• মঙ্গলবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৩ আশ্বিন ১৪২৫
ads
ফুটবল থেকে বাংলাদেশের বিদায় 

এশিয়ান ফুটবলে বাংলাদেশ টিম

সংগৃহীত ছবি

ফুটবল

এশিয়ান গেমস

ফুটবল থেকে বাংলাদেশের বিদায় 

  • প্রকাশিত ২৫ আগস্ট ২০১৮

স্পোর্টস রিপোর্টার, ইন্দোনেশিয়া থেকে

এশিয়ান গেমসের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো দ্বিতীয় রাউন্ডে জায়গা করে নিয়ে নিজেদের ফুটবল ইতিহাস নতুন করে রচনা করেছিল বাংলাদেশ। সেরা ষোলোতে জায়গা করে নিয়েই আত্মতুষ্টিটা ছিল বেশ। তবে লক্ষ্য ছিল দ্বিতীয় রাউন্ডে শক্তিশালী প্রতিপক্ষ উত্তর কোরিয়ার কাছে হারলেও সম্মানজনকভাবে হারের। সেটাই হয়েছে গতকাল। র্যাঙ্কিংয়ের ১০৮ নম্বর পজিশনে থাকা দলটির কাছে ১-৩ গোলে হেরেছে লাল-সবুজরা। যে হারের মধ্যে সন্তুষ্টি খোঁজার চেষ্টা করছেন ইংলিশ কোচ জেমি ডে।

এশিয়াডের চলতি আসরে বাংলাদেশ দল যে দ্বিতীয় রাউন্ডে উঠবে সেটাই ছিল অপ্রত্যাশিত। ইন্দোনেশিয়ায় আসার আগে কোচ জেমি ডে দ্বিতীয় রাউন্ডে ওঠার কোনো প্রতিশ্রুতি না দিলেও ভালো ফুটবল উপহার দেওয়ার কথা জানিয়েছিলেন। সেটা তিনি রেখেছেন। মাঠের লড়াইয়ে জামাল-জনি-সুফিলরা নিজেদের শতভাগ দিয়ে দেশের মুখ উজ্জ্বল করেছেন। প্রথম রাউন্ডে উজবেকিস্তানের কাছে হারলেও থাইল্যান্ডের সঙ্গে ড্র ও শক্তিশালী কাতারকে ১-০ গোলে ধরাশায়ী করে চমকে দেয় সবাইকে। বিশেষ করে ২০২২ সালে বিশ্বকাপ আয়োজক দেশটির বিরুদ্ধে পাওয়া জয়টি ছিল অবিশ্বাস্য।  

গতকাল সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় শুরু হওয়া ম্যাচে ১৩ মিনিটেই এগিয়ে যায় উত্তর কোরিয়া। পেনাল্টি থেকে আসে গোলটি। বক্সের ভেতর বল ক্লিয়ার করতে গিয়ে ডিফেন্ডার সুশান্ত ত্রিপুরার হাতে লাগলে রেফারি পেনাল্টির নির্দেশ দেন। স্পট কিক থেকে কোরিয়াকে এগিয়ে নেন কিম ইউ সুং (১-০)। তিন মিনিট বাদেই লাল-সবুজরা বড় বাঁচা বেঁচে যায়। আগুয়ান গোলরক্ষক আশরাফুলকে ফাঁকি দিয়ে কিম ইয়ং দারুণ এক শট নিয়েছিলেন। কিন্তু বল সাইডবারে লেগে ফিরে আসে। ম্যাচের প্রথমার্ধে আরো একটি গোল হজম করতে হয় জামাল ভূঁইয়ার দলকে। ৩৮ মিনিটে বক্সের ভেতর থেকে দারুণ এ গোলটি করেন হ্যান ইয়ং তাই। কিম কুক বুমের পাসে বল পেয়ে দারুণ এক প্লেসিং শটে নিশানা ভেদ করেন এ ফরোয়ার্ড (২-০)।

দ্বিতীয়ার্ধে মাঠে নেমে নিজেদের রক্ষণভাগ সামলানোতেই বেশি ব্যস্ত ছিল জেমি ডে’র শিষ্যরা। তপু-সুশান্তদের রক্ষণ দেয়াল ভেদ করে অবশেষে ৬৯ মিনিটে গোলের গ্রাফটা আরো একধাপ উপরে যান কোরিয়ান স্ট্রাইকার কেং কুক চুল (৩-০)। তবে অতিরিক্ত সময়ে কাঙ্ক্ষিত সেই গোলের দেখা পায় টিম বাংলাদেশ। ডানদিক থেকে রবিউল মোহাম্মদের পাসে বক্সের ভেতরে জটলার মধ্য থেকে ডান পায়ের বুদ্ধিদীপ্ত শটে বল জালে জড়ান সাদ উদ্দিন (৩-১)। শেষ পর্যন্ত আর কোনো গোলের দেখা পায়নি কোনো দল। ৩-১ গোলে হারের মধ্য দিয়েই এবারের এশিয়াড মিশন শেষ হয় বাংলার দামাল ছেলেদের। এখন টার্গেট সাফ ফুটবল, যা চলতি মাসেই শুরু হবে ঘরের মাটিতে।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads