• সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২১ কার্তিক ১৪২৪
ads

ফুটবল

মেসির গোলে বার্সেলোনার জয়

  • বাসস
  • প্রকাশিত ০৫ মার্চ ২০১৮

নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী এ্যাথলেটিকো মাদ্রিদকে ১-০ গোলে পরাজিত করে লা লিগায় গুরুত্বপূর্ণ জয় তুলে নিয়েছে বার্সেলোনা। আর্জেন্টাইন সুপারস্টার লিওনেল মেসির দুর্দান্ত এক ফ্রি-কিকে বার্সার জয় নিশ্চিত হয়। এই জয়ে লীগ টেবিলে এ্যাথলেটিকোর থেকে আট পয়েন্ট এগিয়ে গেল শীর্ষস্থানে থাকা বার্সেলোনা। একইসাথে ২৫তম লীগ শিরোপার পথে আরো এগিয়ে গেল কাতালান জায়ান্টরা।

ম্যাচের ২৬ মিনিটে বার্সার সর্বকালের সর্বোচ্চ গোলদাতা মেসি বাম পায়ের ট্রেডমার্ক ফ্রি-কিকে এ্যাথলেটিকোর দেয়ালের উপর দিয়ে বল জালে জড়ান। এটি ছিল মেসির ক্যারিয়ারের ৬০০তম গোল।

ক্যাম্প ন্যুতে ২০১৪ সালে শিরোপা জেতা এ্যাথলেটিকো এরপর আর কোন শিরোপা পায়নি। কালকের ম্যাচে জয়ী হতে পারলে বার্সেলোনার থেকে পয়েন্টের ব্যবধান দুইয়ে নামিয়ে আনতে পারতো। কিন্তু কোচ দিয়েগো সিমিয়োনের অতিরিক্ত সতর্কতামূলক কৌশলে হিতে বিপরীত হয়েছে। থমাস পার্টের দুর পাল্লার শট এ্যাথলেটিকোর হয়ে একমাত্র সুযোগ সৃষ্টি করেছিল। যদিও সিমিয়োনে আক্রমনভাগে দুটি পরিবর্তন করে দল সাজিয়েছিলেন। তারপরেও বার্সা গোলরক্ষক মার্ক-আন্দ্রে টার স্টেগানের জন্য কোন ধরনের হুমকি তারা হতে পারেনি। সফরকারীদের হয়ে শেষ ভাগে কেভিন গামেইরোর গোল অফসাইডের কারনে বাতিল হয়ে যায়। এর আগে অবশ্য লুইস সুয়ারেজকে থামিয়ে দেন সহকারী রেফারী। স্টপেজ টাইমে সুয়ারেজের আরেকটি সুযোগ ব্যর্থ হলে বড় ব্যবধানে জয় পাওয়া হয়নি।

২৭ ম্যাচে ৬৯ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষে রয়েছে বার্সেলোনা। ৬১ পয়েন্ট নিয়ে এ্যাথলেটিকো দ্বিতীয় ও ৫৪ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্থানে রয়েছে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন রিয়াল মাদ্রিদ।

গত দুই ম্যাচে এ্যাথলেটিকো সেভিয়াকে ৫-২ ও লেগানেসকে ৪-০ গোলে বিধ্বস্ত করেছিল। সব ধরনের প্রতিযোগিতায় টানা আটটি জয় নিয়ে তারা ক্যাম্প ন্যু সফরে গিয়েছিল। তার উপর বার্সার থেকে একদিন বেশী বিশ্রাম পেয়েছিল। অন্যদিকে রেলিগেশন হুমকিতে থাকা লাস পালমাসের সাথে বৃহস্পতিবার বার্সা ১-১ গোলে ড্র করে পয়েন্ট হারিয়েছে। দুই দলের কোচ সর্বোচ্চ শক্তি নিয়ে কাল মাঠে নেমেছিল। বার্সা কোচ আর্নেস্টো ভালভার্দে রেকর্ড চুক্তিতে দলে নেয়া ফিলিপ কুতিনহোকে মূল একাদশে নামিয়েছিলেন। কিন্তু প্রথমার্ধে ইনজুরির কারনে অধিনায়ক আন্দ্রেস ইনিয়েস্তাকে হারাতে হয় বার্সাকে। তার স্থানে খেলতে নামেন বিতর্কিত আন্দ্রে গোমেজ। প্রত্যাশার চাপে থাকা এ্যাথলেটিকো শুরু থেকেই বার্সেলোনার পুরো দলকে না সামলে শুধুমাত্র মেসিকে আটকানোর প্রচেষ্টায় ব্যস্ত ছিল। যদিও আর্জেন্টাইন এই তারকার ফ্রি-কিক আটকানোর কৌশল নিয়ে তারা কাজ করেনি। আর তাতেই সফল বার্সা- অতীতের মতই সেট-পিস এই ধরনের গোল থেকে যেভাবে বার্সেলোনাকে জয় উপহার দিয়েছেন মেসি কালও তার ব্যতিক্রম ছিলনা।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads