• মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২১ কার্তিক ১৪২৪, ১৪ মহররম ১৪৪০
BK

চিকিৎসক নিয়োগে বিশেষ বিসিএস আবেদন শুরু কাল

ফাইল ফটো

বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিসের স্বাস্থ্য ক্যাডারে চিকিৎসকদের জন্য রোববার ৩৯তম বিশেষ বিসিএসের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে সরকারি কর্মকমিশন (পিএসসি)। অনলাইনে আগামীকাল মঙ্গলবার সকাল ১০টা থেকে আবেদন ও ফি গ্রহণ শুরু হয়ে চলবে ৩০ এপ্রিল সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত। এবার সহকারী সার্জনে ৪ হাজার ৫৪২টি ও সহকারী ডেন্টাল সার্জন পদে ২৫০টি শূন্যপদে নিয়োগ দেওয়া হবে।

পিএসসির ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, প্রার্থীদের বয়স ২১ থেকে সর্বোচ্চ ৩২ বছরের মধ্যে হতে হবে। মোবাইল ফোন সেবাদানকারী সরকারি সংস্থা টেলিটকের মাধ্যমে আবেদন ফি পরিশোধ করতে হবে। সাধারণ প্রার্থীদের ক্ষেত্রে ফি ৭০০ টাকা এবং ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী, প্রতিবন্ধী ও তৃতীয় লিঙ্গের প্রার্থীদের ১০০ টাকা করে দিতে হবে। লিখিত পরীক্ষা জুলাইয়ে শুধু ঢাকা কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হবে বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

বিশেষ বিসিএসের মাধ্যমে ২০০ নম্বরের এমসিকিউ ধরনের লিখিত ও ১০০ নম্বরের মৌখিক পরীক্ষা নিয়ে এককালীন চিকিৎসক নিয়োগ দিতে বিধিমালা সংশোধন করেছে সরকার। সংশোধিত বিধিমালা অনুযায়ী, মেডিকেল সায়েন্স বা ডেন্টাল সায়েন্স বিষয়ে ১০০ নম্বর; বাংলা, ইংরেজি, বাংলাদেশ বিষয়াবলি ও আন্তর্জাতিক বিষয়াবলিতে ২০ নম্বর করে এবং মানসিক দক্ষতা ও গাণিতিক যুক্তিতে ১০ নম্বর করে মোট ২০০ নম্বরের দুই ঘণ্টার এমসিকিউ ধরনের লিখিত পরীক্ষা হবে। প্রতিটি এমসিকিউ প্রশ্নের সঠিক উত্তরের জন্য এক নম্বর দেওয়া হবে। আর প্রতিটি ভুল উত্তরের জন্য কাটা হবে শূন্য দশমিক ৫০ নম্বর। লিখিত পরীক্ষায় পাস নম্বর পিএসসি নির্ধারণ করবে। মৌখিক পরীক্ষার পাস নম্বর ধরা হয়েছে ৫০। লিখিত পরীক্ষা শুধু ঢাকায় অনুষ্ঠিত হবে।

সাধারণত বিসিএসে ২০০ নম্বরের জন্য চার ঘণ্টার এবং ১০০ নম্বরের জন্য তিন ঘণ্টার লিখিত পরীক্ষা হয়। সাধারণ ক্যাডারে নিয়োগে প্রিলিমিনারি পরীক্ষায় উত্তীর্ণের পর ২০০ নম্বরের মৌখিকসহ মোট ১১০০ নম্বরের লিখিত পরীক্ষায় বসতে হয় প্রার্থীদের। সাধারণ ক্যাডারের বাইরে অন্য কোনো ক্যাডারে পরীক্ষায় অংশ নিতে চাইলে সংশ্লিষ্ট পদ বা সার্ভিসের জন্য প্রাসঙ্গিক বিষয়ে পরীক্ষা দিতে হয়। সাধারণত লিখিত পরীক্ষার গড় ন্যূনতম পাস নম্বর ৫০ শতাংশ। মৌখিক পরীক্ষার পাস নম্বরও ৫০ শতাংশ।