• মঙ্গলবার, ৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২৪ মাঘ ১৪২৮

অপরাধ

রায়পুরায় জোড়া খুনের ঘটনায় গ্রেপ্তার ২

  • অনলাইন ডেস্ক
  • প্রকাশিত ০৭ ডিসেম্বর ২০২২

সুজন বর্মণ, নরসিংদী প্রতিনিধি:
নরসিংদীর রায়পুরার শেরপুরে একটি কলাক্ষেতে জোড়া খুনের ঘটনায় দুইজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। জুয়া খেলার টাকা লেনদেনের বিরোধের জেরে এই জোড়া খুনের ঘটনা ঘটেছে বলে পুলিশকে জানিয়েছে গ্রেপ্তারকৃতরা।
বুধবার দুপুরে পুলিশ সুপার কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এই তথ্য জানায় নরসিংদীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) মো: আল আমিন।
এর আগে মঙ্গলবার রায়পুরা থানার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।
গ্রেপ্তারকৃতরা হলো, রায়পুরা থানার শেরপুর পশ্চিম পাড়ার আসাদ হোসেনের ছেলে মিল্লাত হোসেন বাইজিদ ওরফে কামরুল (১৮) ও শেরপুর কান্দাপাড়ার দুলাল মিয়ার ছেলে কাউসার (২৫)।
সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, মঙ্গলবার সকালে পরিবারের সদস্যরা কলাক্ষেত থেকে উদ্ধার হওয়া মুখমন্ডল বিকৃত করা দুই মরদেহের পরিচয় শনাক্ত করেন। পরে রাতেই নিহত আলী হোসেনের স্ত্রী রেনু বেগম বাদী হয়ে অজ্ঞাত আসামী করে রায়পুরা থানায় মামলা করেন। দুই মরদেহ উদ্ধারের পর থেকেই ঘটনাটির ছায়া তদন্ত শুরু করে জেলা গোয়েন্দা শাখা (ডিবি)। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ও প্রযুক্তির সহায়তায় রায়পুরার বিভিন্ন স্থানে অভিযান পরিচালনা করে কামরুল ও কাউসারকে আটক করা হয়।
সংবাদ সম্মেলনে আরো জানানো হয়,প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা জোড়া খুনের ঘটনায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে। তারা সহ মোট ৬ জন এই হত্যায় অংশগ্রহণ করে বলে জানায়। জুয়া খেলার টাকা—পয়সা লেনদেনের বিরোধের জেরে দুইজনকে পরপর কুপিয়ে হত্যা করা হয়।
নরসিংদীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) মো: আল আমিন বলেন, গ্রেপ্তারকৃতদের স্বীকারোক্তি ও দেখানো মতে হত্যায় ব্যবহৃত একটি ছোড়া জব্দ করা হয়েছে। এছাড়া ঘটনাস্থলে পাওয়া প্রায় অর্ধেক ধূমপান করা লাকিস্ট্রাইক সিগারেটের সাথে আসামী কাউসারকে গ্রেপ্তারের সময় তার নিকট থেকে পাওয়া লাকিস্ট্রাইক সিগারেটেরও মিল পাওয়া গেছে। এঘটনায় জড়িত আসামীদের গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।
উল্লেখ্য, গত সোমবার দুপুরে রায়পুরার আদিয়াবাদ ইউনিয়নের শেরপুর এলাকার একটি কলাক্ষেত থেকে অজ্ঞাত দুইজনের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

 

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads