• মঙ্গলবার, ২৬ মার্চ ২০১৯, ১২ চৈত্র ১৪২৪
ads
‘বঙ্গবন্ধু তুমি স্বপ্ন বাঙালির’

সুজন হাজং

ছবি : সংগৃহীত

শোবিজ

‘বঙ্গবন্ধু তুমি স্বপ্ন বাঙালির’

  • বিনোদন প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত ১৪ মার্চ ২০১৯

হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি বাংলাদেশের জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে প্রকাশ হতে যাচ্ছে আন্তর্জাতিক অ্যালবাম ‘বঙ্গবন্ধু তুমি স্বপ্ন বাঙালির’। পুরো অ্যালবামের গানগুলো লিখেছেন কবি সুজন হাজং। সুর করেছেন যাদু রিছিল। সঙ্গীতায়োজনে রয়েছেন সুমন কল্যাণ মুশফিক লিটু।

এ অ্যালবামটি নিয়ে আবার নতুন করে আলোচনায় এসেছেন সুজন হাজং। একাধারে তিনি কবি, গীতিকার, অনুবাদক এবং তরুণ রাজনীতিবিদ। নতুন এ অ্যালবাম নিয়ে সুজন হাজং বলেন, ‘জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে তৈরি হচ্ছে ৮টি গানের একটি অ্যালবাম। এ অ্যালবামে কণ্ঠ দেবেন বাংলাদেশ, ভারত, নেপাল, শ্রীলঙ্কা, মালদ্বীপ ও ভুটানের ৮ কণ্ঠশিল্পী। এর মধ্যেই বাংলাদেশের ফাহমিদা নবী একটি গানে কণ্ঠ দিয়েছেন। আরেকটি গানে কণ্ঠ দেবেন সুবীর নন্দী। অন্যদিকে ভারত থেকে নচিকেতা চক্রবর্তী ও শুভমিতা, নেপাল থেকে আশরা কুনওয়ার, ভুটান থেকে সাংগে হ্লাদেন শেরিং, শ্রীলঙ্কা থেকে ডেভিড এবং মালদ্বীপ থেকে শালাবী এ গানের অ্যালবামে কণ্ঠ দেবেন।’

বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে অ্যালবাম তৈরি করার বিষয়ে সুজন হাজং বলেন, ‘বাঙালি জাতি-রাষ্ট্রের পিতা বঙ্গবন্ধু শুধু বাংলাদেশের নন; তিনি বিশ্বের নিপীড়িত, শোষিত, অবহেলিত, বঞ্চিত মানুষের নেতা। যারা বিভিন্ন দেশে নিজেদের স্বাধীনতা অর্জনের জন্য সংগ্রাম করছেন তাদের জন্য বঙ্গবন্ধু এক আদর্শের নাম। তিনি হলেন সার্বজনীন। বঙ্গবন্ধুর প্রতি গভীর শ্রদ্ধাবোধ থেকেই এ অ্যালবামের আয়োজন। এদেশের নতুন প্রজন্ম থেকে শুরু করে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ আরো ছড়িয়ে দিতেই তাকে নিয়ে গান করার চেষ্টা করছি।’

ইতোমধ্যে জাতীয় শোক দিবসে ফাহমিদা নবীর কণ্ঠে বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে সুজন হাজংয়ের একটি গান, শেখ হাসিনার জন্মদিনে কিশোর, পুলক, লিজা এবং পুতুলের কণ্ঠে একটি গান, বিজয় দিবসে ফাহমিদা নবী, সামিনা চৌধুরী, প্রিয়াঙ্কা গোপ এবং সুস্মিতা সাহার কণ্ঠে চারটি দেশের গান, শেখ রাসেলের জন্মদিনে ফাহমিদা নবী এবং সুস্মিতা সাহার কণ্ঠে দুটি গান এবং আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়ন ও সাফল্য নিয়ে লিজা এবং সাব্বিরের কণ্ঠে একটি গান তার ব্যক্তিগত ইউটিউব চ্যানেল এসএইচ টিভিতে প্রচার করা হয়েছে। এছাড়া ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে সুজন হাজংয়ের লেখায়  ফাহমিদা নবীর কণ্ঠে গাওয়া ‘পিতার রক্তে রঞ্জিত এই বাংলাকে ভালোবাসি’ গানটি রুশ, স্প্যানিশ, হিন্দি, ইংলিশ, নেপালি, ফ্রেঞ্চসহ ১৫টি ভাষায় প্রকাশ করা হবে।

মূলত একজন কবি হয়েও গানের প্রতি আলাদা একটা টান অনুভব করেন সুজন হাজং। তিনি বলেন, ‘মূলত আমি একজন কবি। কবিতা একটি নির্দিষ্ট শ্রেণির লোকদের জন্য সীমাবদ্ধ। কিন্তু একটি গানের কোনো সীমা-পরিসীমা নেই। গান হচ্ছে এমন একটি মনের ক্যানভাস, যার সুরে সবার মনে আবেদন পৌঁছায়।’

রোমান্টিক, আধুনিক গান লিখলেও সুজন হাজং দেশের গান লিখতেই স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন। দেশের প্রতি এই ভালোবাসা নিজের মনের উপলব্ধি থেকে আসে বলে জানান তিনি। বলেন, ‘আমরা ভাষার জন্য রক্ত দিয়েছি। পৃথিবীর অন্য কোনো দেশ ভাষার জন্য রক্ত দেয়নি। আমি মুক্তিযুদ্ধ দেখিনি। কিন্তু জেনেছি মুক্তিযুদ্ধে ৩০ লাখ বাঙালি শহীদ হয়েছেন। যখন ৭ মার্চের বঙ্গবন্ধুর ভাষণ শুনি আজো শিহরিত হই। কী তেজোদীপ্ত সেই ভাষণ, বিশেষ করে বঙ্গবন্ধুর ভাষণের সেই উক্তিগুলো- ‘আর যদি একটা গুলি চলে, আর যদি আমার লোককে হত্যা করা হয়। এ যেন বাঙালি জাতির পক্ষে বঙ্গবন্ধুর একটি নিরঙ্কুশ প্রতিবাদ। বঙ্গবন্ধু যেন জানিয়ে দিলেন বাঙালি কারো ভয়ে ভীত নয়। বাঙালি মাথা উঁচু করে দাঁড়ানোর সাহস রাখে।’

বঙ্গবন্ধু ও দেশের সঠিক ইতিহাস দেশের নতুন প্রজন্ম ও বিশ্বের কাছে পৌঁছে দেওয়ার প্রয়াসেই সুজন হাজং তার দীপ্ত পদক্ষেপে এগিয়ে যাচ্ছেন। মাতৃভূমিকে মায়ের মর্যাদায় আসীন রেখে দেশকে অনন্য উচ্চতায় দেখতে চান তিনি।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads