• শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৮, ২ অগ্রহায়ণ ১৪২৪
ads
রাজপথ আমাদেরই দখলে

রাজপথ আমাদেরই দখলে

প্রতীকী ছবি

ফিচার

রাজপথ আমাদেরই দখলে

  • শাহাদাত ফাহিম
  • প্রকাশিত ১১ আগস্ট ২০১৮

রিকশা

আজ আর কাল নয়। এই বছর আর ওই বছর নয়। সব সময় রাজপথ আমাদের দখলেই ছিল। আছে এবং থাকবে। না থেকে অবশ্য উপায়ও নেই। কারণ আমাদের তিন চাকার রিকশা। এটি আমাদের কপালগুণ। সৌভাগ্যও বলা যায়। আমাদের কোনো বৈঠা নেই। যে কারণে আমরা নদীতে চলি না। আবার ডানাও নেই। ফলে আকাশেও উড়ি না। বলতে পারেন একপ্রকার বাধ্য হয়ে আমাদের স্থলপথ দিয়েই চলতে হয়। এবার হোক সেটি চিপা গলি কিম্বা রাজপথ। আজীবন আমরা এই পথ দিয়েই চলেছি। শুধু আমরা না; আমাদের পূর্বরিকশাও এই পথ দিয়েই চলেছে। আমরা তো তাদেরই উত্তরসূরি। সুতরাং গর্ব করেই বলতে পারি- রাজপথ আমাদের দখলেই থাকছে।

 

জ্যাম

শোনেন। রাজপথ বলেন আর প্রজাপথ বলেন- কোনো পথই আমাদের দখলদারিত্বের বাইরে নেই। দখলে আমরা যেকারো চেয়ে ওস্তাদ। আমাদের সুনাম দেশ থেকে দেশান্তরে। আমরা অত্যন্ত দক্ষতার সঙ্গে পথ দখলে রাখি। পথ দখলকরণে আমাদের সঙ্গে কারো তুলনাই হতে পারে না। এমনভাবে দখল করি যে, অনেকে জ্যামে থেকে অজ্ঞান হতেও বাধ্য। শান্তিতে হাঁটবেন; সেই সুযোগটাও রাখি না। যেকোনো সময় যেকোনো যান নিয়ে নেয় জান। আটকিয়ে রাখি ঘণ্টার পর ঘণ্টা। ফলে সময় মতো গন্তব্যে পৌঁছতে দেই না কাউকেই। সবাইকেই বসের ঝাড়ি খাওয়াই। এটি আমাদের সফলতা। তাই নির্দ্বিধায় বলতে পারি- রাজপথ থাকছে আমাদেরই দখলে।

 

হকার

আপনারা আমাদের ভালো করেই চেনেন। কারণ আমরা সবসময় রাজপথ দখলে রাখি। এটি আপনারা হাড়ে হাড়ে টের পাচ্ছেন। আমাদের জ্বালায় আপনারা মোটামুটি ধরনের অস্থির। এই অস্থিরতা দিন দিন বেড়েই চলছে। আগামীতে আমাদের জ্বালায় আপনারা কী করবেন সে চিন্তায় ঘুম হারাম করে দিয়েছেন। কারণ, পথে নামলেই আপনারা আমাদের দেখা পেতে বাধ্য। আমরা ফুটপাত তো দখলে রাখিই, মূল পথের অধিকাংশ জায়গাও দখলে রাখতে ভুল করি না। আমাদের এই দখলদারিত্বের কৃতিত্বের ধারাবাহিকতা খুবই বেগবান। আমরা প্রতিজ্ঞাবদ্ধ যে, বাকি পথটুকুও নিজেদের আয়ত্তে নিতে পারব শীঘ্রই। সো, বলতেই পারি- রাজপথ থাকছে আমাদেরই দখলে।

 

 

লোকাল বাস

আমাদের নাম শুনলেই মানুষের মনে এক ধরনের ফিলিংস অনুভূত হয়। এই ফিলিংস আনন্দের নাকি বেদনার, সেটি বড় কথা নয়। দুনিয়াতে আমাদের মতো ক্ষমতাধর আর কেউ নেই। কারণ আমরা রাজপথ রাখি নিজেদের দখলে। দখলে মানে রাজপথকে আমরা একপ্রকার নিজেদের পকেটেই রাখি। আমরা এই পথে রাজত্ব কায়েম করছি আদিম যুগ থেকে। যখন যাকে ইচ্ছা ডলে দেই, পিষে দেই। যাত্রীদের ভালোই জিম্মি করে রাখি। সহজে এগোই না। যাত্রীরা রাগ ক্ষোভে হিব্রু তুর্কি ভাষা ইউজ করে বিভিন্ন বাক্য বলতে বলতে ক্লান্ত হওয়ার পর সামান্য এগোই। আমাদের দখল থেকে রাজপথকে মুক্ত করার সাধ্য কারো নেই। রাজপথ আমাদের দখলেই থাকছে।

 

ট্রাফিক পুলিশ

রাজপথ বা ফুটপাত। এক লেন বা তেরো লেন। ডাকাতি বা চোরাই পথ- সবই আমাদের দখলে। আমাদের দখলে মানে পথগুলোর মালিক আমরাই। কারণ, এখানে আমাদের পূর্ণ রাজত্ব চলে। এখানে অন্য কারো খাওয়া নেই। বেইল নেই। রাজপথ রাজ্যের রাজা আমরাই। আমাদের ইশারাতে চলে সব কিছু। এই ইশারা করতে আমাদের ডান হাতেরও প্রয়োজন পড়ে না। বাম হাতের আঙুলের ইশারাই যথেষ্ট। গাড়ির লাইসেন্স দেখার আলগা ক্ষমতা আমাদের। আমরা দাপটের সঙ্গে ক্ষমতার অপব্যবহার করি। গাড়ি থেকে যাবতীয় হাদিয়া আদায়ের পাওয়ারটাও আমাদের। আমাদের খুশি করা বিনে কোনো গাড়ির চাকা ঘোরার সাধ্য নেই। সো, রাজপথ থাকছে আমাদেরই দখলে।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads