• বুধবার, ২১ নভেম্বর ২০১৮, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৪, ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪০
BK

নতুন রূপে মহানায়কের সাজঘর

নতুন রূপে মহানায়কের সাজঘর
ছবি : ইন্টারনেট

মহানায়ক উত্তম কুমার। না ফেরার দেশে চলে গেছেন ১৯৮০ সালের ২৪ জুলাই তারিখে। হাজারো সিনেমাপ্রেমীদের কাঁদিয়ে মাত্র ৫৪ বছর বয়সে চলে গেছেন তিনি। উত্তম কুমার চলে গেলেও রেখে গেছেন অসংখ্য স্মৃতি। সেগুলোর মধ্যে উল্লেখযোগ্য তার সাজঘর (মেকআপ রুম)।

কলকাতার টালিগঞ্জের চান্দি ঘোষ রোড়ে অবস্থিত এনটি-ওয়ান স্টুডিও। ১২ বিঘা জায়গা নিয়ে স্টুডিওটি তৈরি হয়েছিল প্রায় ৯০ বছর আগে। এ স্টুডিওতে ঢুকতেই কিছু দূর এগিয়ে হাতের বাম পাশে একটা রুমে মেকআপ নিতেন উত্তম কুমার। মহানায়কের সাজঘরটি সেই ১৯৮০ সাল থেকে আজো তারই রয়ে গেছে।

সম্প্রতি নতুন রূপে সাজানো হয়েছে সাজঘরটিকে। ১২০ স্কয়ার ফুটের ঘরটির ছাদের নীচে বসানো হয়েছে ফলস সিলিং। দুধ-সাদা রং করা হয়েছে চারপাশে দেওয়ালে। মেঝেতে বসেছে নতুন সাদা টাইলস। কাঠের জানালা গুলো রাঙ্গানো হয়েছে সাদা রংয়ে। পাশাপাশি রং করা হয়েছে সাজঘরে নায়কের ব্যবহৃত খাট, টেবিল, চেয়ার, আয়না, আলনা, ইজি চেয়ারকেও। কাঠে খাটের সামনে রাখা হয়েছে তার খড়ম।

মঙ্গলবার সাজঘরটির নতুন রূপের উদ্বোধন করা হয়েছে। উত্তম কুমারের ৩৮-তম প্রয়াণ দিবসে তার ছবিতে ফুল-মালা দিয়ে শ্রদ্ধা জানাতে তার সাজঘরে হাজির হয়েছিলেন অনেকেই। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, প্রতি প্রয়াণ দিবসে উত্তম কুমারের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে তার সাজঘরের হাজির হন অনেকে। সকলেই নিয়ম করে ফুল-মালা দিয়ে স্বরণ করে উত্তম কুমারকে।