• বুধবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
কি বলছেন ডিপজল...

ছবি : সংগৃহীত

ঢালিউড

কি বলছেন ডিপজল...

  • বিনোদন প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত ২২ জুলাই ২০১৯

ঢাকাই সিনেমার জনপ্রিয় খল অভিনেতা মনোয়ার হোসেন ডিপজল। একসময় রুপালি পর্দায় তার উপস্থিতি খুব উপভোগ করতেন দর্শক। ভয়ঙ্কর সব চরিত্রে তিনি হাজির হতেন। তবে অনেক দিন ধরেই সিনেমাতে অনিয়মিত তিনি। খুব একটা দেখা মেলে না তার।

সেই ডিপজলকে এখন দেখা যাচ্ছে, ঢাকার রাস্তার মোড়ে মোড়ে ফুটপাত ও ফুট ওভারব্রিজের সামনে। তিনি ফুটপাত ব্যবহারকারী ও হোন্ডা চালকদের সাবধান করছেন। তিনি বলছেন, ‘খারাও ভাতিজা! এইডা ফুটপাত মোটরসাইকেল চালানোর জায়গা না।’ আবার ফুট ওভারব্রিজের সামনে দাঁড়িয়ে বলছেন, ‘ভাতিজা ওই যে ফুট ওভারব্রিজ। একটু কষ্ট কইরা দুই কদম হাঁটো।’

তবে সশরীরের ডিপজল নন, প্ল্যাকার্ডের ছবি হয়ে সবাইকে নিরাপদ চলাচলে সচেতন করছেন তিনি। সম্প্রতি ঢাকার বাড্ডা লিংক রোডসহ বিভিন্ন সড়কে দেখা মিলছে ডিপজলের এসব প্ল্যাকার্ডের। প্রাণ-আরএফএল গ্রুপের ‘দেশ আমার দোষ আমার’ শিরোনামে সামাজিক সচেতনতার ক্যাম্পেইনের জন্য এসব প্ল্যাকার্ড ব্যবহার করা হয়েছে।

এর আগে প্রাণ-আরএফএল গ্রুপের সামাজিক সচেতনতার ক্যাম্পেইনে সড়কে দুর্ঘটনা এড়াতে বার্তা প্রচারের বিজ্ঞাপনেও দেখা গিয়েছিল ডিপজলকে। বিজ্ঞাপনটিতে দেখানো হয়েছিল, রং সাইডে গাড়ি চালানো চালককে ‘ভাতিজা’ সম্বোধন করে ডিপজল বলছেন, ‘কী ভাতিজা, নবাব হইছো, রং সাইডে গাড়ি চালাও, রাস্তা চেনো না। ফিডার খাও?’ যা ইতোমধ্যে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে।

তবে অভিনব এই প্ল্যাকার্ডের আইডিয়াটিও খুব গ্রহণযোগ্য হয়েছে। সিনেমায় ডিপজলের জনপ্রিয়তার অন্যতম কারণ ছিল তার সংলাপের ধরন ও ভাষা। সেই ধরন ও ভাষাকেই নিরাপদ সড়কের চলমান ক্যাম্পেইনে তুলে ধরা হয়েছে। সেটি খুব সহজেই সবার দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে।

প্রসঙ্গত, চলচ্চিত্র পরিচালক মনতাজুর রহমান আকবরের হাত ধরে চলচ্চিত্রে আগমন ঘটে তার। খলনায়ক চরিত্রে অভিনয়ের মাধ্যমে বেশ সাড়া ফেলেছিলেন এই অভিনেতা। তবে ২০০৮ সালে নায়ক মান্নার মৃত্যুর পর তার ক্যারিয়ারের সফলতা কমতে থাকে। এর বাইরে ‘দাদীমা’, ‘চাচ্চু’-সহ বেশ কিছু চলচ্চিত্রে ডিপজলকে ইতিবাচক চরিত্রে দেখা গেছে।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads