• বুধবার, ২৩ অক্টোবর ২০১৯, ৭ কার্তিক ১৪২৬
ads
রোহিঙ্গাদের কারণে বনাঞ্চল ধ্বংসের মুখে: প্রধানমন্ত্রী

ছবি : সংগৃহীত

জাতীয়

রোহিঙ্গাদের কারণে বনাঞ্চল ধ্বংসের মুখে: প্রধানমন্ত্রী

  • অনলাইন ডেস্ক
  • প্রকাশিত ২০ জুন ২০১৯

মানবিক কারণে রোহিঙ্গাদের বাংলাদেশে আশ্রয় দেয়া হলেও, কক্সবাজারসহ আশপাশের অঞ্চলের পরিবেশ ও বন ধ্বংস হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আজ বৃহস্পতিবার সকালে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে বিশ্ব পরিবেশ দিবস ও বৃক্ষমেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে দেয়া বক্তব্যে এ কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী।

এসময় সভ্যতার বিকাশের পাশাপাশি পরিবেশ রক্ষায়ও নজর দেয়ার আহ্বান জ‍ানান প্রধানমন্ত্রী। এছাড়া তিনি দেশের নাগরিকদের প্রত্যেককে কর্মস্থলে ও বাসস্থানে গাছ লাগানোর পাশাপাশি সন্তানদেরও এই পরিবেশবাদী কাজ শেখানোর পরামর্শ দিয়েছেন।

তিনি বলেন, বর্তমান সরকার দেশের মোট ভূমির ৩০ ভাগ বনায়ন করার লক্ষ্য নির্ধারণ করেছে। সুন্দর রক্ষায় নানা পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। সুন্দরবনে বাঘের সংখ্যা বৃদ্ধিতেও পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, দেশের উন্নয়নের দরকার কিন্তু এর সঙ্গে পরিবেশ রক্ষায় গুরুত্ব দেওয়াও জরুরি। প্রতিটি উন্নয়নমূলক কাজের সঙ্গে বৃক্ষরোপণ ও জলাধার নির্মাণেও গুরুত্ব দিতে হবে। আমরা এ ব্যাপারে বিশেষভাবে গুরুত্ব দিচ্ছি। যাতে আমাদের পরিবেশ সংরক্ষিত থাকে।

তিনি আরো বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবিলায় কারো মুখাপেক্ষী নয় বাংলাদেশ। সন্তানদের পরিবেশ সচেতন করে গড়ে তোলারও আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী।

এসময় তিনি বলেন, মানবতার কারণে স্থান দিতে হয়েছে মিয়ানমার থেকে আসা রোহিঙ্গাদের। ১১ লাখ রোহিঙ্গা আমাদের দেশে অবস্থান করছে। বন তো আগেই কিছু নষ্ট হয়েছিল আর এখন তো পুরাই শেষ। ঠিক এভাবে মানব সভ্যতার যখন বিকাশ হয় তখন বনায়নও ক্ষতিগ্রস্ত হয়। তাতে আমাদের উন্নয়ন তো বন্ধ হয়ে থাকবে না। বনও রক্ষা করতে হবে, উন্নয়নও করতে হবে। যার যার জায়গা থেকে গাছ লাগাতে হবে। শিশুদেরও শিক্ষা দিতে হবে।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads