• বুধবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৮, ৩০ কার্তিক ১৪২৫
ads
হিন্দু না মুসলিম এনিয়ে ধুম্রজাল

ছবি : সংগৃহীত

বাংলাদেশ

হিন্দু না মুসলিম এনিয়ে ধুম্রজাল

  • মহিউদ্দিন আল আজাদ, চাঁদপুর প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ২৭ জুলাই ২০১৮

চাঁদপুরের হাজীগঞ্জে এক প্রবাসির মৃতদেহ নিয়ে হিন্দু-মুসলমানের মাঝে উত্তেজনা সৃষ্টি হয়েছে। ঘটনাটি শেষ পর্যন্ত থানা পুলিশ পর্যন্ত গড়িয়েছে। উপজেলার কালচোঁ দক্ষিণ ইউনিয়নের সৈয়দপুর কর্মকার বাড়িতে প্রবাসে নিহত এক যুবকের মৃতদেহ দাহ নিয়ে হিন্দু মুসলিমদের মাঝে এমন ধুম্রজালের সৃষ্টি হয়।

বৃহস্পতিবার চিন্তা হারাধন কর্মকারের ছেলে সৌদি আরবে নিহত তপন কর্মকারের শেষকৃত্যের প্রস্তুতি নেয়া হয়। এ সময় এলাকার মুসলমানদের একাংশ দাবি করেন তপন বিদেশে গিয়ে মুসলমান হয়েছেন। তিনি নাকি ওমরা হজও করেছেন। এ নিয়ে হিন্দু ও মুসলমানদের মধ্যে হট্টগোল সৃষ্টি হয়। এক পর্যায়ে গ্রামবাসী হাজীগঞ্জ থানার শরণাপন্ন হন।

পরে হাজীগঞ্জ থানা পুলিশ তপন কর্মকারের মুসলমান হওয়ার কোনো প্রমাণাদি না পাওয়ায় হিন্দু ধর্মের বিধান অনুযায়ী লাশ দাহ করার সিদ্ধান্ত দেয়।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, তপন কর্মকার আট মাস আগে সৌদি আরবে একটি ভবনের কাজ করতে গিয়ে নিচে পড়ে নিহত হন।

এ বিষয়ে হাজীগঞ্জ থানার ওসি জাবেদুল ইসলাম বলেন, যে মৃতদেহটি মুসলমান হওয়ার কথা উঠেছে এমন কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি। তার মা-বাবা পারিবারিকভাবে কখনও এমন সংবাদ পানি তাদের সন্তান মুসলমান হয়েছে। তার পাসপোর্ট বা লাশের কোনো কাগজপত্রে মুসলমান হওয়ার বা কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads