• রবিবার, ২৫ আগস্ট ২০১৯, ১০ ভাদ্র ১৪২৫
ads
মেসির নৈপুণ্যে বার্সার জয়

বার্সার হয়ে তৃতীয় গোল করার মুহূর্তে মেসি

ছবি : ইন্টারনেট

ফুটবল

মেসির নৈপুণ্যে বার্সার জয়

  • স্পোর্টস ডেস্ক
  • প্রকাশিত ২২ জানুয়ারি ২০১৯

ভবিষ্যতে ভরসা করা যায় এমন আস্থার জায়গাটি হয়তো তরুণ ওসমান ডেম্বেলে ধীরে ধীরে প্রমাণ করে চলেছেন। কিন্তু এখনো বার্সেলোনার মূল ভরসা যে লিওনেল মেসি তাতে কোনো সন্দেহ নেই। দলকে জয়ী করতে মেসির প্রয়োজনীয়তা এখনো অনুভব করে কাতালান জায়ান্টরা। রোববার রাতের ম্যাচটি তারই প্রমাণ। বদলি বেঞ্চ থেকে উঠে এসে লেগানেসের বিপক্ষে মেসির সুবাদেই ৩-১ গোলের জয় তুলে নিয়েছে বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা। এই জয়ে লা লিগায় পাঁচ পয়েন্ট এগিয়ে টেবিলের শীর্ষস্থানটিও ধরে রেখেছে এরনেস্তো ভালভার্দের দল। ক্যাম্প ন্যুতে কোচ ভালভার্দে মূল একাদশে মেসিকে বিশ্রাম দিয়েছিলেন। সেই সুযোগে ডেম্বেলে অনেকটা একক প্রচেষ্টায় ৩২ মিনিটে দলকে এগিয়ে দিয়েছিলেন। ২১ বছর বয়সী এই ফ্রেঞ্চ তারকা ৬৯ মিনিটে গোড়ালিতে হালকা আঘাত পেয়ে মাঠ ত্যাগ করেন। কিন্তু তার আগেই মার্টিন ব্রেথওয়েইটের মাধ্যমে ম্যাচে সমতা ফেরায় লেগানেস। ৬৪ মিনিটে কার্লেস আনেলার স্থানে মেসিকে মাঠে নামান ভালভার্দে। আর মাঠে নেমেই নিজেকে প্রমাণে খুব বেশি দেরি করেননি এই আর্জেন্টাইন সুপারস্টার। মেসির জোরালো শট লেগানেস গোলক্ষক পিচু কিউলার আটকাতে ব্যর্থ হলে লুইস সুয়ারেজ সেই বল জালে জড়ান। এরপর ইনজুরি টাইমে মেসি নিজেই গোল করে দলের জয় নিশ্চিত করেছেন। যদিও সুয়ারেজের গোল নিয়ে লেগানেস প্রতিবাদ করেছিল। পিচুকে ফাউলের অপরাধে গোলটি বাতিলের অনুরোধও জানিয়েছিল সফরকারীরা। ম্যাচ শেষে লেগানেস কোচ মরিসিও পেলেগ্রিনি বলেছেন, ‘এটা স্পষ্ট ফাউল ছিল। এই ধরনের সিদ্ধান্তের সহযোগিতা নেওয়ার কোনো প্রয়োজনই বার্সার নেই।’ কিন্তু ভিএআর ফাউলের বিষয়টি নাকচ করে দেয়। তবে সব মিলিয়ে এই জয়টা বার্সেলোনার প্রাপ্য ছিল। এর মাধ্যমে আটলেটিকো মাদ্রিদের থেকে নিজেদের পয়েন্টে ব্যবধান এগিয়েই রাখল কাতালান শিবির। তৃতীয় স্থানে থাকা রিয়াল মাদ্রিদের থেকে বার্সা ১০ পয়েন্ট এগিয়ে রয়েছে।

সেপ্টেম্বরে এই লেগানেসের কাছে অ্যাওয়ে ম্যাচে পরাজিত হয়েছিল বার্সেলোনা। ১৪তম স্থানে থাকা দলটির মৌসুমে এটাই একমাত্র বড় জয়।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads