• বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১১ আশ্বিন ১৪২৫, ১৫ মহররম ১৪৪০
BK

বাড়ি ও গাড়ির পর এবার থ্রিডি ওভারব্রিজ

ছবি: সংগৃহিত

আধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার দিন দিন বাড়ছেই। কিছু দিন আগেও যেসব কাজ নিজ হাতে করত মানুষ সেসব এখন করছে রোবট বা যন্ত্র। সময় যত যাচ্ছে ঘর বা কারখানার টুকিটাকি জিনিস তৈরির গণ্ডি পেরিয়ে এখন গাড়ি, বাড়িসহ ক্ষুদ্র পণ্য তৈরি হয়েছে থ্রিডি প্রিন্টিং প্রযুক্তিতে। এবার প্রযুক্তিতে পথচারী পারাপারের ফুটওভারব্রিজ তৈরি করেছে ডাচ রোবটিকস প্রতিষ্ঠান এমএক্স৩ডি।

বিজনেস রেকর্ডারের এক খবরে বলা হয়েছে, ৪১ ফুট দীর্ঘ ব্রিজটি তৈরিতে সময় লেগেছে ছয় মাস। এতে ব্যবহার করা হয়েছে ৯৯২০ পাউন্ড স্টেইনলেস স্টিল ও ১ হাজার ১০০ কিলোমিটার ধাতব তার।

এমএক্স৩ডির মুখপাত্র ওলেগ ভিশনিয়াকাও জানান, ২০১৯ সালে নেদারল্যান্ডসের আমস্টারডামে ব্রিজটি বসানো হবে। তার আগে অবশ্য বিভিন্নভাবে এর ভর-সক্ষমতা পরীক্ষা করা হবে।

প্রতিষ্ঠানটির সহপ্রতিষ্ঠাতা গিজিস ব্যান দার ভেলদেন জানান, ইতোমধ্যে ৩০ মানুষ ওই ব্রিজের ওপর হেঁটে সেটির ভর-সক্ষমতার পরীক্ষা করেছেন। তবে আরো পরীক্ষা করা হবে।

ব্রিজটির নকশা করেছে জরিস লার্যারেন ল্যাব। জরিস লার্যারেন বলেছেন, এই ঘটনাটি ছিল কিছুটা কল্পকাহিনীর মতোই। কারণ আমরা চারপাশে যেমনভাবে ব্রিজ তৈরি হতে দেখি এটি সেভাবে তৈরি হয়নি।

খবর অনুসারে থ্রিডি প্রিন্টারটি বানাতে একটি কারখানা রোবট, একটি ঝালাই মেশিন এবং বিশেষ সফটওয়্যার ব্যবহার করেছে এমএক্স৩ডি।

সম্প্রতি গাড়ি তৈরিতেও দেখা গেছে থ্রিডি প্রিন্টিংয়ের ব্যবহার। থ্রিডি প্রিন্টিং প্রযুক্তিতে বড় পরিসরে গাড়ির উৎপাদন শুরু হতে যাচ্ছে শিগগিরই। এরই মধ্যে এই প্রযুক্তিতে গাড়ি বানিয়েছে স্টার্ট-আপ প্রতিষ্ঠান এক্সইভি অ্যান্ড পলিমেকার। এই প্রযুক্তিতে এলএসইভি নামের বৈদ্যুতিক গাড়িটি বানাতে সময় লেগেছে তিন দিন। গাড়ির চেসিস, আসন এবং কাচ ছাড়া সবকিছুই বানানো হয়েছে থ্রিডি প্রিন্টিং প্রযুক্তিতে।

এর আগে দুবাইয়ে মার্কেট বানানো হয়েছে থ্রিডি প্রিন্টিংয়ের মাধ্যমে। মধ্য আমেরিকার দেশ এল সালভাদোরে এ বছরের শেষ দিকে পরীক্ষামূলকভাবে ১০০ বাড়ি তৈরির পরিকল্পনা রয়েছে।