• বুধবার, ২১ আগস্ট ২০১৯, ৬ ভাদ্র ১৪২৫
ads
বাণিজ্য মেলায় ৪২ প্রতিষ্ঠান পুরস্কৃত

বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি ও বাণিজ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি তোফায়েল আহমেদের কাছ থেকে পুরস্কার নিচ্ছেন এক নারী

ছবি : বাংলাদেশের খবর

বাণিজ্য

বাণিজ্য মেলায় ৪২ প্রতিষ্ঠান পুরস্কৃত

  • নিজস্ব প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত ১০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

২৪তম ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা গতকাল শনিবার শেষ হয়েছে। মেলায় অংশ নেওয়া ৬০৫টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে সেরা ৪২টি প্রতিষ্ঠান এবার পুরস্কার পেয়েছে।

আর মেলা আয়োজন, ব্যবস্থাপনা ও পরিচালনায় সার্বিক দিক-নির্দেশনা, অবদান এবং সহযোগিতার জন্য ৩৩ সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান ও ব্যক্তিকে ক্রেস্ট দেওয়া হয়েছে। গতকাল সমাপনী অনুষ্ঠানে এ পুরস্কার ও ক্রেস্ট দেয় মেলার আয়োজক সংস্থা রফতানি উন্নয়ন ব্যুরো (ইপিবি) ও বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। বাণিজ্য মন্ত্রী টিপু মুনশি, বাণিজ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি তোফায়েল আহমেদ, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত সচিব এস এম রেজওয়ান হোসেন এবং মেলার আয়োজক সংস্থার প্রধান হিসেবে ইপিবির ভাইস-চেয়ারম্যান বিজয় ভট্টাচার্য উপস্থিত থেকে ক্রেস্ট ও পুরস্কার বিতরণ করেন। বণিজ্য মেলায় সর্বোচ্চ ভ্যাট প্রদানকারী হিসেবে প্রথম হাতিল কমপ্লেক্স লিমিটেড, দ্বিতীয় ওয়ালটন হাইটেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড এবং তৃতীয় হয়েছে এসকোয়ার ইলেকট্রনিক্স লিমিটেড। বাণিজ্য মেলায় অনন্য সম্মাননা পুরস্কার পেয়েছে কারুপণ্য রংপুর লিমিটেড। সেরা প্রিমিয়ার প্যাভিলিয়ন ও সেরা সাধারণ প্যাভিলিয়নে প্রথম হয়েছে ওয়ালটন হাই-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড। সেরা সংরক্ষিত প্যাভিলিয়নে প্রথম হয়েছে জুট ডাইভার্সিফিকেশন প্রোমোশন সেন্টার (জেডিপিসি)। সেরা বিদেশি প্যাভিলিয়নে প্রথম হয়েছে যৌথভাবে হাডেক্স হালি ডেরি টেক্সটাইল ডাইস টিআইসি এএস তুর্কি এবং জাপান হালাল কোম্পানি লিমিটেড।

সেরা প্রিমিয়ার মিনি প্যাভিলিয়নে বিআরবি ক্যাবল ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড, সেরা সাধারণ মিনি প্যাভিলিয়নে বঙ্গ মিলার্স লিমিটেড, সেরা সংরক্ষিত মিনি প্যাভিলিয়নে বাংলাদেশ পোস্ট অফিস, সেরা প্রিমিয়ার স্টলে এম/এস হেলাল ও ব্রাদার্স এবং সেরা সাধারণ স্টলে প্রথম হয়েছে ফরচুন টেক লিমিটেড। বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে সেরাদের গোল্ড কালার্ড ট্রফি দেওয়া হয়। এ ছাড়া বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে দ্বিতীয়, তৃতীয় স্থান অধিকারীদের মধ্যে সিলভার ট্রফি ও ব্রাস ট্রফি দেওয়া হয়।

আর নারী উদ্যোক্তা বিভাগে সিলভার ট্রফি পেয়েছে গৃহিণী ফুড প্রডাক্টস ও মা এন্টারপ্রাইজ।

রফতানি উন্নয়ন ব্যুরো ও বাণিজ্য মন্ত্রণালয় ১৯৯৫ সাল থেকে ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলার আয়োজন করে আসছে। এবারের বাণিজ্য মেলায় প্যাভিলিয়ন, মিনি-প্যাভিলিয়ন, রেস্তোরাঁ ও স্টলের মোট সংখ্যা ছিল ৬০৫টি। এর মধ্যে প্যাভিলিয়ন ১১০টি, মিনি-প্যাভিলিয়ন ৮৩টি ও রেস্তোরাঁসহ অন্যান্য স্টল ছিল ৪১২টি। এবার বাংলাদেশ ছাড়াও ২৫টি দেশের ৫২টি প্রতিষ্ঠান মেলায় অংশ নেয়। দেশগুলো হলো থাইল্যান্ড, ইরান, তুরস্ক, শ্রীলঙ্কা, মালদ্বীপ, নেপাল, চীন, মালয়েশিয়া, ভিয়েতনাম, যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, ভারত, পাকিস্তান, হংকং, সিঙ্গাপুর, মরিশাস, দক্ষিণ কোরিয়া, দক্ষিণ আফ্রিকা, জার্মানি, সুইজারল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া ও জাপান।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads