• বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৩ আশ্বিন ১৪২৫
ads
আর হবে না স্পাইডারম্যান

ছবি : সংগৃহীত

হলিউড

আর হবে না স্পাইডারম্যান

  • বিনোদন ডেস্ক
  • প্রকাশিত ২২ আগস্ট ২০১৯

আর হবে না ‘ক্যাপ্টেন আমেরিকা : সিভিল ওয়ার’, ‘স্পাইডার-ম্যান : হোমকামিং’ ‘অ্যাভেঞ্জার্স : ইনফিনিটি ওয়ার’, ‘অ্যাভেঞ্জার্স : এন্ডগেম বা ‘স্পাইডারম্যান ফার ফ্রম হোম’-এর মতো চলচ্চিত্র। কারণ স্পাইডি ছবির প্রশ্নে মার্ভেল স্টুডিওস এবং সনি এন্টারটেইনমেন্ট নাকি আলাদা হয়ে যাচ্ছে। আর একসঙ্গে হাতে হাত রেখে পথ চলবে না তারা। মোটকথা, মার্ভেল সিনেমাটিক স্টুডিও আর সনি এন্টারটেইনমেন্টের পথ দুদিকে বেঁকে যাওয়ার সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে।

মার্ভেল স্টুডিও আর সনি এন্টারটেইনমেন্ট নাকি একে-অপরের প্রস্তাবে অসম্মতি জানিয়েছে। তারা কোনো চুক্তিতে সম্মত হতে পারেনি। সমস্যা হয়েছে বিশ্বের সর্বোচ্চ অর্থ উপার্জনকারী চলচ্চিত্রগুলোর লাভের গুড়ের ভাগাভাগি নিয়ে।

মার্কিন মিডিয়া ওয়েবসাইট সিএনইটি জানিয়েছে, স্পাইডারম্যানের ছবিতে কেভিন ফাইগি অর্থলগ্নি করুক, ডিজনির নাকি সেটি পছন্দ নয়। সিএনইটিকে নাকি সনি এন্টারটেইনমেন্টের এক সূত্র এ তথ্য জানিয়েছে। ওই মুখপাত্র বলেছেন, ‘ডিজনি চাইছে না স্পাইডারম্যান ফ্রাঞ্চাইজির কোনো ছবির অন্যতম প্রযোজক হিসেবে নাম থাকুক কেভিন ফাইগির। আমরা হতাশ হয়েছি। তবে ডিজনির এ সিদ্ধান্তকে আমরা সম্মান করি।’

মার্ভেল সিনেমাটিক ইউনিভার্সের অসংখ্য ছবির প্রধান প্রযোজক কেভিন ফাইগি। তাই সেই ছবির সাফল্যের একটা বড় অংশের ভাগিদার তিনি। কিন্তু স্পাইডারম্যানকে নিয়ে নির্মিত ছবির কৃতিত্বের ভাগ আর তার সঙ্গে শেয়ার করবে না বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছে ডিজনি। তাই স্পাইডারম্যান আর ডেডপুলকে একসঙ্গে পর্দা ভাগ করতে দেখার সৌভাগ্য আর হবে না ভক্তদের। একজন তো সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এই দুই চরিত্র যাদের শরীরে সর্বশেষ জীবন্ত হয়েছে, সেই টম হল্যান্ড আর রায়ান রেনল্ডের উদ্দেশে লিখেছেন, ‘আমাদের কি স্পাইডারম্যান ও ডেডপুল মুভি দেখা হবে না?’

রায়ান রেনল্ড সেই টুইট শেয়ার করে উত্তরে লিখেছেন, ‘পাবে। তবে শুধু আমার হূদয়ে।’

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads