• রবিবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৮, ৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৪
ads

বিনোদন

জেলের ডাল-রুটি-সবজি খেলেন না সালমান খান

  • ডেস্ক রিপোর্ট
  • প্রকাশিত ০৬ এপ্রিল ২০১৮

বৃহস্পতিবার রাতে সালমান খানকে দেওয়া হয়েছিন ডাল, চাপাতি রুটি আর সবজি। আর শুক্রবার সকালের নাস্তায় খিচুড়ি। জেলের দেওয়া এই খাবার নাকি ছুঁয়েও দেখেননি তিনি। তাহলে কি বৃহস্পতিবার রাত থেকে না খেয়েই আছেন সালমান? এই প্রশ্নের কোনো উত্তর মেলেনি জেল কর্তৃপক্ষের তরফ থেকে।

বলিউড সুপারস্টার এখন জোধপুর জেলের ‘কয়েদি নম্বর ১০৬’। কৃষ্ণসার হরিণ শিকারের অপরাধে বৃহস্পতিবার তাঁকে পাঁচ বছরের কারাদণ্ডে দণ্ডিত করে জোধপুরের মুখ্য বিচারবিভাগীয় ম্যাজিস্ট্রেট। শুক্রবার তাঁর জামিনের শুনানি ছিল। কিন্তু, সেখানেও কোনও ফয়সলা হয়নি। ফলে এ দিন রাতটাও জেলেই কাটাতে হবে সলমনকে।

বৃহস্পতিবার সাজা ঘোষণার পর আদালত থেকে সরাসরি জেলে নিয়ে যাওয়া হয় সালমানকে। সেখানেই তাঁর ডাক্তারি পরীক্ষা হয়। প্রথম দিনে নাকি রক্তচাপ বেড়ে গিয়েছিল অভিনেতার। তবে, এখন তাঁর রক্তচাপ স্বাভাবিক।

জেল সুপার বিক্রম সিংহ জানিয়েছেন, শোওয়ার জন্য কাঠের বিছানা এবং কম্বল দেওয়া হয়েছে সালমানকে। তাঁর সেলে কুলারও রাখা হয়েছে। তাছাড়া আর কোনো বিশেষ সুবিধা পাবেন না বন্দি সালমান। আর পাঁচটা সাধারণ কয়েদির মতোই তাঁকে থাকতে হবে। খেতে হবে জেলের খাবারই। তবে জেলের দেওয়া খাটে নাকি ঘুমাননি সালমান। মেঝেতে শুয়েই রাত কাটিয়েছেন। এই জোধপুর কেন্দ্রীয় কারাগারেই এখন রয়েছেন ধর্ষণে অভিযুক্ত ধর্মগুরু আসারাম বাপু। তার সঙ্গে একই ওয়ার্ডে রয়েছেন সালমান। দু’নম্বর ব্যারাকের দু’নম্বর সেলে রাখা হয়েছে তাঁকে।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads