• মঙ্গলবার, ২৭ জুলাই ২০২১, ১২ শ্রাবণ ১৪২৮
বাস টার্মিনালে পার্কিং এর নামে চলছে নীরব চাঁদাবাজি

প্রতিনিধির পাঠানো ছবি

সারা দেশ

বাস টার্মিনালে পার্কিং এর নামে চলছে নীরব চাঁদাবাজি

  • মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি
  • প্রকাশিত ২৯ মে ২০২১

করোনা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে দীর্ঘদিন পর গণপরিবহন চালু হওয়ায় এক অর্থলোভী পরিবহন নেতার মদদে মানিকগঞ্জ বাস টার্মিনালে পার্কিং এর নামে চলছে নিরব চাঁদাবাজির মহোৎসব ।

জানা গেছে, ঢাকা আরিচা মহাসড়কে সেলফি পরিবহন নামে ১৫০ গাড়ী রয়েছে পাটুরিয়া টু গাবতলী রুটে এবং শুভযাত্রা মিনিবাস গেটলক ও লুকাল মিলিয়ে ৩০০ গাড়ী মানিকগঞ্জ বাসস্ট্যান্ড থেকে গুলিস্থান রুটে যাতায়াত করে । এছাড়া  ১৫ সিটের হাইওয়ে পরিবহন বানিয়াজুরী টু নয়াডিঙ্গী রুটে ও ৬০০ সিএনজি জেলায় বিভিন্ন রুটে যাত্রী পরিবহন করে । গণপরিবহনের উপর সরকারি বিধিনিষেধ শিথিল হওয়ার পর মানিকগঞ্জ বাসষ্টান্ডে পরিবহন মালিকদের ও চালকদের জিম্মি করে প্রতিদিন ৫০ টাকা পাকিং এর স্থলে সেলফি পরিবহন থেকে ২০০ থেকে ৩০০, শুভযাত্রা মিনিবাস থেকে ৫০০ থেকে ৬০০ এবং ১৫ সিটের হাইওয়ে পরিবহন থেকে ৪০০ থেকে ৫০০ টাকা করে চাঁদা নেয়া হচ্ছে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, মানিকগঞ্জ বাসটার্মিনালের সামনে সোনালী ব্যাংকের নীচ থেকে আট থেকে দশজন জেলার পরিবহন নেতার নির্দেশে সকাল থেকে সন্ধা পর্যন্ত গাড়ীর গতিরোধ করে এইসব পরিবহন থেকে চাঁদা তুলতে ব্যস্ত সময় পার করছে জেলা পরিবহন নেতার এসব অনুসারী চাঁদাবাজ বাহিনী ।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক শুভযাত্রা মিনিবাসের মালিক বলেন, লাখ লাখ টাকা খরচ করে গাড়ী কিনে অসহাত্বের ন্যায় নিরবে চাঁদা দিয়ে গাড়ী চালাতে হচ্ছে। ৫০ টাকা পাকিং এর নামে দিতে হচ্ছে ৫০০  থেকে ৬০০ টাকা। তাও আবার কাউকে না বলার শর্তে।

একাধিক চালকের সাথে কথা বলে জানা যায়,গণপরিবহন চালু হওয়ার পর থেকে  জেলা পরিবহন নেতার নির্দেশে  ৫০ টাকা পাকিং চার্জের নামে আমাদের জিম্মি করে ৫০০ থেকে ৬০০ টাকা করে চাঁদা নিচ্ছে।

জেলা সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির সভাপতি মো: জাহিদুল ইসলাম জাহিদ বলেন, টার্মিনাল পাকিং চার্জ বাবদ ৫০ টাকা ছাড়া অতিরিক্ত কোন টাকা আদায় করা হয় না। যদি কেউ অতিরিক্ত টাকা আদায় করে থাকে তাহলে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এ বিষয়ে পুলিশ সুপার রিফাত রহমান শামীম বলেন, কোন ভুক্তভোগী পরিবহনের মালিক অতিরিক্ত টাকা নেয়ার বিষয়ে অভিযোগ করলে আদায়কারীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads