• বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২১ কার্তিক ১৪২৪
ads

বিদেশ

শ্রীলঙ্কায় জরুরি অবস্থা তুলে নেওয়ার ঘোষণা

  • ডেস্ক রিপোর্ট
  • প্রকাশিত ১৮ মার্চ ২০১৮

শ্রীলঙ্কায় সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা পরিস্থিতি সামাল দিতে জারি করা জরুরি অবস্থা রোববার তুলে নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট মৈত্রিপালা সিরিসেনা।

গত ৪ মার্চ দেশটির কান্দিতে এক সিংহলি বৌদ্ধ তরুণের মৃত্যুকে কেন্দ্র করে স্থানীয় মুসলিম সম্প্রদায়ের সঙ্গে সিংহলি বৌদ্ধদের সহিংসতা শুরু হয়। এসময় উভয় পক্ষের বেশ কয়েকজন আহত ছাড়াও কয়েকটি মসজিদ ও মুসলিমদের ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান গুড়িয়ে দেয়া হয়।

টুইটারে দেশটির প্রেসিডেন্ট বলেন, ‘জনগণের নিরাপত্তার কথা বিবেচনায় আমি গতকাল মধ্যরাত থেকে জরুরি অবস্থা তুলে নেয়ার ঘোষণা দিচ্ছি।’ দাঙ্গা পরিস্থিতি সামাল দিতে স্থানীয় পুলিশ ব্যর্থ হলে গত ৬ মার্চ সারাদেশে একযোগে জরুরি অবস্থা জারি করা হয়েছিল। শুধু তাই নয়, দেশটির কিছু অঞ্চলে ইন্টারনেট সুবিধাও বন্ধ করে দেয়া হয়েছিল।

আলজাজিরা সূত্রে জানা যায়, জাতিসংঘের রাজনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের কর্মকর্তা জেফরি ফেল্টম্যান এক বিবৃতিতে জানান, এই দাঙ্গার পেছনে যারা তাদের বিচারের আওতায় আনা উচিত শ্রীলঙ্কা সরকারের। মুসলিমদের উপর এবং তাদের সম্পদ ধ্বংস করার জন্য নিন্দা প্রকাশ করেন তিনি।

শ্রীলঙ্কা এখনও তিন দশক ধরে চলা গৃহযুদ্ধের ক্ষত ভুলতে পারেনি। দেশটির অনেক স্থানে এখনও পুরোপুরি শান্তি প্রতিষ্ঠিত হয়নি। এমন অবস্থায় শ্রীলঙ্কা সরকার কার্যকরী পদক্ষেপ না নিলে কান্দি পরিস্থিতি দেশটিতে নতুন করে জাতিগত সহিংসতা উস্কে দিতে পারে বলে মনে করছেন অনেক বিশ্লেষক।

 

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads