• রবিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২১ কার্তিক ১৪২৪
ads
দুবাই-অভিজ্ঞতা কাজে লাগাতে চান তামিম

বাংলাদেশের এই তারকা ব্যাটসম্যান তামিম ইকবাল

সংগৃহীত ছবি

ক্রিকেট

দুবাই-অভিজ্ঞতা কাজে লাগাতে চান তামিম

  • স্পোর্টস রিপোর্টার
  • প্রকাশিত ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে আগামীকাল শনিবার শুরু হবে বাংলাদেশের এশিয়া কাপ ক্রিকেট মিশন। গতবার ভারতের কাছে ফাইনাল হারের দুঃসহ স্মৃতি এবার কাটিয়ে উঠতে চান মাশরাফি মুর্তজারা। আর দুবাইয়ে খেলার অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে সেই প্রত্যাশা পূরণে অবদান রাখতে চান সবার শেষে দলের সঙ্গে যোগ দেওয়া ওপেনিং ব্যাটসম্যান তামিম ইকবাল।

পাকিস্তান সুপার লিগে পেশোয়ার জালমির হয়ে সংযুক্ত আরব আমিরাতে খেলার অভিজ্ঞতা আছে বাংলাদেশের বাঁহাতি ওপেনারের। এটা এশিয়া কাপে ভালো কাজে দেবে বিশ্বাস তামিমের।

দুবাইয়ে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রথম ম্যাচে মাঠে নামার আগে গতকাল বৃহস্পতিবার অনুশীলন করেছে বাংলাদেশ দল। সেখানেই নিজের আত্মবিশ্বাসের কথা জানান তামিম, ‘পাকিস্তান সুপার লিগে খেলার কারণে দুবাইয়ে খেলার কিছু অভিজ্ঞতা আমার আছে। আমি মনে করি উইকেট এখানে একই নয়। কখনো কখনো এটা সত্যিই ভালো ব্যাটিং উইকেট হয়, আবার কখনো সিমার ও স্পিনারদের সহায়তা করে।’

উইকেট নিয়ে রহস্যের মধ্যে আছেন বাংলাদেশের এই তারকা ব্যাটসম্যান, ‘আমাদের দেখতে হবে কেমন উইকেট আমরা পাই। কিন্তু দুবাইয়ে খেলা সব সময় মজার। আমরা ভালো একটা ম্যাচ খেলতে মুখিয়ে আছি।’

১৫ সেপ্টেম্বর উদ্বোধনী ম্যাচেই বাংলাদেশ মাঠে নামবে শ্রীলঙ্কার। ‘বি’ গ্রুপে বাংলাদেশ তাদের দ্বিতীয় ম্যাচ খেলবে আফগানিস্তানের বিপক্ষে। ২০ সেপ্টেম্বর ওই ম্যাচটি হবে আবুধাবিতে। টুর্নামেন্টের অপর দলগুলো হলো ‘এ’ গ্রুপে ভারত, পাকিস্তান ও হংকং।

বাংলাদেশের স্কোয়াডের ১৪ জন আগেই দুবাইয়ে পৌঁছেন। তামিমকে নিয়ে অনেক নাটক হয়েছে। কিন্তু ভিসা জটিলতায় পড়ে বাংলাদেশের হার্ড হিটার ওপেনার তামিম দুবাই যান বাংলাদেশ সময় বুধবার সকালে। তিনি মঙ্গলবার রাত দেড়টার ফ্লাইটে ঢাকা ছাড়েন। ঢাকা ছাড়ার আগে মঙ্গলবার সকালে মিরপুর ইনডোর স্টেডিয়ামে একাই কিছুক্ষণ ব্যাটিং অনুশীলন করেন তিনি। ভিসা-সংক্রান্ত জটিলতা শুধু তামিমের একারই নয়, বোলার রুবেল হোসেনকেও দেরিতে যেতে হয় দুবাই। তবে রুবেল মঙ্গলবার সন্ধ্যার ফ্লাইটে ঢাকা ছাড়েন। এছাড়া দলের ম্যানেজার খালেদ মাহমুদ ও বিসিবির প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীনও একই সমস্যায় পড়েন।

ভিসা জটিলতায় পড়ে তামিম ইকবাল দারুণভাবে হতাশ হয়ে পড়েছিলেন। বাংলাদেশের ইতিহাসে এমন ভিসা জটিলতার অনেক কাহিনী আমরা দেখেছি। কিন্তু জাতীয় ক্রিকেট দলের খেলোয়াড়কে নিয়ে এই জটিলতা দুঃখজনক। যেখানে ক্রিকেট বাংলাদেশকে বিশ্বের দরবারে অনেক মানসম্মান এনে দিয়েছে। বিশ্বের অনেকেই বাংলাদেশকে চেনে এই ক্রিকেটের কারণে। অথচ তামিমের মতো গুরুত্বপূর্ণ ক্রিকেটারকে ভিসা জটিলতায় পড়তে হয়েছে। তাও আবার বিদেশের মাটিতে নয়, একেবারেই নিজের দেশে। তামিম প্রথম ম্যাচে নাও খেলতে পারেন- ভিসা জটিলতার কারণে এমন আশঙ্কাও তৈরি হয়েছিল। সবাই জানেন, যেকোনো আসরের প্রথম ম্যাচটি কতটা গুরুত্বপূর্ণ।

যাই হোক, হয়তো বাংলাদেশ দলের ভাগ্য ভালো শেষ পর্যন্ত টুর্নামেন্ট শুরুর আগেই তামিমের ভিসা-জটিলতা কেটে যায়। আর তিনি এখন বাংলাদেশ দলের হয়ে নিজের দুবাই-অভিজ্ঞতা কাজে লাগাতে চাচ্ছেন। আমরাও চাই তামিমের এই ইচ্ছা যেন পূরণ হয়। আর বাংলাদেশ যেন আসরে চমক দেখাতে পারে।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads