্ষা করবেন।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads