• শনিবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৯, ১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
ads
দুই-তৃতীয়াংশ অ্যান্ড্রয়েড সিকিউরিটি অ্যাপ ভুয়া

ছবি : সংগৃহীত

টেলিযোগাযোগ

দুই-তৃতীয়াংশ অ্যান্ড্রয়েড সিকিউরিটি অ্যাপ ভুয়া

  • ডেস্ক রিপোর্ট
  • প্রকাশিত ১৮ মার্চ ২০১৯

অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোনে ব্যবহার করা অন্তত দুই-তৃতীয়াংশ অ্যান্টিভাইরাস অ্যাপ ভুয়া। যারা কোনো ধরনের কাজই করে না বলে নতুন এক রিপোর্টে উঠে এসেছে। চলতি সপ্তাহে একটি সংগঠন যারা অ্যান্টিভাইরাস পণ্য নিয়ে কাজ করে তারা এমন একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। সংগঠনটি বলছে, যেসব অ্যান্ড্রয়েড সিকিউরিটি অ্যাপ রয়েছে তার মধ্যে দুই-তৃতীয়াংশ আসলে কাজের নয়। এগুলো শুধু বিজ্ঞাপনের জন্যই ব্যবহার করা হয়।

রিপোর্টটি প্রকাশ করেছে অস্ট্রিয়াভিত্তিক অ্যান্টিভাইরাস পরীক্ষার প্রতিষ্ঠান এভি করপোরেশন। প্রতিষ্ঠানটি চলতি বছরের শুরুতে বা জানুয়ারি মাসে ওই জরিপটি পরিচালনা করেছে গুগল প্লেস্টোরে পাওয়া যাওয়া ২৫০টি অ্যাপের ওপর নির্ভর করে।

রিপোর্টে পাওয়া যে ফল সেখানে কিছু অযৌক্তিক বিষয় ধরা পড়ে। দেখা যায়, যেসব অ্যাপকে খুব হাইলাইট করা হয়েছে সেগুলো ডিভাইসের বর্তমান অবস্থা তুলে ধরে। কিন্তু প্রকৃত অর্থে সেটা পারে না। সেটার পরিমাণ একেবারেই নগণ্য।

২৫০ অ্যাপ পরীক্ষা করে দেখা গেছে তার মধ্যে মাত্র ৮০টি ম্যালওয়্যার শনাক্ত করতে পারছে। মানে মাত্র ৩০ শতাংশ কাজ করছে। এগুলো প্রত্যেকটা আলাদা করে পরীক্ষা করে এমন ফল পাওয়া গেছে বলে গবেষকরা দাবি করেছেন।

এটি করতে গিয়ে প্রতিটি অ্যাপকে একটি ম্যালওয়্যার শনাক্তে অন্তত দুই হাজারবার কাজে লাগানো হয়েছে। কিন্তু সেখানে প্রত্যাশিত ফল পাওয়া যায়নি। এর মধ্যে ১৭০টি অ্যাপ কোনো ম্যালওয়্যারই শনাক্ত করতে পারেনি। সেগুলোর নিজেদের নিরাপত্তাও খুবই দুর্বল বলে উঠে এসেছে।

এভি করপোরেশনের এক মুখপাত্র বলেন, অ্যান্ড্রয়েডে সিকিউরিটি হিসেবে যেসব অ্যাপ আছে তার বেশিরভাগই দেখা যায় ম্যালওয়্যার শনাক্ত করতে পারে না। এমনকি সেগুলোর নিজেদেরও নিরাপত্তা ত্রুটি রয়েছে। এসব অ্যাপ ব্যবহারে সতর্ক থাকারও পরামর্শ দেন তিনি।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads