• শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২১ কার্তিক ১৪২৪
ads
নবীদের পরিচয় ও সংখ্যা

পবিত্র কোরআনে ২৫ জন (মতান্তরে ২৬ জন) নবী-রসুলের নাম আলোচিত হয়েছে

সংরক্ষিত ছবি

ধর্ম

নবীদের পরিচয় ও সংখ্যা

  • মিরাজ রহমান
  • প্রকাশিত ৩০ জুলাই ২০১৮

নবী আরবি শব্দ। ‘নাবায়ূন’ আরবি মূলধাতু থেকে নির্গত। অর্থ সংবাদ বা বার্তাবাহক। শব্দটিকে আরবি ‘নাব্ওয়াতুন’ শব্দমূল থেকে নির্গত ধরা হলে অর্থ হবে উচ্চ মর্যাদায় আসিন ব্যক্তিত্ব (আল মুফরাদাত ফি গারিবিল কোরআন)। ইসলামী পরিভাষায়, যারা আল্লাহর মনোনীত ব্যক্তিত্ব হিসেবে তাঁর বাণী লোকালয়ে পরিবেশনের দায়িত্বপ্রাপ্ত হন তারাই নবী (ইসলামী বিশ্বকোষ)। হজরত আবু উমামা থেকে বর্ণিত সাহাবি হজরত আবু জর (রা.) বলেছেন, আমি রসুল (সা.)কে জিজ্ঞাসা করলাম, নবীদের সংখ্যা কত? রসুল (সা.) উত্তরে বললেন, এক লাখ চব্বিশ হাজার, এর মধ্যে রসুল ছিলেন ৩১৫ মতান্তরে ৩১৩ জন (মুসনাদে আহমদ)।

সব রসুলই নবী ছিলেন, কিন্তু সব নবী রসুল নন। আল্লাহ মনোনীত পৃথিবীতে প্রেরিত সব পয়গম্বরই নবী অভিধাভুক্ত ছিলেন, কিন্তু সব নবী রসুল ছিলেন না। নবী শব্দটি ব্যাপক। আল্লামা মুফতি আহমদ শফী (র.) লিখেছেন, নবী বলতে ওই সত্তাকে বুঝতে হবে, যিনি তাঁর পূর্ববর্তী শরিয়তের প্রচার-প্রসার চালিয়েছেন (মারেফুল কোরআন)।

আল্লাহ মহান প্রেরিত এক লাখ চব্বিশ হাজার নবী-রসুলের মধ্য থেকে পবিত্র কোরআনে ২৫ জন (মতান্তরে ২৬ জন) নবী-রসুলের নাম আলোচিত হয়েছে। পবিত্র কোরআনে আলোচিত নবী-রসুলগণের নামগুলো হলো— হজরত আদম (আ.), হজরত ইদরিস (আ.), হজরত নুহ (আ.), হজরত হুদ (আ.), হজরত সালিহ (আ.), হজরত ইবরাহিম (আ.), হজরত ইসমাইল (আ.), হজরত ইসহাক (আ.), হজরত লূত (আ.), হজরত ইয়াকুব (আ.), হজরত ইউসুফ (আ.), হজরত শুয়াইব (আ.), হজরত মুসা (আ.), হজরত ইলিয়াস (আ.), হজরত ইয়াশা (আ.), হজরত দাউদ (আ.), হজরত সুলায়মান (আ.), হজরত আইয়ূব (আ.), হজরত ইউনুস (আ.), হজরত জুল-কিফল (আ.), হজরত জাকারিয়া (আ.), হজরত ইয়াহইয়া (আ.), হজরত ইসা (আ.), হজরত মোহাম্মদ (সা.)। এছাড়া আরো রয়েছেন হজরত শীস (আ.), হজরত হারুন (আ.), হজরত শামুইল (আ.), হজরত খিজির (আ.), হজরত শোয়াইব (আ.), হজরত লোকমান (আ.), হজরত হিজকিল (আ.), হজরত উজায়ির (আ.), হজরত ইউশা ইবনে নুন (আ.)। আলোচ্য নামগুলোর বাইরেও কিছু নবীর নাম ইতিহাসের বিভিন্ন গ্রন্থে পাওয়া যায়। সেগুলো হলো— হজরত শাহ সেকান্দার (আ.), হজরত হরকিল (আ.), হজরত কালুত (আ.), হজরত দানিয়াল (আ.), হজরত আরমিয়া (আ.) ও হজরত আজির (আ.)। উল্লিখিত নবী-রসুলদের মধ্যে হজরত আদম (আ.) প্রথম মানব ও নবী আর হজরত মোহাম্মদ (সা.) সর্বশেষ ও সর্বশ্রেষ্ঠ নবী। 

লেখক : আলেম ও সাংবাদিক

 

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads