• শুক্রবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
সেলেনা-টেইলরের খুনসুটি

ছবি : সংগৃহীত

হলিউড

সেলেনা-টেইলরের খুনসুটি

  • বিনোদন ডেস্ক
  • প্রকাশিত ০৪ আগস্ট ২০১৯

বন্ধুত্বের সম্পর্ক থাকে স্বার্থের বাইরে। যেখানে ভালোবাসার অনুভূতি থাকে সীমাহীন। পাশ্চাত্যের হলিউডেও অনেক অভিনেতা-অভিনেত্রী একে-অপরের ভালো বন্ধু। তেমনি দুজন মার্কিন গায়িকা সেলেনা গোমেজ ও পপসংগীতশিল্পী টেইলর সুইফট। টিনেজ এ দুই তারকার বয়স খুব কাছাকাছি। একসঙ্গেই সংগীতাঙ্গনে পা রেখেছেন। খ্যাতিও দুজনের প্রায় সমান। দুজন একে-অপরের সাফল্য দেখে হিংসা করবেন, না, সেখানে উল্টো দুজনের মধ্যে কঠিন এক বন্ধুত্বের সম্পর্ক।

তাদের এই সম্পর্কের ১৩ বছর হতে চলল। এতটি বছর কিন্তু কম কথা নয়। এই দীর্ঘ সময়ে তাদের সম্পর্ক ভাঙার জন্য কম ঘটনা চাউর হয়নি। কিন্তু কোনো কিছুুই তাদের বন্ধুত্বের ফাটল ধরাতে পারেনি।

কয়েকদিন আগে একটি স্টেজ শো শেষ করে ফিরলেন পপ তারকা টেইলর সুইফট। তার সব কনসার্টে অনেকগুলো ব্যাক ড্যান্সারসহ গান করতে দেখা যায় তাকে। এ কারণে তিনি কিছুটা খ্যাতিও কুড়িয়েছেন। এ নিয়ে কৌতুক করলেন সেলেনা। জানালেন, সুইফটের মতো একগাদা মেয়ে নিয়ে মঞ্চে পারফর্ম করবেন না তিনি।

কদিন আগে একসঙ্গে আড্ডা দিচ্ছিলেন সুইফট এবং সেলেনা। একসময় সুইফট নাকি সেলেনাকে বলেন, তোমারও এমনভাবে মঞ্চে ঢোকা উচিত। তখন সেলেনা বলেন, আমি এসব করতে পারব না। সুইফট এর কারণ জানতে চাইলে সেলেনা কৌতুকচ্ছলে জবাব দেন, আমি তো টেইলর সুইফট নই!

তবে তাদের বন্ধুত্ব সম্পর্কের ব্যাপারে একটি টেলিভিশনে সাক্ষাৎকারে সেলেনা বলেন, টেইলর আর আমার বন্ধুত্ব ১৩ বছরের মতো। আমার সব সময়ের সেরা বন্ধু টেইলর, যাকে আমি সব সময় পাশে পেয়েছি। সে ছাড়াও তার পুরো পরিবার আমাকে সমর্থন করে। সে আমার ভালো-খারাপ সময়ে তো পাশে থাকেই, এমনকি আমার ক্যারিয়ারে উন্নতি করার জন্যও আমাকে সাহায্য করে।

সেলেনা আরো বলেন, টেইলর এমন একজন মানুষ, যে আমাকে সব সময় উৎসাহ দেয়। ওর কারণেই আমি নিজেকে গর্বিত ভাবতে শিখেছি।

সেলেনা বলেন, আমি মনে করি, আমার সবকিছু ব্যতিক্রম হওয়া উচিত। আমি আমার সম্পূর্ণ ক্যারিয়ারের জন্য কাজ করি। কিন্তু অনেক তারকার সঙ্গে আমার ঘনিষ্ঠতার কারণে সবাই মনে করে, সবার মতো আমিও তাই করব। আমি বিভিন্ন সময় এমন ঘটনার সম্মুখীন হয়েছি। তাই নিজস্বতাতেই থাকতে চাই।

সেলেনার সবচেয়ে প্রিয় বন্ধু গায়িকা টেইলর সুইফটও কম যান না। সমালোচনাকারীদের টুইট করে একহাত দিয়েছেন তিনি। সাফ জানিয়ে দিলেন, সেলেনাকে যারা অপছন্দ করছেন, তারা যেন টেইলরকেও অপছন্দ করেন। বন্ধুত্বের সংজ্ঞা দিতে গিয়ে, টেইলর সুইফট বললেন, সেলেনাই আমার একমাত্র কাছের বন্ধু। শুধু বন্ধুই নয়, একজন বিশ্বস্ত মানুষও বটে। আমরা একসঙ্গে বোনের মতো সময় কাটিয়েছি। মুখ খুলে সবকিছু শেয়ার করেছি। সেলেনা বন্ধুত্বের মূল্যায়ন করতে জানে।

এখানেই শেষ নয়। সেলেনা টেইলরকে অক্ষরে অক্ষরে অনুকরণ করেন বলেও বিশ্ব মিডিয়ায় খবর আছে। তবে সেসব তুড়ি মেরে উড়িয়ে দিয়েই দুজনই বলেন, আমরা একে অপরের ভালো পরামর্শক। যখনই দেখি একজন খেই হারিয়ে ফেলছে, তখনই আরেকজন চিন্তিত হয়ে পড়ি। আপ্রাণ চেষ্টা করি কীভাবে প্রিয় বন্ধুটিকে রক্ষা করা যায়।

তবে এদের নিয়ে নেতিবাচক কথাও রয়েছে। অনেকেই মনে করেন জাস্টিন বিবারের সঙ্গে সেলেনার সম্পর্কের ইতি ঘটেছিল টেইলর সুইফটের জন্য। তবে সেসব নাকি উড়ো কথা। আদতে টেইলর এমন মানুষই নন বলে সাফ জানিয়ে দিয়েছেন পপ গানের রাজকন্যা সেলেনা গোমেজ।

চলতি বছরের সবচেয়ে বেশি আয় করা তারকা টেইলর সুইফট। এ নিয়ে ঘরোয়াভাবে পার্টি দেন তিনি। সেই পার্টিতেও উপস্থিত ছিলেন সেলেনা গোমেজ। নেচে গেয়ে প্রিয় বন্ধুটিকে আনন্দই দিয়েছেন তিনি।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads