• বৃহস্পতিবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৮, ২৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৫

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন ২০১৮

ডিজিটাল সিম নিবন্ধন শুরু

১ সেপ্টেম্বর থেকে এই পদ্ধতিতে সিম নিবন্ধন শুরু করার নির্দেশ দিয়েছে বিটিআরসি

ছবি : ইন্টারনেট

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

ডিজিটাল সিম নিবন্ধন শুরু

  • নিজস্ব প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮

নতুন মোবাইল সিম নিবন্ধনের জন্য আর কাগজের ফরম পূরণের প্রয়োজন হবে না। সিম বিক্রেতারা ডিজিটাল উপায়ে ক্রেতার তথ্য সংগ্রহ করে রাখবেন। গত ১ সেপ্টেম্বর থেকে এই পদ্ধতিতে সিম নিবন্ধন শুরু করার নির্দেশ দিয়েছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)। তবে গতকাল মঙ্গলবার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হয় সিম নিবন্ধনের নতুন এই প্রক্রিয়া।

এ বিষয়ে মোবাইল অপারেটরদের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, বিটিআরসির নির্দেশনা অনুসারে ১ সেপ্টেম্বর থেকে ইলেকট্রনিক পদ্ধতিতে সিম নিবন্ধন শুরু করেছে তারা। সিম কেনার জন্য গ্রাহকদের আর ছবি বা বাড়তি কাগজ লাগবে না। তাদের আশা, এই পদ্ধতিতে গ্রাহকের সিম নিবন্ধন প্রক্রিয়া আরো সহজ হবে। তবে এজন্য গ্রাহকদের নিজ দায়িত্বে জাতীয় পরিচয়পত্রের নম্বর, ফিঙ্গারপ্রিন্ট, জন্মতারিখ ও বর্তমান ঠিকানার তথ্য নিশ্চিত করতে হবে।

গ্রামীণফোনের ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার (পিআর) মো. হাসান বলেন, দীর্ঘদিন ধরেই মোবাইল অপারেটরদের পক্ষ থেকে ডিজিটাল পদ্ধতিতে সিম বিক্রির জন্য বিষয়টি বিটিআরসিকে জানানো হচ্ছিল। তারই প্রেক্ষিতে বিটিআরসি নতুন এই নির্দেশনা দিয়েছে।

তিনি জানান, গ্রামীণফোন সারা দেশে ইলেকট্রনিক ও কাগজবিহীন সিম রেজিস্ট্রেশন ব্যবস্থা চালু করেছে। এ উদ্যোগের ফলে সিম রেজিস্ট্রেশন প্রক্রিয়ায় কোনো ধরনের কাগজ ব্যবহারের প্রয়োজন না হওয়ায় সম্পূর্ণ প্রক্রিয়া আরো সহজে ও দ্রুত সম্পন্ন করা সম্ভব হবে। এছাড়া গ্রাহকদের ব্যক্তিগত তথ্যের নিরাপত্তাও এর মাধ্যমে বাড়বে। তবে সঠিক তথ্য দেওয়ার ক্ষেত্রে সঙ্গে জাতীয় পরিচয়পত্র রাখলে গ্রাহকের জন্য সুবিধা হবে বলেও উল্লেখ করেন মো. হাসান।

তিনি মনে করেন, মোবাইল ব্যবহারকারীদের নিবন্ধন প্রক্রিয়া ডিজিটাল করার লক্ষ্যেই সরকারের পক্ষ থেকে এই বিশেষ উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

এদিকে এ বিষয়ে বাংলালিংকের পক্ষ থেকে সরকারের ইলেকট্রনিক ও কাগজবিহীন সিম রেজিস্ট্রেশন ব্যবস্থা চালু করার উদ্যোগকে স্বাগত জানানো হয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি মনে করছে, এই উদ্যোগ মোবাইল গ্রাহকদের রেজিস্ট্রেশন ব্যবস্থা আরো সহজ করবে ও গ্রাহকদের ব্যক্তিগত তথ্যের সুরক্ষার ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে।

বিটিআরসি সূত্র জানিয়েছে, গত ২৮ আগস্ট তাদের পক্ষ থেকে বিভিন্ন টেলিকম অপারেটরের কাছে এই নির্দেশনা পাঠানো হয়। তাতে বলা হয়, সুষ্ঠুভাবে গ্রাহক পরিচয় নিবন্ধনের জন্য মোবাইল অপারেটরদের সার্চ করার সুবিধাযুক্ত ইলেকট্রনিক টেলিকম সাবস্ক্রাইবার অ্যাকুজিশন ফরমে তথ্য সংগ্রহ করতে হবে।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads