• বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০, ৬ কার্তিক ১৪২৭
শেখ রাসেল জাতীয় শিশু কিশোর পরিষদের উদ্যোগে প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন পালন

সংগৃহীত ছবি

মহানগর

শেখ রাসেল জাতীয় শিশু কিশোর পরিষদের উদ্যোগে প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন পালন

  • নিজস্ব প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০

প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনার ৭৪তম জন্মদিন পালন করেছে শেখ রাসেল জাতীয় শিশু-কিশোর পরিষদ নামের একটি সংগঠন।

এ উপলক্ষে আজ সোমবার জাতীয় জাদুঘরের কেন্দ্রীয় মিলনায়তনে আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।

অনুষ্ঠানে কেক কাটার মাধ্যমে দেশরত্ন শেখ হাসিনাকে সম্মানিত করা হয়। এসময় উপস্থিত স্কুলের ছাত্র-ছাত্রীদের মাঝে হ্যান্ডস্যানিটাইজার-মাস্ক, শিক্ষা সামগ্রী ও খেলাধুলার সামগ্রী বিতরণ করা হয়। 

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কথা সাহিত্যিক সেলিনা হোসেন। বিশেষ অতিথি হিবেবে উপস্থিত ছিলেন সম্পাদক, দৈনিক বাংলাদেশের খবর ও বাংলাদেশ নিউজ সহ-সভাপতি, জাতীয় প্রেসক্লাব এবং সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক, বাসস- বীর মুক্তিযোদ্ধা আজিজুল ইসলাম ভূইয়া, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটি, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ- সুজিত রায় নন্দী, বিশিষ্ট চিত্রনায়ক ফেরদৌস এবং বিশিষ্ট শিশু সংগঠক জনাব শফিকুর রহমান দুলু। এতে সভাপতিত্ব করেন শেখ রাসেল জাতীয় শিশু-কিশোর পরিষদের সহ-সভাপতি জি এম জোয়ারদার।

অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন শেখ রাসেল জাতীয় শিশু-কিশোর পরিষদের সাধারণ সম্পাদক মো. মজিবুর রহমান হাওলাদার। এছাড়াও কেন্দ্রীয় কমিটির নেতারা, ঢাকা মহানগরের নেতৃবৃন্দ ও বিভিন্ন জেলা কমিটির নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। 

আলোচনা সভায় বক্তারা বলেন, বারবার মৃত্যুর দুয়ার থেকে ফিরে আসা মৃত্যুঞ্জয়ী এই মুক্তমানবী ও আজকের এই ‘মাদার অব হিউম্যানিটি’ জননেত্রী শেখ হাসিনা ১৯৪৭ সালের এই দিনে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও শেখ ফজিলাতুন্নেছামুজিবের ঘর আলোকিত করেন। তার ডাক নাম “হাসু” এবং বঙ্গবন্ধু আদর করে এই নামেই ডাকতেন। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্টের কাল রাতে বাবা-মা সহ সবাই ঘাতকের হাতে নৃসংশভাবে নিহত হন। কিন্তু ওই সময়  ছোট বোন শেখ রেহানাসহ শেখ হাসিনা ইউরোপে অবস্থান করার কারণে বেঁচে যান মৃতের মিছিল থেকে।

তারা আরও বলেন, বিভিন্ন চড়াই উৎরাই পার করে ২০০৮ সালে নির্বাচিত হয়ে প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব নেয়ার পর থেকেই সরকার ও দলে আমুল পরিবর্তন এনে দেশের ধারাবাহিক সামগ্রিক উন্নয়নের  রূপকল্প-২০২১ নামকরণ করেন।

 

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads