• রবিবার, ৩১ মে ২০২০, ১৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫
ads
রায়পুরায় বড় ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে ছোট ভাই নিহত

আহত যুবক মো. কাউছার মিয়া (২৬)।

প্রতিনিধির পাঠানো ছবি

অপরাধ

রায়পুরায় বড় ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে ছোট ভাই নিহত

  • রায়পুরা (নরসিংদী) প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ০৮ এপ্রিল ২০২০

নরসিংদীর রায়পুরায় বড় ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে ছোট ভাই নিহত হয়েছে। নিহত যুবকের নাম মো. কাউছার মিয়া (২৬)। 

গতকাল মঙ্গলবার (৭ এপ্রিল) রাত ১০টায় ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

বড় ভাই গণি মিয়ার  ছুরিকাঘাতে ছোট ভাই কাউছার নিহত হয়েছেন বলে তার স্বজনদের অভিযোগ।  এ ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত বড় ভাই গণি মিয়া ও তার স্ত্রী কামরুনাহার পলাতক রয়েছেন।

গত রবিবার (০৫ এপ্রিল) বিকাল ৫টায় উপজেলার পলাশতলী ইউনিয়নের পলাশতলী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত কাউছার শ্রীনগর ইউনিয়নের ফকিরেরচর গ্রামের মো. শামসুউদ্দিনের ছেলে ও তিনি  রায়পুরা সরকারি কলেজের বিবিএ ৪র্থ বর্ষের ছাত্র ছিল।

স্থানীয় ও তার স্বজনরা জানায়, পলাশতলী বাজারের পাশে প্রবাসি ছেলেদের টাকায় কেনা জমিতে পিতা শামসুদ্দিন বাড়ি নির্মাণ করেন। সেখানে তিন ছেলেকে নিয়ে বসবাস করে আসছে তিনি। অন্য ছেলেরা থাকেন ফকিরেরচর গ্রামে। সাম্প্রতিক ওমান ফেরত ছেলে গণি পিতার নামে কেনা জমি তার নামে লিখে নিতে পিতা শামসুদ্দিনকে চাপ প্রয়োগ করেন। কাউছার আট ভাই ও দুই বোনের মাঝে নিয়মানুসারে জমি বন্টনের পক্ষে মত দেয়। এনিয়ে দুই ভাইয়ের মধ্যে তর্ক বাধে। এরই জের ধরে গত রবিবার গণি ক্ষুব্দ হয়ে কাউছারের বুকে ও শরীরের একাধিক ছুরিকাঘাত করেন। ফলে ঘটনাস্থলেই মাটিতে লুটিয়ে পড়েন কাউছার। ওই সময় তার দেহে প্রচুর রক্তক্ষণ হয়। পরে প্রতিবেশিরা তাকে উদ্ধার করে নরসিংদী জেলা হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য কাউছারকে ঢাকা মেডিক্যাল হাসপাতালে পাঠায়। দুই দিন লাইফ সাপোর্টে থাকার পর মঙ্গলবার রাতে কাউছার মারা যায়। আট ভাই ও দুই বোনের মধ্যে কাউছার ছিলেন পঞ্চম। তিনি রায়পুরা সরকারি কলেজের বিবিএ ৪র্থ বর্ষের ছাত্র ছিলেন। এই ঘটনায় তার পরিবারের পক্ষ থেকে মামলার প্রস্ততি চলছে বলে জানান স্বজনরা।

এ ব্যাপারে কাউছারের বোন ববিতা বলেন, ঘটনার সময় আমি শ্বশুর বাড়ি ছিলাম। ফোনে সংবাদ পাই দুই ভাইয়ের মধ্যে ঝগড়া হয়েছিল। বড় ভাই গণির ছুরিকাঘাতে কাউছার মারা গেছে।

এ ব্যাপারে রায়পুরা থানার সেকেন্ড অফিসার বলেন, বড় ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে ছোট ভাই নিহত হওয়ার সংবাদটি শুনেছি। তার স্বজনরা থানায় এসেছিল। নিহতের  লাশ দাফনের পর তার স্বজনরা  থানায় মামলা দায়ের জন্য আসবেন।  

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads