• সোমবার, ১৫ আগস্ট ২০২২, ৩১ শ্রাবণ ১৪২৯
আনন্দের বাঁধ ভেঙেছে তারকাদের মনেও

সংগৃহীত ছবি

শোবিজ

আনন্দের বাঁধ ভেঙেছে তারকাদের মনেও

  • বিনোদন প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত ২৬ জুন ২০২২

গতকাল শনিবার উদ্বোধন হলো স্বপ্নের পদ্মা সেতুর। আনন্দে আত্মহারা নদীর দুই পাড়ের মানুষ। এই সেতু উদ্বোধনের মধ্য দিয়ে রাজধানী ঢাকার সঙ্গে দক্ষিণাঞ্চলের কয়েকটি জেলার সরাসরি যোগাযোগ স্থাপন হয়ে গেল। তারপর আবার বিশাল বাজেটের এ সেতুটি নির্মিত হয়েছে সম্পূর্ণই সরকারের নিজস্ব অর্থায়নে। ফলে সাধারণ জনতার পাশাপাশি পদ্মা সেতু নিয়ে গর্বিত ও বাঁধ ভাঙা আনন্দ তারকাদের মধ্যেও। চিত্রনায়িকা নিপুন আক্তার বললেন, ‘পদ্মা সেতু আমাদের আত্মমর্যাদা, আমাদের অহংকার। শত বাধা, ষড়যন্ত্র অতিক্রম করে পদ্মা সেতু আজকে চালু হলো। এটি শুধুমাত্র প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্যই সম্ভব হয়েছে। ধন্যবাদ প্রধানমন্ত্রী আপনাকে।’ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন আরেক চিত্রনায়িকা ইয়ামিন হক ববিও। তিনি বলেছেন, ‘খুব ভালো লাগছে। এত বছরের একটা অপেক্ষা শেষ হয়েছে। খুবই সুন্দর একটি জিনিস প্রধানমন্ত্রী বাস্তবে রূপায়িত করেছেন। আমরা প্রধানমন্ত্রীর কাছে কৃতজ্ঞ।’ বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সহ-সাধারণ সম্পাদক সাইমন সাদিক বলেন, ‘পদ্মা সেতু সারা বাংলাদেশের মানুষকে এক করেছে। আমরা বিশ্বাস করি, বাঙালি জাতি চাইলে অনেক কিছু করতে পারে। আমরা আবারো প্রমাণ করেছি আমাদের সক্ষমতা কতটা। নিজেদের অর্থায়নে পদ্মা সেতু করে তা বুঝিয়ে দিয়েছি। শুভ কামনা।’

এ প্রজন্মের জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী ফাতেমা তুয জাহরা ঐশী বলেছেন, ‘স্বপ্নের পদ্মা সেতু।

 সে স্বপ্নের বাস্তবায়ন হয়ে গেছে। ব্যাপারটি আমাদের জন্য যতটা আনন্দের, ঠিক ততটাই আবেগের। দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের সঙ্গে অন্যরকম সংযোগ স্থাপন হয়েছে। এতে করে দেশের অর্থনীতির অনেক উন্নতি সাধন হতে যাচ্ছে।’ অভিনেতা ও নির্মাতা মীর সাব্বিরের বিশ্বাস, ‘পদ্মা সেতুর সুবাদে বাংলাদেশের নাটক-চলচ্চিত্র এখন আর আগের মতো ঢাকাকেন্দ্রিক থাকবে না। দুটি শিল্পেরই পরিসর আরো বড় হবে। তাতে আমরা যেমন উপকৃত হবো, তেমনি যারা আমাদের কাজ দেখেন, সেই দর্শকদের মধ্যেও এটি চমৎকারভাবে ছড়িয়ে যাবে।’ ছোটপর্দার জনপ্রিয় অভিনেত্রী নাদিয়া আহমেদ বলেছেন, ‘সত্যি কথা বলতে, লঞ্চে যাতায়াত করতে হবে বলে দক্ষিণাঞ্চলে গিয়ে কাজ করা হতো না। পদ্মা সেতুর ফলে এখন প্রচুর শুটিং হবে ওইদিকে। তাছাড়া ঢাকার সঙ্গে দক্ষিণাঞ্চলের জেলাগুলোর যে সংযোগ স্থাপন হলো পদ্মা সেতু চালুর মধ্য দিয়ে, বর্তমান সরকারের এই কীর্তির কথা সোনার অক্ষরে লেখা থাকবে।’ সাবেক মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ ও চলচ্চিত্র অভিনেত্রী জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশীর দৃষ্টিতে, ‘পদ্মা সেতুর মাধ্যমে শুটিংয়ের জন্য নতুন লোকেশন পাওয়া যাবে। একই সঙ্গে এটি আমাদের চলচ্চিত্র শিল্পকে অনুপ্রেরণাও জোগাবে।’

 ছোটপর্দার এই প্রজন্মের অভিনেতা তৌসিফ মাহবুব বলেন, ‘শুটিংয়ের জন্য আমাদের অনেক লোকেশনে যাওয়ার প্রয়োজন হয়। কিন্তু দক্ষিণাঞ্চলে পুরো ইউনিট নিয়ে যাওয়া অনেক খরচের ব্যাপার। এখন সেতু হওয়ায় ভোলাতে নাটকের শুটিং সহজে করা যাবে।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads