• বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২১ কার্তিক ১৪২৪, ৯ মহররম ১৪৪০
BK

কাঁঠালবাড়ী শিমুলিয়ায় ফেরি চলাচল ফের ব্যাহত

কাঁঠালবাড়ী শিমুলিয়ায় ফেরি চলাচল ফের ব্যাহত
সংগৃহীত ছবি

নাব্য সঙ্কটের কারণে ফের শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী নৌরুটে বড় ধরনের ফেরি চলাচল বন্ধ রয়েছে। এ কারণে ঘাটের দুই পাশে দীর্ঘ হয়েছে অপেক্ষমাণ যানবাহনের সারি। মাঝ নদীতে খননকাজ চললেও নাব্য সঙ্কট না কাটায় এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে।

গতকাল শনিবার এই রুটে কে-টাইপ ও মাঝারি ধরনের ১২টি ফেরি চলাচল করে। বন্ধ রয়েছে রো রো ও ডাম্প ফেরি চলাচল। ঘাটের শিমুলিয়া অংশে এ দিন ৪ শতাধিক গাড়িকে পারাপারের অপেক্ষায় থাকতে দেখা যায়। সকাল থেকেই ছোট গাড়ি পারাপার করছে ফেরিগুলো। ঘাটে পারের অপেক্ষায় থাকা বেশিরভাগ গাড়িই দূরপাল্লার যাত্রীবাহী বাস।

বিআইডব্লিউটিসি শিমুলিয়া ঘাটের ব্যবস্থাপক (বাণিজ্য) গিয়াস উদ্দিন পাটোয়ারি জানান, ‘রাতে (শুক্রবার) দুটি ফেরি নাব্য সঙ্কটের কারণে ডুবোচরে আটকে যায়। সারা রাত ফেরি চলাচল না করায় ঘাটে অপেক্ষমাণ গাড়ির সংখ্যা বাড়তে থাকে। সকাল ১০টা থেকে ধারণক্ষমতার চেয়ে অর্ধেক গাড়ি নিয়ে ১২টি ফেরি চলাচল করছে।’ গভীর ড্রেজিং করে নাব্য সঙ্কট নিরসন করা না হলে সব ফেরি চলানো যাবে না বলে জানান তিনি।

বিআইডব্লিউটিসির কাঁঠালবাড়ী ঘাটের ব্যবস্থাপক আবদুস সালাম মিয়া জানান, ঈদের দুই সপ্তাহ আগে নাব্য সঙ্কট চরম আকার ধারণ করায় প্রথম দিকে সব ফেরি চলাচল বন্ধ ছিল। নদীতে খননকাজ চালিয়ে ঈদের তিন-চার দিন আগে ফেরি চলাচল স্বাভাবিক হয়। ঈদের পর লৌহজং টার্নিং পয়েন্টের চ্যানেল মুখে ফের নাব্য সঙ্কট দেখা দেওয়ায় এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে।

এদিকে ঈদ শেষে মানুষ ঢাকায় ফিরতে শুরু করেছে। শনিবার রাত থেকে রাজধানীতে ফেরার ঢল নামবে। এই সময় ফেরি চলাচলে অচলাবস্থা সৃষ্টি হওয়ায় দুর্ভোগ বাড়বে যাত্রীদের।