• বৃহস্পতিবার, ২ ডিসেম্বর ২০২১, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

হলিউড

জোহানসনের বিবাহ অভিযান

  • বিনোদন ডেস্ক
  • প্রকাশিত ২২ ডিসেম্বর ২০২০

হলিউড তারকা স্কারলেট জোহানসন। সুন্দর মুখশ্রী, আকর্ষণীয় শারীরিক গঠন আর অনবদ্য অভিনয়-সবকিছুর সংমিশ্রণের একটি নাম। কিন্তু তার মনটা যে অন্য কারো দখলে, সেটা বোঝা গিয়েছিল গত বছরের শেষ দিকে। ভ্যানেটি থেকে হলিউড রিপোর্টার, বাঘা বাঘা সব গণমাধ্যমের চোখ এড়ানো এত সহজ নয়। সেটা হাড়ে হাড়ে টের পাচ্ছেন এ ‘মার্ভেল কন্যা’। রসিয়ে রসিয়ে জোহানসনের তৃতীয় বাগদানের খবর প্রচার করেছে তারা। স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন উঠতে পারে জোহানসন যেহেতু বিয়েটা প্রথমবার করছেন না, তাহলে এত আলোচনা কেন? প্রশ্নের মাঝেই উত্তর লুকানো আছে। বিয়েটা জোহানসনের বলে কথা। হলিউড টপ চার্ট তো বটেই, বিশ্ব বিনোদন দুনিয়ায় স্কারলেট জোহানসন মেগাস্টার। সঙ্গে তার সুরেলা কণ্ঠও বেশ সমাদৃত। যার হালকা সর্দিকাশি হলেই নিউজ হয়, আর এ তো বিয়ে-শাদি! হইচই তো পড়বেই।

ভাবটা ছিল এমন, কাকপক্ষীও টের পাবে না জোহানসন ও কলিন জস্টের আংটি বদলের খবর। বিয়ের ছবি প্রকাশ করতে না পারলেও ‘গোপন বিয়ে’ বলে ফলাও করে খবর ছেপে দিয়েছে মার্কিন গণমাধ্যমগুলো। অনেকটা বাধ্য হয়েই ‘অ্যাভেঞ্জারস’-খ্যাত এই তারকা মুখ খুলেছেন। দুজনের পুরনো একটি ছবি শেয়ার করে ছোট্ট একটা ক্যাপশন জুড়ে দেন, ‘আই ডু’। ব্যস, রটনা তখন ঘটনায় স্বীকৃতি পেয়ে যায়। ঘটনাটা সংবাদপত্রে ওঠে আসে ঠিক এভাবে, ‘২০১৭ সালের মে মাস থেকেই স্কারলেটের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্কে জড়ান কমেডিয়ান কলিন জস্ট। ২০১৯ সালের মে মাসে তাদের বাগদান সম্পন্ন হয়। এবার ২০২০ সালের অক্টোবরের শেষ সপ্তাহে বিয়ে সারলেন তারা।’

তবে বিয়ে নিয়ে লুকোচুরি করলেও জোহানসন ও জস্ট জুটি সাধুবাদ পাওয়া মতোই একটি কাজ করেছেন। সাদামাটা বিয়ের আয়োজন করে টাকা বাঁচিয়েছেন। সেই টাকা মিলস অন হুইলস আমেরিকা নামের একটি দাতব্য সংস্থাকে দান করেন, যাতে তারা করোনা দুর্যোগে মানুষের পাশে দাঁড়াতে পারে। সংস্থাটির অফিশিয়াল ফেসবুক পেজে পুরো বিষয়টি উঠে আসে এভাবে, ‘আমরা অত্যন্ত আনন্দের সঙ্গে জানাচ্ছি, পরিবার ও বন্ধুদের উপস্থিতিতে একটি ঘরোয়া অনুষ্ঠানে স্কারলেট জোহানসন এবং কলিন জস্ট বিয়ের পর্ব সেরে ফেলেছেন। স্বাস্থ্যবিধি মেনে সংক্ষিপ্ত আয়োজনে তারকা জুটির বিয়ে সম্পন্ন হয়। তারা বিয়ের খরচ বাঁচিয়ে সেই অর্থ দান করেছেন সংস্থাটিতে।’

৩৫ বছর বয়সি বড় পর্দার এই ব্ল্যাক উইডোর নতুন জীবনসঙ্গী কমেডিয়ান কলিন জস্ট এখন দিব্যি ঘুরে বেড়াচ্ছেন। এইতো সেদিন নিউইয়র্কের রাস্তায় তাদের দেখা গেছে। স্কারলেটের পরনে ছিল হালকা আকাশি রঙের জিনস প্যান্ট, গায়ে পাতলা সোয়েটার, মুখে মাস্ক, চোখে রোদচশমা, পায়ে স্ন্যাকস, পিঠে ব্যাগ। আর বাঁ হাতের আঙুলে জ্বলজ্বল করছে সোনার আংটি- বিয়ের আংটি।

সম্প্রতি এলেন ডিজেনারাসের শোতে স্কারলেট বলেন, ‘কলিন হুট করে একটি আংটি নিয়ে সিনেমার মতো একটা অস্বস্তিকর পরিবেশ বানাল। অবশ্য আমার খারাপ লাগেনি। কলিন মানুষ হিসেবে ভাবুক আর রোমান্টিক। আমি আংটি রেখেছি। আর বলেছি, ভেবে জানাব।’

এদিকে মার্কিন সাময়িকী ‘পিপুল’র সঙ্গে কথা বলেছেন কলিন জস্টের ঘনিষ্ঠজন। তিনি জানিয়েছেন, ‘ওরা মিডিয়া ডেকে হইচই করে বিয়ে করতে চায়নি। বিয়েটা ব্যক্তিগত, আর সেটা গোপন রাখা তাদের অধিকার। তাই কাছের, হাতে গোনা কয়েকজন আর পরিবারের সদস্যদের উপস্থিতিতে বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সেরেছেন। নতুন জীবনে খুবই সুখী এই দম্পতি।’

বিয়ের পিঁড়িতে এ নিয়ে তিনবার বসলেন স্কারলেট। আগের দুই বিয়ে কোনোটাই বেশিদিন টেকেনি। কানাডিয়ান তারকা রায়ান রেনল্ডকে ২০০৮ সালে বিয়ে করেন স্কারলেট। তিন বছর পর সেই বিয়ে ভেঙে যায়। এরপর ফরাসি সাংবাদিক রোমেন ডোরিয়াকের সঙ্গে বিয়ের পর্ব সেরেছিলেন তিনি। তাদের একটি কন্যাও রয়েছে রোজ নামে। ২০১৭ সালে ডিভোর্স হয় এই জুটির। ব্রিটিশ এক গণমাধ্যমকে একবার স্কারলেট হাসতে হাসতে বলেছিলেন, ‘বিয়েটা করি মনের মিল হলে। যখন দেখি মিলটা অমিল হয়ে যাচ্ছে, তখনই ছেড়ে দেই। সামনের দিনগুলোতেও যে এমন হবে না, সেটা বলতে পারছি না।’ পুরনো সেই সাক্ষাৎকারটি সামনে এনে ভারতীয় একটি সাংবাদিক মজা করেই লিখেছেন, ‘জোহানসন বিবাহ অভিযানে নেমেছেন। এটার শেষ কোথায় তিনিও জানেন না।’

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads