• বুধবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৮, ৩০ কার্তিক ১৪২৫, ২৪ সফর ১৪৩৯
BK

ব্যাংক খাতে দুর্নীতি জেঁকে বসেছে : সালেহ উদ্দিন

ব্যাংক খাতে দুর্নীতি জেঁকে বসেছে : সালেহ উদ্দিন
ছবি -বাংলাদেশের খবর

ব্যাংক খাতে দুর্নীতি ও অব্যবস্থাপনা জেঁকে বসেছে বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. সালেহ উদ্দিন আহমেদ। তিনি বলেছেন, সব মিলিয়ে ব্যাংক খাতে এখন সুশাসনের অভাব, দুর্নীতি ও অব্যবস্থাপনা জেঁকে বসেছে। অর্থনৈতিক বৈষম্য দিন দিন বাড়ছে। উন্নয়নটা সমতাভিত্তিক হচ্ছে না। সমতাভিত্তিক উন্নয়ন না হলে তা টেকসইও হয় না। গতকাল শনিবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে ‘গণতন্ত্র ও সুশাসন’ শীর্ষক এক গোলটেবিল অনুষ্ঠানে তিনি এই মন্তব্য করেন। গোলটেবিলের আয়োজন করে দ্য ঢাকা ফোরাম। সংগঠনটির সভাপতি ড. সালেহ উদ্দিন আহমেদ।

ড. সালেহ উদ্দিন আরো বলেন, ব্যাংক খাত দীর্ঘদিন ধরেই নানা সমস্যায় জর্জরিত হয়ে আছে। এখন এই খাতের সবচেয়ে বড় সমস্যা হলো সুশাসনের অভাব। অভ্যন্তরীণভাবে ব্যাংক খাতে সুশাসন বলতে কিছু নেই। ব্যাংক খাতের জন্য যেসব নীতিমালা, আইনকানুন, আন্তর্জাতিক রীতি আছে সেগুলো সঠিকভাবে পালন করা হচ্ছে না।

সাবেক এই গভর্নর জানান, সামগ্রিকভাবে অর্থনীতির সূচকগুলোর অর্জন ভালো। মোট দেশজ উৎপাদন-জিডিপি প্রবৃদ্ধির হার ৬ শতাংশের বৃত্ত ভেঙে নতুন মাত্রা পেয়েছে। এটি ইতিবাচক। সার্বিক উন্নতিও সন্তোষজনক।

দেশের রাজনৈতিক চর্চা জনগণের স্বার্থে হচ্ছে না বলে মন্তব্য করেন সালেহ উদ্দিন আহমেদ। তিনি মনে করেন, দেশের রাজনৈতিক সহনশীলতা ও সুস্থ রাজনৈতিক চর্চার অভাব প্রকট। সবচেয়ে মারাত্মক হলো আইনের শাসন নেই। আইন আছে কিন্তু এর বাস্তবায়নের দীর্ঘসূত্রতা আছে। সুশাসন ছাড়া কোনো দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়ন সম্ভব নয়।

অনুষ্ঠানে বক্তারা আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে আয়োজনের ওপর গুরুত্বারোপণ করেন। গোলটেবিলে বক্তব্য দেন সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা এম হাফিজউদ্দিন খান ও ব্যারিস্টার মইনুল হোসেন, সাবেক মন্ত্রিপরিষদ সচিব আলী ইমাম মজুমদার, রাষ্ট্রবিজ্ঞানী দিলারা চৌধুরী, অর্থনীতিবিদ আবু আহমেদ ও প্রকৌশলী এনামুল হক।