• মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২১ কার্তিক ১৪২৪, ১৪ মহররম ১৪৪০
BK
ডিসির ফোন নম্বর ক্লোন করে

অর্ধলক্ষ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে প্রতারক চক্র

প্রতিকি ছবি

কুমিল্লার জেলা প্রশাসকের (ডিসি) মোবাইল নম্বর ক্লোন করে এক সহকারী ভূমি কর্মকর্তার (তহশিলদার) কাছ থেকে অর্ধলক্ষ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে প্রতারক চক্র। সোমবার ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জেলা প্রশাসক মো. আবুল ফজল মীর জানান, এ বিষয়ে কোতোয়ালি মডেল থানায় জিডি করা হয়েছে।

জানা যায়, কুমিল্লার জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে প্রেষণে থাকা সহকারী ভূমি কর্মকর্তা মো. আবুল কালামকে ৮ এপ্রিল বিকালে মুরাদনগর উপজেলা ভূমি কর্মকর্তা পরিচয় দিয়ে সরকারি নম্বর থেকে ফোনে বলা হয়, কালাম সাহেব আপনার সঙ্গে ডিসি মহোদয় কথা বলবেন। কিছুক্ষণ পরেই কুমিল্লার জেলা প্রশাসকের সরকারি নম্বর থেকে ভূমি কর্মকর্তা মো. আবুল কালামের ব্যক্তিগত মোবাইল ফোনে কল আসে। সালাম বিনিময়ের পর ওদিক থেকে বলা হয়, আপনার ফাইলপত্রের বিষয়ে এসি ল্যান্ড যেভাবে নির্দেশনা দেন ওইভাবে কাজ করেন। বলেই ফোন কেটে দেন কথিত জেলা প্রশাসক। এরপর মুরাদনগর উপজেলা ভূমি কর্মকর্তা পরিচয়দানকারী সরকারি ফোন নম্বর থেকে আবুল কালামকে বলা হয়, আপনার কাজের জন্য ৫০ হাজার টাকা লাগবে। দ্রুত বিকাশ করে টাকা পাঠান। এ কথা শুনে ভূমি কর্মকর্তা মো. আবুল কালাম নম্বর যাচাই করে সরকারি নম্বর মিল পেয়ে পাঁচটি পৃথক নম্বর যথাক্রমে পার্সোনাল নম্বর ০১৯৯০০১০৯৯৯, ০১৭২২৫০৭৩৭৫, ০১৭৯১১১৮২২৬, ০১৭৭৪২২৩৬৯১, একটি এজেন্ট নম্বর ০১৮১২১৪৩০৮৭- এর প্রতিটিতে ১০ হাজার ২০০ টাকা করে মোট ৫১ হাজার টাকা বিকাশ করেন।

পরে সোমবার সকালে প্রতারক চক্র ০১৭৪৯৯৯৬১৬৯ এবং ০১৭১৭০১৯৮১৪ নম্বর থেকে মো. আবুল কালামকে আরো টাকার জন্য বার বার ফোন করতে থাকে। বিষয়টিতে সন্দেহ হলে আবুল কালাম জেলা প্রশাসকে জানান।

এ বিষয়ে কুমিল্লার জেলা প্রশাসক মো. আবুল ফজল মীর জানান, আবুল কালামসহ আরো বেশ কয়েকজন অফিস স্টাফের কাছে প্রতারক চক্র সরকারি নম্বর ক্লোন করে ফোনে টাকা চায় বলে অভিযোগ পেয়েছি। এ বিষয়ে একটি জিডি করেছি। এ ছাড়াও বিষয়টি অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) তানভীর সালেহীন ইমনকে জানানো হয়েছে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) তানভীর সালেহীন ইমন জানান, আমরা অভিযোগ পেয়েছি। এ ঘটনার সঙ্গে কারা জড়িত তাদের শনাক্ত করে আটক করা হবে।