• বৃহস্পতিবার, ৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২৬ মাঘ ১৪২৮
আখাউড়া স্থলবন্দরে সিএন্ডএফ এজেন্টদের কর্মবিরতি, আমদানি-রপ্তানি বন্ধ

সংগৃহীত ছবি

আমদানি-রফতানি

আখাউড়া স্থলবন্দরে সিএন্ডএফ এজেন্টদের কর্মবিরতি, আমদানি-রপ্তানি বন্ধ

  • আখাউড়া (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ০৭ জুন ২০২২

কেন্দ্রীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া স্থল বন্দরে সিএন এফ এজেন্টদের কর্মবিরতি চলছে। তিন দফা দাবিতে নৌ, বিমান ও স্থল বন্দরে এক দিনের কর্মবিরতি শুরু হয়েছে। কর্মবিরতির কারনে মঙ্গলবার  সকাল থেকে এ বন্দরে আমদানি-রফতানি কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। তবে আন্তর্জাতিক ইমিগ্রেশন দিয়ে  উভয় দেশের যাত্রী পারাপার স্বাভাবিক রয়েছে।

প্রতিদিন এই বন্দর দিয়ে আড়াই থেকে তিন কোটির টাকার পণ্য আমদানি-রপ্তানি হয়। এসব রপ্তানি পণ্যের মধ্যে রয়েছে- রড, সিমেন্ট, এলপিজি গ্যাসসহ প্রায় ১৫ থেকে ২০ পণ্য দ্রব্য রয়েছে।আখাউড়া স্থল বন্দরে আমদানি রপ্তানিকারক অ্যাসসিয়েশনের সভাপতি মোবারক হোসেন জানান, উত্তরাধিকার আইন, আমদানি কারকদের ভুলের খেসারত সিএনএফ এজেন্টদের দেওয়া পাশাপাশি এইচ এস কোড়ে নাম্বারে ভুল হলে সিএন্ডএফ এজেন্টদের দায়ী করা হয়।

এসব বিষয় নিয়ে গত একবছর যাবত ফেডারশনের কর্মকর্তা এনবিআরে চিঠি চালাচালি করলে বিষয়টি কোন সুরাহা হয়নি। তাই বাধ্য হয়ে কর্ম বিরতির ডাক দেওয়া হয়েছে।

বন্দরের শ্রমিক সরদার সিরাজুল হক  বলেন, বন্দর দিয়ে প্রতিদিন ৪০/৫০ ট্রাক আসা যাওয়া করলেও কর্মবিরতির কারনে তা বন্ধ রয়েছে।

আখাউড়া স্থলবন্দরে রাজস্ব কর্মকর্তা মোহাম্মদ আনিছুল হক ভূঁইয়া জানান, আমদানি-রপ্তানি বন্ধ থাকলেও কাস্টমের কার্যক্রম স্বাভাবিক রয়েছে।  আখাউড়া আন্তর্জাতিক ইমিগ্রেশন কর্মকর্তা আবু বকর সিদ্দিক জানান, এ বন্দর দিয়ে আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রম  বন্ধ থাকলেও  পাসপোর্টধারী যাত্রী পারাপার স্বাভাবিক রয়েছে। 

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads