• শনিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৬ আশ্বিন ১৪২৬
ads
বাণিজ্য মেলায় ২০০ কোটি টাকার রফতানি আদেশ

সংগৃহীত ছবি

বাণিজ্য

বাণিজ্য মেলায় ২০০ কোটি টাকার রফতানি আদেশ

  • নিজস্ব প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

২৪তম ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলায় ২০০ কোটি টাকার রফতানি আদেশ পাওয়া গেছে। শনিবার রাজধানীর শেরেবাংলানগর বাণিজ্য মেলা প্রাঙ্গণে আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা-২০১৯ এর সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাণিজ্যমন্ত্রী টিপ মুনশি এ তথ্য জানান।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, এবারের মেলায় রফতানি আদেশ বেশি হয়েছে। সব মিলিয়ে বিক্রিও অন্যান্যবারের তুলনায় বেশি হয়েছে।

তিনি বলেন, “দেশকে এগিয়ে নিতে হলে রফতানি বাড়াতে হবে। বর্তমানে রফতানির প্রায় ৮৫ শতাংশেই পোশাক খাত থেকে। কিন্তু রফতানি বাড়াতে হলে শুধু পোশাকের উপর নির্ভরশীল হয়ে থাকলে হবে না, পণ্যের বৈচিত্র্য আনতে হবে।”

ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা আপাতত পূর্বাচলে যাচ্ছে না বলেও জানিয়ে টিপু মুনশি বলেন, “পূর্বাচলে স্থানীয় পণ্য প্রদর্শনের জন্য যে কাজ চলছে, সেখানে বাণিজ্য মেলা হবে না। এই জায়গাও প্রয়োজনের তুলনায় অপ্রতুল। আগামী ৫/১০ বছর পরে এখানে মেলা করা সম্ভব হবে না। সেটা এখন থেকেই ভাবতে হবে।”

এবারের বাণিজ্য মেলা ৯ জানুয়ারি শুরু হয়ে আজ শেষ হয়েছে। মেলায় দেশী-বিদেশী মিলে ৬০৫টি প্রতিষ্ঠান অংশ নেয়। এর মধ্যে ২২টি দেশের ৫২টি বিদেশী প্রতিষ্ঠান রয়েছে।
মেলায় অংমগ্রহণকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ১৩ ক্যাটাগরিতে ৪২টি সেরা প্রতিষ্ঠানকে ট্রফি প্রদান করা হয়। ৩৩টি সহযোগি প্রতিষ্ঠানকে ক্রেস্ট এবং সর্বোচ্চ ভ্যাট প্রদানের জন্য ৩টি প্রতিষ্ঠানকে পুরষ্কৃত করা হয়। বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুন্শি এবং সাবেক বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ যৌথ ভাবে এসব ট্রফি ও ক্রেস্ট বিতরণ করেন।

সমাপনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বাণিজ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি তোফায়েল আহমেদ, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত সচিব এস এম রেজওয়ান হোসেন এবং মেলার আয়োজক সংস্থার প্রধান হিসেবে রফতানি উন্নয়ন ব্যুরোর (ইপিবি) ভাইস-চেয়ারম্যান বিজয় ভট্টাচার্য্য।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads