• মঙ্গলবার, ২৬ মার্চ ২০১৯, ১২ চৈত্র ১৪২৪
ads
ইন্টারনেট ব্যবহারে পিছিয়ে নারীরা

ছবি : সংগৃহীত

তথ্যপ্রযুক্তি

ইন্টারনেট ব্যবহারে পিছিয়ে নারীরা

  • নিজস্ব প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত ১২ মার্চ ২০১৯

মোবাইল ফোন এবং ইন্টারনেট ব্যবহারে দেশের নারীরা বেশ পিছিয়ে আছেন। দেশের প্রাপ্তবয়স্ক নারীদের মধ্যে মোবাইল ফোন ব্যবহার করেন মাত্র ৫৮ শতাংশ। অন্যদিকে ইন্টারনেট ব্যবহার করেন, এমন নারীর সংখ্যা আরো কম, মাত্র ১৩ শতাংশ। মোবাইল অপারেটরদের আন্তর্জাতিক সংগঠন জিএসএমএ ‘মোবাইল জেন্ডার গ্যাপ রিপোর্ট’ শীর্ষক এক জরিপ প্রতিবেদনে এ তথ্য প্রকাশ করেছে। তিন মহাদেশের ১৮ দেশের ২০ হাজার মানুষের ওপর এ জরিপ পরিচালনা করা হয়।

জরিপে দেখা গেছে, বাংলাদেশের প্রাপ্তবয়স্ক পুরুষদের মধ্যে ৮৬ শতাংশ মোবাইল ফোন ব্যবহার করে এবং তাদের মধ্যে ইন্টারনেট ব্যবহারের হার ৩০ শতাংশ।

প্রতিবেদন অনুসারে, মোবাইল ফোন ব্যবহারের ক্ষেত্রে দেশের পুরুষদের চেয়ে নারীরা ৩৩ শতাংশ পিছিয়ে। তবে পুরুষের তুলনায় মোবাইল ফোন ব্যবহারে সবচেয়ে বেশি পিছিয়ে আছে পাকিস্তান। দেশটিতে মোবাইল ব্যবহারে নারীরা পুরুষের তুলনায় ৩৭ শতাংশ পিছিয়ে রয়েছে।

পাকিস্তানে মোবাইল ফোন ব্যবহারে নারীরা পুরুষদের তুলনায় ৩৭ শতাংশ পিছিয়ে থাকলেও ইন্টারনেট ব্যবহারের ক্ষেত্রে এই ব্যবধান ৭১ শতাংশ।

মোবাইল ফোন এবং ইন্টারনেট ব্যবহারের ক্ষেত্রে নারী পুরুষের মধ্যে এই যে বৈষম্য সেই বিবেচনায় তিন মহাদেশের ওই নির্বাচিত ১৮ দেশের মধ্যে বাংলাদেশ আছে ১৭তম স্থানে।

বাংলাদেশ ও পাকিস্তানের নারীদের মোবাইল ফোন বা ইন্টারনেট ব্যবহারের ক্ষেত্রে যখন এই করুণ চিত্র, তখন অনেক পরে শুরু করে মিয়ানমার অনেকটাই এগিয়ে।

দেশটিতে ৭৪ শতাংশ নারী মোবাইল ফোন ব্যবহার করছে এবং তারা পুরুষদের তুলনায় মাত্র ১৫ শতাংশ পিছিয়ে। অন্যদিকে ইন্টারনেট ব্যবহারে পুরুষরা ৫৭ শতাংশ আর নারীদের মধ্যে ৩৫ শতাংশ ইন্টারনেট ব্যবহার করে।

জরিপে অন্তর্ভুক্ত হওয়া এশিয়ার অন্য তিন দেশ ভারত, চীন ও ইন্দোনেশিয়ার অবস্থা ভালো। তবে আফ্রিকার দেশগুলোতে নারী-পুরুষ প্রায় সমান সমান হলেও ল্যাটিন আমেরিকায় আবার নারীরা সামান্য ব্যবধানে এগিয়ে। সেখানে মেক্সিকোকে মোবাইল ফোন এবং ইন্টারনেট ব্যবহারে নারী ও পুরুষের অবস্থান সমান সমান।

অন্যদিকে ব্রাজিল এবং আর্জেন্টিনায় দুই ক্ষেত্রেই নারীরা এগিয়ে। আর্জেন্টিনায় যেখানে ৮৮ শতাংশ নারী মোবাইল ফোন ব্যবহার করে সেখানে পুরুষদের মোবাইল ব্যবহারের হার ৮৭ শতাংশ। আর ইন্টারনেট ব্যবহারে পুরুষরা ৮০ শতাংশ এবং নারীরা ৮১ শতাংশ।

ব্রাজিলে ৮৬ শতাংশ নারী যেখানে মোবাইল ফোন ব্যবহার করছে, সেখানে পুরুষরা করছে ৮৪ শতাংশ। একইভাবে নারীদের মধ্যে ইন্টারনেট ব্যবহারের হার যেখানে ৭০ শতাংশ, সেখানে পুরুষদের মধ্যে এই হার ৬৯ শতাংশ।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads