• শুক্রবার, ১২ আগস্ট ২০২২, ২৮ শ্রাবণ ১৪২৯

পুঁজিবাজার

 ৪২৮ কোটি টাকার মূলধন সংগ্রহে পিবিআইএল

  • নিজস্ব প্রতিবেদক
  • প্রকাশিত ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২

করোনা মহামারির মধ্যেও ২০২১ সালে ৪২৮ কোটি টাকার মূলধন সংগ্রহ করতে সক্ষম হয়েছে প্রাইম ব্যাংক ইনভেস্টমেন্ট লিমিটেড (পিবিআইএল)। ইস্যু-ম্যানেজার হিসেবে ইউনিয়ন ব্যাংক লিমিটেডকে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত করার মধ্য দিয়ে বাজার থেকে ৪২৮ কোটি টাকার মূলধন সংগ্রহ করেছে প্রতিষ্ঠানটি। যা ব্যাংকিং খাতে কোম্পানিগুলোর মধ্যে বৃহত্তম ও দেশের পুঁজিবাজার ইতিহাসের চতুর্থ বৃহত্তম প্রাথমিক গণপ্রস্তাব।

রাজধানীর বনানীতে পিবিআইএল-এর করপোরেট অফিসে গত রোববার ‘মিট দ্য প্রেস’ অনুষ্ঠানে এসব তথ্য তুলে ধরেন প্রতিষ্ঠানটির শীর্ষ কর্মকর্তারা।

এতে জানানো হয়, গত বছর ইসলামী ব্যাংক, আল-আরাফাহ ইসলামী ব্যাংকসহ চারটি শরীয়াহভিত্তিক ব্যাংকের পারপিচুয়াল বন্ডের ইস্যু ম্যানেজার এবং লিড অ্যারেঞ্জার হিসেবে ২ হাজার ৪০০ কোটি টাকা সংগ্রহ এবং বন্ডগুলোকে সেকেন্ডারি মার্কেটে লেনদেন উপযোগী করতে সহায়তা করে পিবিআইএল।

আল-আরাফাহ ও ইউনিয়ন ব্যাংক লিমিটেডের সাব-অর্ডিনেটেড বন্ডে ইস্যু ম্যানেজার এবং লিড অ্যারেঞ্জার হিসেবে ১ হাজার ৪০০ কোটি টাকা সংগ্রহ করে দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। বিভিন্ন বন্ডের ট্রাস্টি সেবাও প্রদান করে আসছে পিবিআইএল।

বর্তমানে শরীয়াহভিত্তিক গ্লোবাল ইসলামী ব্যাংক ও মেঘনা ইন্স্যুরেন্সের আইপিওর ইস্যু ম্যানেজার হিসেবেও কাজ করছে পিবিআইএল। কোম্পানিগুলো খুব শিগগিরই নিয়ন্ত্রক সংস্থার অনুমোদন পাবে বলে আশা করছে প্রতিষ্ঠানটি।

পাশাপাশি বেস্ট ইলেকট্রনিক্স, বেস্ট লাইফ ইন্সুরেন্স লিমিটেডসহ আরো কিছু মানসম্মত কোম্পানিকে মূল বাজারে অন্তর্ভুক্তি এবং এসএমই প্ল্যাটফরমের জন্য বাছাই করা কিছু কোম্পানিকে নিয়েও কাজ করছে পিবিআইএল।

মিট দ্য প্রেস-এ উপস্থিত ছিলেন প্রতিষ্ঠানটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও তাবারক হোসেন ভূঁঞা, চিফ অপারেটিং অফিসার খন্দকার রায়হান আলী, হেড অফ প্রাইমারি মার্কেট অপারেশন নাবিলা রহমান, হেড অফ রিসার্চ রাহাত-উল-আমিন এবং হেড অফ ইস্যু ম্যানেজমেন্ট এইচ এ মামুন।

তাবারক হোসেন ভূঁঞা বলেন, ‘পুঁজিবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থার সঙ্গে তাল মিলিয়ে ইক্যুইটি এবং বন্ড মার্কেটের উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছি এবং আশা করছি আগামী দিনগুলোতে আমাদের এই অগ্রযাত্রা অব্যাহত থাকবে।’

পিবিআইএল বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন অনুমোদিত একটি মার্চেন্ট ব্যাংক। ৩০০ কোটি টাকা পরিশোধিত মূলধনের কোম্পানিটি একটি পূর্ণাঙ্গ মার্চেন্ট ব্যাংক হিসাবে ইস্যু ম্যানেজমেন্ট, করপোরেট অ্যাডভাইজরি, আন্ডাররাইটিং, ট্রাস্টি সেবা এবং পোর্টফোলিও ম্যানেজমেন্ট বিষয়ে গ্রাহকদের বিভিন্ন পরিষেবা সেবা দিয়ে আসছে।

এর বাইরে পিবিআইএল বিভিন্ন কোম্পানির একীভূতকরণ ও অধিগ্রহণের পরামর্শক এবং কোম্পানির মূলধন উত্তোলন ও অর্থায়নে কাজ করে যাচ্ছে।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads