• শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২১ কার্তিক ১৪২৪
ads
জার্সিতে অটোগ্রাফ না দেয়ায় মেসিকে অপমান!

জার্সিতে অটোগ্রাফ না দেয়ায় অপমানিত হলেন মেসি

ছবি : সংগৃহীত

ফুটবল

জার্সিতে অটোগ্রাফ না দেয়ায় মেসিকে অপমান!

  • স্পোর্টস ডেস্ক
  • প্রকাশিত ৩০ আগস্ট ২০১৮

ভক্তদের অনেক আবদার মেটাতে হয় আর্জেন্টাইন বার্সেলোনা তারকা লিওনেল মেসিকে। তবে এবার এক ভক্তকে ফিরিয়ে দিলেন তিনি। রোজারিও সেন্ট্রালের এক জার্সিতে মেসির অটোগ্রাফ চেয়েছিলেন সেই ভক্ত। তবে বিপত্তিটা বাঁধে মেসি রোজারিও সেন্ট্রালের চিরপ্রতিপক্ষ নিউওয়েলস ওল্ড বয়েজের আজীবন সমর্থক হওয়ায়।

ঘটনাটি ঘটেছে গত সপ্তাহে।

তেলেমুন্ডো ডিপোর্টসের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এয়ারপোর্টে ভক্তরা ভিড় করে মেসির অটোগ্রাফ নিচ্ছিলেন। এসময় মধ্যবয়সী ওই নারী নিজের পরিহিত জার্সিতে মেসির অটোগ্রাফ চান। তবে সমস্যা হলো, তার পরনে ছিলো 'রোসারিও সেন্ট্রাল' ক্লাবের জার্সি। আর্জেন্টাইন এই ক্লাবটি মেসির 'শৈশবের ক্লাব নিউওয়েলস ওল্ড বয়েজের চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী।

ওই মহিলার আহ্বানে সাড়া না দেওয়ায় মেসির উপর বিরক্ত হন তিনি। এসময় মেসিকে তিনি 'আবেগহীন' বলে কটাক্ষ করেন।

 

     

আসলে ব্যাপারটি দাঁড়িয়েছে, লিওনেল মেসির কাছে রিয়াল মাদ্রিদের জার্সি নিয়ে গিয়ে অটোগ্রাফ চাইবার মতো। বুয়েনস এয়ারসের বাইরে সবচেয়ে জনপ্রিয় দুই প্রতিদ্বন্দ্বী হলো নিউওয়েলস এবং রোজারিও। তবে মূল কথাটি হলো, লিওনেল মেসির হাতেখড়ি এই নিউওয়েলসেই! তাতেই ঘটনার গুরুত্ব বেড়েছে। ২০০১ সালে বার্সেলোনায় যোগদানের আগে মেসি ছয় বছর লিউওয়েলস ওল্ড বয়েজের হয়ে খেলেছিলেন। যাই হোক না কেন, ভক্ত যে ভগ্ন হৃদয়ে ফিরে গেছেন, তা জানাতে ভুল করেননি তিনি। সাংবাদিক জুয়ান আরাঙ্গোর মতে, সেই ভক্ত মেসিকে ‘পাষাণ হৃদয়’ অ্যাখ্যা দিয়েছেন। মেসির মতো খেলোয়াড়, যিনি ফুটবলে পাঁচবার ব্যালন-ডি-অরের মতো পুরস্কার জিতেছেন, তাকে হৃদয়হীন বলা একটু অস্বাভাবিকই শোনায়।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads