• শনিবার, ১১ এপ্রিল ২০২০, ২৮ চৈত্র ১৪২৬
ads
ধর্মপাশায় দুই পিআইসি সভাপতিকে তিন দিনের কারাদণ্ড

সংগৃহীত ছবি

আইন-আদালত

ধর্মপাশায় দুই পিআইসি সভাপতিকে তিন দিনের কারাদণ্ড

  • ধর্মপাশা (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০

সুনামগঞ্জের ধর্মপাশায় দুই প্রকল্প বাস্তবায়ন কমিটির (পিআইসি) সভাপতিকে তিন দিনের কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

গতকাল বুধবার রাত ১০টার দিকে ফসলরক্ষা বাঁধের কাজে ধীরগতি ও গাফিলতির কারণে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আবু তালেব এ দণ্ডাদেশ দেন।

জানা যায়, উপজেলার চন্দ্রসোনার থাল হাওরে ১২৭ নং প্রকল্পে ০.৭৫২ কিলোমিটার বাঁধের কাজ বাস্তবায়নের জন্য ১৭ লাখ ৬৪ হাজার এবং একই হাওরে ১৩৮ নং প্রকল্পে ০.৪৫৮ কিলোমিটার বাঁধের কাজের জন্য ১৯ লাখ ৭৯ হাজার টাকা বরাদ্দ দেওয়া হয়। কিন্তু ১২৭ নং পিআইসির সভাপতি আব্দুল খালেক ও ১৩৮ নং পিআইসির সভাপতি আতাউর রহমানের বাঁধের কাজের অগ্রগতি কম থাকায় এবং গাফিলতি পরিলক্ষিত হওয়ায় তাদেরকে বিগত দিনে উপজেলা কাবিটা বাস্তবায়ন কমিটির পক্ষ থেকে শোকজ করা হয়। কিন্তু তারা তাদের কাজ ধীরগতিতেই যেনতেনভাবে চালিয়ে যাচ্ছিল। গত বুধবার বিকেলে পাউবোর উপ-সহকারী মাহমুদুল ইসলাম ওইসব প্রকল্পে গিয়ে কাজের কোনো অগ্রগতি দেখতে পাননি। পরে রাত দশটার দিকে আব্দুল খালেক ও আতাউর রহমানকে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে তিন দিনের কারাদ- দেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আবু তালেব।

সুনামগঞ্জ পাউবোর উপ-সহকারী প্রকৌশলী মাহমুদুল ইসলাম বলেন, ‘১২৭ ও ১৩৮ নং প্রকল্পে যেভাবে কাজ চলছে সেভাবে কাজ করলে আগামী এক মাসেও কাজ শেষ হবেনা। কাজ না করতে পারে তাহলে তাদের আইনের আওতায় আনা হবে এমনটি আগেই দুই প্রকল্পের সভাপতিকে নোটিশ করে জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল।’

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads