• রবিবার, ১২ জুলাই ২০২০, ২৮ আষাঢ় ১৪২৭
ads
মুন্সীগঞ্জে উপজেলা চেয়ারম্যানের বাসভবনে দুর্ধর্ষ ডাকাতি

প্রতিনিধির পাঠানো ছবি

অপরাধ

১২০ ভরি স্বর্ণালংকার ও নগদ ৫ লাখ টাকা লুট

মুন্সীগঞ্জে উপজেলা চেয়ারম্যানের বাসভবনে দুর্ধর্ষ ডাকাতি

  • মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ৩১ মে ২০২০

শহরের কোর্টগাঁও এলাকায় মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আনিস-উজ-জামান আনিসের বাসভবনে দুর্ধর্ষ ডাকাতি সংঘটিত হয়েছে। এ সময় ডাকাত দল ১২০ ভরি স্বর্ণালংকার ও নগদ ৫ লাখ টাকা লুটে নিয়েছে।

শনিবার দিবাগত রাত ৩টা থেকে সোয়া ৪টা পর্যন্ত হাত বেঁধে অস্ত্রের মুখে এ ডাকাতি সংঘটিত হয়।

উপজেলা চেয়ারম্যানের ছেলে জেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি আক্তার-উজ-জামান রাজিব জানান, বাস ভবনের পশ্চিম পার্শের দ্বিতীয় তলার থাই গ্লাসের জানালা দিয়ে ৮-১০ জনের অস্ত্রধারী একটি ডাকাত দল ভিতরে প্রবেশ করে। প্রথমে বাস ভবনের তার কক্ষে প্রবেশ করে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে। এরপর তাকে নিয়ে গিয়ে ছোট ভাই জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের সভাপতি জালালউদ্দিন রূমি রাজনের কক্ষে নিয়ে যায়। ওই কক্ষে নিয়ে রাজনকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে হাত বেঁধে ফেলে। দুই ভাই রাজন ও রাজিবের হাত বাঁধার পর বাবা উপজেলা চেয়ারম্যানের কক্ষে গিয়ে তাকে ডেকে তুলে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে।

এ সময় সকলকে মারধর করে। পরে বাস ভবনের দ্বিতীয় তলায় কক্ষ গুলোর কাঠের ও স্টিলের আলমারি ভেঙ্গে রক্ষিত নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার লুটে নেয়।

পরবর্তীতে বাড়ির নারী ও শিশু সদস্যরা ডাকাত ডাকাত বলে চিৎকার করলে আশপাশের লোকজন ছুটে আসে। ততক্ষনে ডাকাত দলটি পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়। এ ব্যাপারে সদর থানার ওসি মো. আনিচুর রহমান জানান, উপজেলা চেয়ারম্যানের দাবী অনুযায়ী বাস ভবন থেকে ১২০ ভরি ওজনের স্বর্ণালংকার ও নগদ ৫ লাখ টাকা ডাকাত দল লুটে নিয়েছে। এ ঘটনা খতিয়ে দেখছে পুলিশ, ডিবি, সিআইডি ও পিবিআই। তবে এখনও পর্যন্ত মামলা রুজু হয়নি।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads