• মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারি ২০২১, ৫ মাঘ ১৪২৭
চৌদ্দগ্রামে আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে দেয়াল নির্মাণের অভিযোগ

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে দেয়াল নির্মাণ করছে একটি প্রভাবশালী চক্র

ছবি : বাংলাদেশের খবর

সারা দেশ

চৌদ্দগ্রামে আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে দেয়াল নির্মাণের অভিযোগ

  • চৌদ্দগ্রাম (কুমিল্লা) প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ২৮ নভেম্বর ২০২০

দেওয়ানী আদালতের স্থায়ী নিষেধাজ্ঞা রায় অমান্য করে কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম উপজেলার শুভপুর ইউনিয়নের কৈয়ারধারী গ্রামে দেয়াল নির্মাণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। খবর পেয়ে থানা পুলিশের একটি টিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

আজ শনিবার সকালে সরেজমিন পরিদর্শন করে এ তথ্য জানা গেছে।

চৌদ্দগ্রাম থানায় দায়েরকৃত অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে কৈয়ারধারী গ্রামের জিয়াউর রহমান মজুমদারের সাথে ১৮ শতক জায়গা নিয়ে তোফাজ্জল হোসেন মজুমদার, আফজালুর রহমান মজুমদার, আরিফুর রহমান মজুমদার ও আতর ইসলাম মজুমদার গংয়ের আদালতে মামলা চলে আসছিল। উভয় পক্ষের মামলাগুলো হলো-পিআর মামলা ৭১৫/১৬ এবং দেওয়ানী মামলা ৩১/১৮ ও ফৌজদারী মামলা ২৭৯/১৮। আদালত দীর্ঘ পর্যবেক্ষণ শেষে সব কয়টি মামলায় জিয়াউর রহমান মজুমদারের পক্ষে রায় দেন। বিরোধকৃত সম্পত্তিতে জিয়াউর রহমান মজুমদারের পুরাতন ঘর ও গাছপালা রয়েছে। রায় পাওয়ার পর জিয়াউর রহমান মজুমদার গং নতুন করে ঘর নির্মাণ করতে গেলে তোফাজ্জল হোসেন মজুমদার গং বাধা দেয় এবং মারমুখী আচরণ শেষে মিথ্যা মামলায় জড়াবে বলে প্রকাশ্যে হুমকি দেয়। এ ঘটনায় তোফাজ্জল হোসেন মজুমদার গংয়ের বিরুদ্ধে চৌদ্দগ্রাম থানায় অভিযোগ দাখিল করে জিয়াউর রহমান মজুমদার।

শুক্রবার ভোররাতে আদালতের স্থায়ী নিষেধাজ্ঞা রায় অমান্য করে তোফাজ্জল হোসেন গং পার্শ্ববর্তী নাঙ্গলকোট এলাকার বহিরাগত লোকজন এনে দেয়াল নির্মাণ শুরু করে। খবর পেয়ে চৌদ্দগ্রাম থানা পুলিশের এএসআই মোঃ ইয়াছিনের নেতৃত্বে পুলিশের একটি টিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে নির্মাণ কাজ বন্ধ রাখার নির্দেশ দেয়। কিন্তু সব আদেশ উপেক্ষা করেই তোফাজ্জল হোসেন মজুমদার গং শনিবারও নির্মাণ কাজ করতে দেখা গেছে।

এদিকে ঘটনাস্থলে গেলে সাংবাদিকের সাথে ঔদ্বত্যপূর্ণ আচরণ করে দেয়াল নির্মাণকারী পক্ষের লোকজন।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads