• বুধবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৮, ৩০ কার্তিক ১৪২৫
ads
জয়ে শুরুর প্রত্যাশা কিশোরীদের

ভুটান সাফ মিশন শুরুর আগে খোশমেজাজে বাংলাদেশ অনুর্ধ্ব-১৫ দলের ফুটবলাররা

সংরক্ষিত ছবি

ফুটবল

জয়ে শুরুর প্রত্যাশা কিশোরীদের

সাফ অনূর্ধ্ব-১৫ নারী চ্যাম্পিয়নশিপ আজ শুরু

  • স্পোর্টস রিপোর্টার
  • প্রকাশিত ০৯ আগস্ট ২০১৮

সাফ অনূর্ধ্ব-১৫ নারী চ্যাম্পিয়নশিপ শুরু হচ্ছে আজ। ভুটানের রাজধানী থিম্পুতে উদ্বোধনী দিনেই মাঠে নামবে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ। প্রতিপক্ষ পাকিস্তান। চাংলিমিথাং স্টেডিয়ামে স্থানীয় সময় সন্ধ্যা ৭টায় শুরু হবে দুই দলের এ ফুটবল দ্বৈরথ। শিরোপা অক্ষুণ্ন রাখার মিশন নিয়েই এবার ভুটান সফরে গেছে গোলাম রব্বানী ছোটনের শিষ্যরা। অভিজ্ঞ ও নবীন ফুটবলারদের দিয়ে গড়া দলটি নিয়ে বেশ আশাবাদী কোচ ছোটন।

মেয়েদের সাফ অনূর্ধ্ব-১৫ ফুটবলে অংশ নিতে গত ৬ আগস্ট ঢাকা ত্যাগ করে টিম বাংলাদেশ। দুপুরে পাহাড়ের দেশে পৌঁছে রাতেই ম্যাচ ভেন্যুতে হালকা অনুশীলন করে আবহাওয়ার সঙ্গে নিজেদের মানিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে দল। ভূ-পৃষ্ঠ থেকে অনেক উচ্চতার কারণে ফুটবলারদের দম নিতে কিছুটা কষ্ট হওয়ার কথা। তাই মারিয়া-আঁখিদের বিশ্রাম না দিয়েই অনুশীলন শুরু করেন কোচ।

গত ডিসেম্বরে ঘরের মাঠে শিরোপা জিতেছিল বাংলাদেশ। দ্বিতীয় আসরেও চ্যাম্পিয়ন হতে আশাবাদী তারা। দেশ ছাড়ার আগে শিরোপা জয়ের প্রত্যয়ের কথা শুনিয়ে গেছেন কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন এবং অধিনায়ক মারিয়া মান্ডা। ‘বি’ গ্রুপে থাকা লাল-সবুজরা নিজেদের প্রথম ম্যাচে আজ মাঠে নামবে। পাকিস্তানের বিরুদ্ধে প্রথম ম্যাচেই জয় তুলে নিতে চায় বাংলাদেশ। গ্রুপ পর্বে ছোটনের শিষ্যদের আরেক প্রতিপক্ষ নেপাল। ওই ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে ১৩ আগস্ট। অন্যদিকে ‘এ’ গ্রুপে রয়েছে স্বাগতিক ভুটান, ভারত ও শ্রীলঙ্কা। উদ্বোধনী দিনের প্রথম ম্যাচে শিরোপা প্রত্যাশী ভারত মুখোমুখি শ্রীলঙ্কার। ম্যাচটি শুরু হবে বিকাল ৪টায়।

বিশ্ব ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফিফার র্যাঙ্কিংয়ে পাকিস্তানের চেয়ে ২৯ ধাপ এগিয়ে বাংলাদেশ। ১১২ নম্বরে রয়েছে ছোটনের শিষ্যরা। আর পাকিস্তানের অবস্থান ১৪১ নম্বরে। দুই দলের মুখোমুখিতেও জয়ের পাল্লাটা ঝুলে আছে লাল-সবুজদের দিকে। একবারের লড়াইয়ে জয়টি বাংলাদেশের। ইতিহাস আর ফিফা র্যাঙ্কিং বেশ আত্মবিশ্বাসী করে তুলেছে বাংলাদেশকে। তাছাড়া রিপা-রেহেনা-আঁখিদের বর্তমান পারফরম্যান্সও ‘টনিক’ হিসেবে কাজ করবে এবারের আসরে। পাকিস্তানের বিরুদ্ধে প্রথম ম্যাচেই জয় তুলে নিয়ে সাফ মিশনটা শুরু করতে চাইছেন কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন। গতকালও অনুশীলনে ঘাম ঝরিয়েছে লাল-সবুজ শিবির। অনুশীলন শেষে কোচ ছোটন বলেন, ‘আমরা এখানে এসেছি শিরোপা জয় করতে। তাই প্রথম ম্যাচটা আমাদের জন্য বেশ গুরুত্বপূর্ণ। এ ম্যাচে জয় দিয়ে আমরা সাফ শুরু করতে চাই। প্রতিপক্ষ হিসেবে পাকিস্তান বেশ শক্তিশালী। অতীত রেকর্ড কী আছে সেটা নিয়ে আমরা ভাবছি না। আমাদের দৃষ্টি জয়ের দিকে। আমরা ম্যাচ বাই ম্যাচ চিন্তা করছি।’ দলে কোনো ইনজুরি নেই জানিয়ে কোচ বলেন, ‘দলের সবাই সুস্থ আছে। আগামীকাল (আজ) আমরা পূর্ণশক্তির দল নিয়েই মাঠে নামব। পাকিস্তানের বিরুদ্ধে অ্যাটাকিং ফুটবল খেলতে চাই। জয়ের সঙ্গে সঙ্গে আমাদের লক্ষ্য থাকবে নান্দনিক ফুটবল উপহার দেওয়া।’

গত আসরে ঘরের মাঠে খেলা দলটির ১৮ জন সদস্যই আছেন এবার টিমে। নতুন করে নেওয়া হয়েছে পাঁচজনকে। প্রথমবারের মতো বয়সভিত্তিক দলে সুযোগ পেলেও এ পাঁচজনকে নিয়ে বেশ আশাবাদী কোচ। কারণ তাদেরকে বাছাই করা হয়েছে জেএফএ কাপ ও জেলা লিগ থেকে।

সাফের শুরুটা কেমন করে বাংলার কিশোরী ফুটবলাররা, তা দেখতে মুখিয়ে আছেন সবাই।

আরও পড়ুন



বাংলাদেশের খবর
  • ads
  • ads