• বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২১ কার্তিক ১৪২৪
ads
অপ্রতিরোধ্যই জোকোভিচ

টেনিস তারকা নোভাক জোকোভিচ

ছবি : ইন্টারনেট

টেনিস

অপ্রতিরোধ্যই জোকোভিচ

  • স্পোর্টস ডেস্ক
  • প্রকাশিত ০৭ সেপ্টেম্বর ২০১৮

কোর্টের লড়াইয়ে দুজনের প্রথম দেখা কুইন্স ক্লাবে। সেও বেশিদিন আগের কথা নয়। গত জুনে হয়েছিল তাদের সাক্ষাৎ। সে ম্যাচে নোভাক জোকোভিচ খুব সহজেই ধরাশায়ী করেছিলেন জন মিলম্যানকে। সুখস্মৃতিটা মানসিকভাবে এগিয়ে রাখলেও ইউএস ওপেনের কোয়ার্টার ফাইনালের আগে খানিকটা ভয় হয়তো কাজ করছিল সার্বিয়ার সুপারস্টারের মনে। একে তো প্রতিপক্ষের সামনে হারের মধুর প্রতিশোধ নেওয়ার সুযোগ। তার ওপর ফেদেরারকে হারিয়ে আত্মবিশ্বাসটা বাড়িয়ে নিয়েছিলেন মিলম্যান। কিন্তু জোকোভিচের মতো শক্ত প্রতিদ্বন্দ্বীর সঙ্গে অত্যধিক তাপমাত্রা বাগড়া দিয়েছে তার স্বাভাবিক খেলায়। তাহলে মিলম্যান পেরে উঠবেন কী করে? বাস্তবে বড় বাধাটা ডিঙিয়েও যেতে পারেননি তিনি। অস্ট্রেলিয়ান এ টেনিস চমক হার মেনেছেন দুরন্ত জোকোভিচের কাছে। সুবাদে সেমিফাইনালে পৌঁছে গেছেন সাবেক নাম্বার ওয়ান জোকোভিচ। তবে আর্থার অ্যাশ স্টেডিয়ামের লড়াইটা হয়েছে আরো কঠিন।

ফ্ল্যাশিং মিডোর কোয়ার্টার ফাইনালে উঠে কখনো হতাশ হননি ১৩ গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ী জোকোভিচ। রেকর্ডটা এবারো ধরে রাখলেন। এ নিয়ে টানা ১১ বার শেষ আটে খেলে প্রতিবারই বিজয়ীর বেশে কোর্ট ছাড়লেন তিনি। গত আসরে জোকোভিচ খেলেননি কনুইয়ের চোটের জন্য। এছাড়া ২০০৭ সাল থেকে নিউইয়র্কের এই আসরে সেমিফাইনালের আগে হারের রেকর্ড নেই তার। অপ্রতিরোধ্য ৩১ বছরের জোকোভিচ ৬-৩, ৬-৪ ও ৬-৪ গেমে হারিয়েছেন র্যাঙ্কিংয়ের ৫৫তম মিলম্যানকে। স্কোরলাইন দেখে সহজ মনে হলেও প্রতিকূল আবহাওয়ার জন্য ম্যাচ শেষ হতে সময় লাগে ২ ঘণ্টা ৪৯ মিনিট। শুধু প্রথম সেট ছিল ১ ঘন্টা ৫৯ মিনিটের। এখন শেষ চারে ষষ্ঠ বাছাই মেগাস্টার জোকোভিচ লড়বেন জাপানের কেই নিশিকোরির বিপক্ষে।

প্রচণ্ড গরম শুধু মিলম্যানকে নয়। ভুগিয়েছে জোকোভিচকেও। জোকোভিচ নাকে স্প্রে নিয়েছেন। টি-শার্ট খুলে তোয়ালে নিয়ে বসেছিলেন কোর্টের পাশের সাইড বেঞ্চে। দর্শকরা এতে বেশ মজা পেয়েছেন। মিলম্যান তো পুরো ড্রেস পাল্টে ফেলতে কোর্টের বাইরে চলে গিয়েছিলেন। ম্যাচ শেষে নিজেদের কষ্টের বর্ণনা দিয়েছেন দুইবারের এই ইউএস ওপেন জয়ী জোকোভিচ, ‘অনেক পরীক্ষা দিয়েছি। তা প্রায় তিন ঘণ্টা। এখন মধ্যরাত। আর্দ্রতার বিরুদ্ধে নিজে লড়াই করেছি। মিলম্যানও লড়াই করেছে। আমরা সবাই ঘাম ঝরিয়েছি। কাপড় পাল্টিয়েছি। শুধু টিকে থাকার চেষ্টা করেছি। কেবল খুঁজে ফিরেছি ম্যাচ জয়ের পথ।’

শত বাধার মধ্যেও ম্যাচ জমিয়ে রাখায় প্রতিপক্ষ মিলম্যানকে প্রশংসায় ভাসিয়েছেন জোকোভিচ, ‘চমৎকার একটি ম্যাচ উপহার দেওয়ার জন্য কৃতিত্বটা জনের প্রাপ্য। সে সত্যিই একজন গ্রেট যোদ্ধা। টুর্নামেন্টে অসাধারণ খেলেছে।’

অন্যদিকে ডোমিনিক থিয়েমকে হারিয়ে সেমিফাইনালে উঠে গেছেন রাফায়েল নাদাল। ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে স্প্যানিশ মেগাস্টার লড়বেন হোয়ান মার্টিন দেল পোত্রোর বিপক্ষে। মেয়েদের এককে সেমিফাইনালে পৌঁছে গেছেন ম্যাডিসন কিস।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads