• বৃহস্পতিবার, ১৩ আগস্ট ২০২০, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭
ads
সকালের নাস্তায় রাখুন স্বাস্থ্যকর খাবার

সংগৃহীত ছবি

খাদ্য

সকালের নাস্তায় রাখুন স্বাস্থ্যকর খাবার

  • অনলাইন ডেস্ক
  • প্রকাশিত ১৮ এপ্রিল ২০২০

চলমান করোনা সঙ্কটে লকডাউন আর কোয়ারান্টাইনে সবাই ঘরে পর্যাপ্ত খাবার মজুত করছেন। চাল, আটা, ডালের মতো পাশাপাশি ব্রেকফাস্টের জোগাড় রাখাটাও খুবই জরুরি। বিশেষ করে যারা বাড়ি থেকে কাজ বা 'ওয়ার্ক ফ্রম হোম' করছেন। তাদের সুস্থতার জন্য এবং ক্ষুধা মেটানোর জন্য মাখন-পাউরুটি, পোহা, উপমা, মুসেলি বৌল, ওট, পরিজ খুব ভালো খাবার।

সকালের ভরপেট জলখাবার সারাদিন শরীরকে শক্তি জোগায়। তবে কাজের চাপে অনেক সময়েই সকালে ভালো করে ব্রেকফাস্ট করা হয়ে ওঠে না অনেকের। তাই অল্প সময়ে পুষ্টিকর কিছু খেতে বেছে নিন এই খাবারগুলো-

তালিকায় থাক ৯ খাবার:

চা:
সকালের আলস্য কাটাতে এক কাপ ধোঁয়া ওঠা চা সবার লাগে। তাই বাড়িতে মজুত করে রাখুন টি ব্যাগ। যা সকালের খুব কাটিয়ে নিমেষে চাঙা করবে আপনাকে।

কফি:
কেউ কেউ চায়ের বদলে কফির পক্ষপাতী। তাঁরা নিজেকে চাঙা রাখতে ঘুরেফিরে কফি পান করেন। তারাও কপির প্যাকেট কিনে রাখুন এই বেলা।

জ্যাম:
পাউরুটি, বিস্কুট, রুটিতে জ্যাম মাখিয়ে খেলে অনেকক্ষণ পেট ভর্তি থাকে। অনেকেই তাই বাড়িতে নানা স্বাদের ফলের রস দিয়ে তৈরি জ্যাম কিনে রাখতে এবং খেতে পছন্দ করেন। তাঁরা কিনে ফেলুন জ্যাম এই দুর্দিনে। সকালে ভরপেট জলখাবারের জন্য।

কর্নফ্লেক্স:
যারা পেট ভরানোর পাশাপাশি পুষ্টির দিকেও খেয়াল রাখেন তাদের জন্য আদর্শ কর্নফ্লেক্স। দুধে ভিজিয়ে প্লেন বা চকোলেট স্বাদের কর্নফ্লেক্স খেতে পারেন। স্বাদু করতে তাতে মধু, ফলের টুকরোও যোগ করতে পারেন। এতে দুধ, কর্নফ্লেক্সের মধ্যে থাকা ভিটামিন, মিনারেলসের পাশাপাশি ফলের পুষ্টিও পাবে শরীর।

পিনাট বাটার:
ভীষণ স্বাদু এই পিনাট বাটার জ্যামের পরিবর্ত হিসেবে দারুণ। পাউরুটি, বিস্কুট, রুটি বা স্যান্ডউইচে এটি মাখিয়ে খেতে পারেন। এর মধ্যে রয়েছে বাদামের পুষ্টিগুণ। যা আপনার পেশিকে শক্তিশালী করে। এই গুলি ছাড়া স্মুদিতেও পিনাট বাটার মিশিয়ে খেতে পারেন। একই উপকার মিলবে।

ওটস:
ওটস প্রোটিন বেশি এবং ফাইবারে সমৃদ্ধ হওয়ায় স্বাস্থ্যকর জলখাবার হিসেবে পরিচিত। মশালা ওট থেকে শুরু করে টক দই দিয়ে প্লেন ওটসও আপনি খেতে পারেন। এই জলখাবার বানানোও যায় অতি সহজে।

মুসেলি:
মুসেলি হ'ল ওটমিল ডিশ যা ওট, বাদাম, শুকনো বীজ এবং তাজা বা শুকনো ফলের মতো উপকরণে বানানো।সকালে উঠে একবাটি এই খাবার খেলেও পেট ভর্তি থাকে।

ডালিয়া:
একটি বাটি ডালিয়াও প্রাতঃরাশের জন্য ভাল বিকল্প। ডায়েটার ফাইবার এবং প্রোটিনে ভরপুর এই উপাদান স্বাস্থ্যকর এবং ওজন কমাতে সহায়তা করে। ডালিয়ার সঙ্গে দুধ, পছন্দের ফল মিশিয়ে খেতে পারেন।

সুজি:
মিষ্টি সুজি কিংবা নোনতা উপমা খুব ভালো টিফিন। সবজি দিয়ে বানানো উপমা সকালে জলখাবারের খুব ভালো অপশন। এতে একফোঁটাও কোলেস্টেরল নেই। রয়েছে প্রচুর প্রোটিন।

সূত্র : এনডিটিভি।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads