• বুধবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৮, ৩০ কার্তিক ১৪২৫, ২৪ সফর ১৪৩৯
BK

নোংরা জুতো তাই!

নোংরা জুতো তাই!
ছবি : ইন্টারনেট

প্রেম ও কবিতার শহরে কনসার্টে গিয়েছিলেন। বয়স ৭৭ হলেও তার গলা ও বডি ল্যাঙ্গুয়েজে আজো সেই দাপট। হ্যাঁ, ষাটের দশকের বিখ্যাত মার্কিন লোকশিল্পী জোন বায়েজের কথাই বলছি। মনে পড়ছে, কিছুদিন আগেই কলকাতার এক বিখ্যাত রেস্তোরাঁয় নোংরা পোশাকের অভিযোগ তুলে এক ব্যক্তিকে ঢুকতে দেওয়া হয়নি। গোটা শহর গর্জে উঠেছিল সেদিন। কিন্তু দুর্ভাগ্যের বিষয়, ‘দর্শনধারী’ শুধু ভারতেই নয়, প্যারিসেও রয়েছে। ছাড় দেওয়া হয়নি জোন বায়েজের মতো শিল্পীকেও।

ঘটনার কথা নিজেই টুইটারে শেয়ার করেছেন গায়িকা। তার জুতোর ছবি পোস্ট করে লিখেছেন, ‘গেস করুন? অষ্টম অলিম্পিয়া কনসার্ট শেষে এক বন্ধুর সঙ্গে ছিলাম। বাস্তিলের এক অভিজাত নাইট ক্লাবে গিয়েছিলাম আমরা। কিন্তু আমার জুতো সেখানে বাধা হয়ে দাঁড়াল।’

যদিও ‘জুতো কেলেঙ্কারি’র কারণ স্পষ্ট করেননি শিল্পী। এমন ঘটনার সাক্ষী হয়ে স্বাভাবিকভাবেই হতাশ তিনি। ফ্রান্সে প্রায় প্রতিনিয়তই কনসার্ট করেন জোন। সে দেশে তার জনপ্রিয়তাও তুঙ্গে। দীর্ঘদিন ধরেই তার উইকেন্ড শোগুলো হাউজফুল থাকে। এরপরও কীভাবে তার সঙ্গে এমন ঘটনা? সে প্রশ্নই উঠছে।

অবশ্য ঘটনা জানাজানি হতেই ওই ক্লাবের তরফে ক্ষমা প্রার্থনা করা হয়েছে। কর্তৃপক্ষের দাবি, ‘দারোয়ান বুঝতেই পারেননি রাত সাড়ে ১২টায় জোন বায়েজের মতো একজন শিল্পী ক্লাবে আসবেন। আসলে উনি যে আসবেন তার কোনো বিজ্ঞপ্তিও ছিল না।’

শিল্পীর জুতো নিয়ে ক্লাবের আপত্তির কথা অবশ্য এড়িয়ে গিয়েছেন তারা।