• শনিবার, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ৩১ কার্তিক ১৪২৮
পরিণত অপু বিশ্বাস

সংগৃহীত ছবি

শোবিজ

পরিণত অপু বিশ্বাস

  • বিনোদন প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত ২২ মে ২০২১

ঢাকাই চলচ্চিত্রের এক উজ্জ্বল নাম অপু বিশ্বাস। প্রায় দেড় যুগের ক্যারিয়ারে তিনি উপহার দিয়েছেন অসংখ্য ব্যবসা সফল ছবি। তাই তো ভক্ত-অনুরাগীরা তাকে ঢালিউড কুইন বলে ডাকে। গত বুধবার অপু অভিনীত বহুল প্রতীক্ষিত ছবি ‘প্রিয় কমলা’র টেলিভিশন প্রিমিয়ার করে চ্যানেল আই। আর এর পরই ছবিটি পাওয়া যাচ্ছে ইউটিউবে। অপু বিশ্বাস ও বাপ্পী চৌধুরী অভিনীত ‘প্রিয় কমলা’ চ্যানেল আইয়ের নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেলে ছবিটি দেওয়ার পর থেকেই অসংখ্য দর্শক ছবিটি নিয়ে নিজেদের মতামত জানাচ্ছেন। বেশির ভাগ দর্শকই ছবিটির প্রশংসা করেছেন।

এর আগে গত ২৬ মার্চ স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে ছবিটি মুক্তি পায়। ১৯৭১ সালে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণ শুনে গ্রামবাংলার মানুষের যে জাগরণ উঠেছিল, সেই গল্প নিয়ে নির্মিত হয়েছে ছবিটি। এখানে নাম ভূমিকায় অভিনয় করেছেন অপু। এমন গল্পের ছবিতে এবারই তাকে দেখা গেল। মুক্তিযুদ্ধের সময় কমলার জীবনের নানা চিত্র দারুণভাবে ফুটিয়ে তুলেছেন তিনি। অপু বিশ্বাস বলেন, বেশিদিন আগের কথা নয়। চট্টগ্রামে ‘ছায়াবৃক্ষ’ নামের একটি ছবিতে অভিনয় করছিলাম। হঠাৎ শাহরিয়ার নাজিম জয় ফোন করে বললেন, আমার পরবর্তী ছবিতে তুমি হবে কমলা। ছবিটি স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে নির্মিত হবে। যেহেতু আগে বাণিজ্যিক ঘরানার ছবিতে আমায় বেশি দেখা গেছে। তাই প্রস্তাব পাওয়ামাত্র ছবিতে কাজের জন্য রাজি হই। এবারই প্রথম মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে কাজ করলাম। সব সময় দর্শকরা যে অপুকে দেখে অভ্যস্ত, এবার তার বিপরীত দেখছেন; একদমই নন গ্ল্যামার একটি চরিত্র। আমি সর্বোচ্চ চেষ্টা করেছি।

ঢাকাই চলচ্চিত্রের এক উজ্জ্বল নাম অপু বিশ্বাস। প্রায় দেড় যুগের ক্যারিয়ারে তিনি উপহার দিয়েছেন অসংখ্য ব্যবসা সফল ছবি। তাই তো ভক্ত-অনুরাগীরা তাকে ঢালিউড কুইন বলে ডাকে। অপুর সিনেমাযাত্রা শুরু হয়েছিল ২০০৪ সালে প্রখ্যাত লেখক ও পরিচালক আমজাদ হোসেনের ‘কাল সকালে’র মাধ্যমে। ২০০৫ সালে এফআই মানিকের ‘কোটি টাকার কাবিন’ ছবিতে প্রধান নারী চরিত্রে অভিনয় করেন। এর পর আর তাকে পেছন ফিরে তাকাতে হয়নি। অভিনয় দক্ষতা এবং সৌন্দর্যের কারণে মিষ্টি মেয়ে অপু খুব সহজে দর্শক মনে জায়গা করে নেন। একশর বেশি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন। এবার অপু বললেন মুক্তির অপেক্ষায় থাকা ছবির কথা। তিনি জানান, শিগগিরই পশ্চিমবঙ্গে মুক্তি পাবে সংগীতশিল্পী নচিকেতা চক্রবর্তীর পরিচালনায় ‘শর্টকাট’ আর দেশে মুক্তি পাবে দেবাশীষ বিশ্বাসের ‘শ্বশুরবাড়ি জিন্দাবাদ টু’। অপু বলেন, ‘সৃষ্টিশীল কাজ মানুষকে বাঁচিয়ে রাখে দীর্ঘ সময়। তাই তো পেছনের সব দুঃখকষ্ট ভুলে এখন আমি কাজে নিয়মিত।’ অপুর এই কথায় বোঝা যায়, তিনি এখন অনেক পরিণত। ব্যক্তিজীবনের সব হতাশা কাটিয়ে কাজের পেছনে ছুটে চলছেন অপু। তাই বলে কাজের জন্য পরিবারে সময় দেওয়া ভুলে যাননি তিনি। একদিকে কাজ, অন্যদিকে ছেলে জয়কে নিয়ে বেশ ভালো আছেন অপু। ছেলের কথা বলতেই কিছুটা আবেগী স্বরে বলেন, ‘ছেলেই আমার পৃথিবী। কাজ শেষে যখন ওর মায়াঘেরা মুখখানি দেখি, তখন সব ক্লান্তি ভুলে যাই। একটা সময় আমি অনেক কেঁদেছি; কিন্তু আর নয়। আমি চাই, আমার হাসিমাখা মুখ আমার সন্তান দেখুক সব সময়।’

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads